রাখাইনে আবারও ইন্টারনেট বন্ধের নির্দেশ

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৫:৫০, ফেব্রুয়ারি ০৪, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৭:০০, ফেব্রুয়ারি ০৪, ২০২০

জাতিসংঘের আপত্তি সত্ত্বেও সহিংসতা কবলিত রাখাইন রাজ্যে আবারও ইন্টারনেট বন্ধ করে দিতে টেলিকম কোম্পানিগুলোকে নির্দেশ দিয়েছে মিয়ানমার। নরওয়েভিত্তিক মোবাইল ফোন অপারেটর টেলিনর গ্রুপ এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, সে দেশের পরিবহন ও যোগাযোগ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের এই নির্দেশনা রাখাইন ও চীন রাজ্যের পাঁচটি এলাকায় কার্যকর হবে। নিরাপত্তা ও জনস্বার্থকে কারণ হিসেবে উল্লেখ করে ‘সাময়িকভাবে’ এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানানো হয় ওই বিবৃতিতে। উল্লেখ্য, মাত্র ৫ মাস আগে এসব এলাকা থেকে ইন্টারনেটের নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করা হয়।

মিয়ানমারের সেনাবাহিনী ও জাতিগত বিদ্রোহীদের মধ্যকার সংঘাত বন্ধে শান্তি আলোচনার প্রেক্ষাপটে গত বছরের সেপ্টেম্বরে রাখাইনের মংডু, বুথিডাং, রাথেডাং ও মাইবোন এবং চিন রাজ্যের একটি শহরে ইন্টারনেট সংযোগ পুনঃস্থাপন করা হয়। জুনে প্রথমবার দেশটির বেশকিছু এলাকায় ইন্টারনেট বন্ধ করে দেওয়া হয়। তখনকার চারটি শহরে এখনও ইন্টারনেট বন্ধ রয়েছে।

সোমবার (৩ ফেব্রুয়ারি) সকাল থেকে রাখাইন ও চীন রাজ্যের পাঁচটি শহরে ইন্টারনেট নিষেধাজ্ঞা কার্যকর হয়। আগামী তিন মাস এসব এলাকায় ইন্টারনেট বন্ধ থাকবে। টেলিনরের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, তারা উন্মুক্ত যোগাযোগে বিশ্বাস করে।

মিয়ানমার সরকারের পক্ষ থেকে এই বিষয়ে তাৎক্ষণিক কোনও মন্তব্য করা হয়নি।

গত বছরের নভেম্বরে ইন্টারনেট সংযোগ পুনঃস্থাপনের আহ্বান জানায় জাতিসংঘ। এছাড়া বিদেশি বিনিয়োগকারীদের পক্ষ থেকে সতর্ক করে বলা হয়, ইন্টারনেট বন্ধ করে দেওয়ায় মিয়ানমারের মর্যাদার ওপর প্রভাব পড়ছে।

/জেজে/বিএ/এমএমজে/

লাইভ

টপ