টাইমসের সেরা ব্যক্তিত্ব গ্রেটা থানবার্গ

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ২২:০৫, ডিসেম্বর ১১, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ২২:২৮, ডিসেম্বর ১১, ২০১৯

বিশ্বখ্যাত মার্কিন সাময়িকী টাইমস ম্যাগাজিনের বর্ষসেরা ব্যক্তিত্ব নির্বাচিত হয়েছেন সাড়া জাগানো সুইডিশ জলবায়ু কর্মী গ্রেটা থানবাগ। বুধবার টাইমস কর্তৃপক্ষ এই ঘোষণা দেয়। ১৬ বছর বয়সী গ্রেটার ব্যাপারে তারা লেখে ‘একজন সাধারণ কিশোরী সত্যকে সামনে আনার সাহস জুগিয়ে পুরো প্রজন্মের আদর্শ হয়ে উঠেছে।

জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবিলায় পদক্ষেপ নেওয়ার দাবিতে ২০১৮ সালে প্রতি শুক্রবার সুইডিশ পার্লামেন্টের বাইরে অবস্থান নেওয়া শুরু করেন স্কুলছাত্রী গ্রেটা থানবার্গ। তার এই অবস্থানের মধ্য দিয়ে বিশ্বজুড়ে বেগবান হয় জলবায়ু আন্দোলন। সম্প্রতি তার প্রতি সমর্থন জানিয়ে দুনিয়াজুড়ে এই আন্দোলনে শামিল হন লাখ লাখ মানুষ।

টাইম ম্যাগাজিন জানায়, পৃথিবীর জলবায়ু পরিবর্তন নিয়ে দুশ্চিন্তাকে গ্রেটা বৈশ্বিক আন্দোলনে রুপদান করে। শুক্রবার স্কুল আন্দোলনের মাধ্যমে মনুষ্যসৃষ্ট জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাবটি সারাবিশ্বকে চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিয়েছে সে।

টাইমস তাকে এমন সময় এই সম্মান দিলো যখন জাতিসংঘ সম্মেলনে গ্রেটা রাজনীতিবিদদের সমালোচনা করছে। বুধবার মাদ্রিদে জাতিসংঘ সম্মেলনে গ্রেটা বলে, যখন রাজনীতিবিদ ও প্রতিষ্ঠানের প্রধান নির্বাহীরা এটা জাহির করতে চান যে সত্যিই অনেক কাজ হচ্ছে, তখনই আসলে বিপদ বাড়ে। কারণ আসলে কোনও কাজই হচ্ছে না। শুধুমাত্রা কৌশলী জনসংযোগ করা হচ্ছে।

গ্রেটা আরও জানায়, মনে হচ্ছে দেশগুলো এতে করে আইনের ফাঁক পেয়ে গেছে এবং তাদের ইচ্ছামতো কাজ করার সুযোগ পাচ্ছে।

এর আগেও জাতিসংঘের জলবায়ু বিষয়ক সম্মেলনে আক্রমণাত্মকভাবে কথা বলেছিলেন থানবার্গ। গত সেপ্টেম্বরে সরাসরি বিশ্বনেতাদের উদ্দেশে আবেগপূর্ণ বক্তব্যে গ্রেটা থানবার্গ বলেন, ‘সবকিছুই ভুলভাল চলছে। আমার এখানে থাকার কথা নয়। সমুদ্রের অপর পাড়ে আমার স্কুলে ফিরে যাওয়ার কথা, তবুও আপনারা আশার জন্য আমাদের তরুণদের কাছে আসেন। কতটা দুঃসাহস আপনাদের?’ সুইডেনের এই স্কুলশিক্ষার্থী বলেন, ‘ফাঁকা বুলি দিয়ে আমার স্বপ্ন আর শৈশব কেড়ে নিয়েছেন আপনারা।’ বিশ্বনেতাদের দ্রুত জলবায়ু পরিবর্তন রোধে ব্যবস্থা নেওয়ার আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, ‘আমরা আপনাদের পর্যবেক্ষণ করতে থাকবো।’

/এমএইচ/

লাইভ

টপ