এবার সাংবাদিকদের ওপর চড়াও ভারতের হিন্দুত্ববাদীরা?

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ২৩:৩৪, ফেব্রুয়ারি ২৫, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ২৩:৩৪, ফেব্রুয়ারি ২৫, ২০২০

সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন (সিএএ) ঘিরে দিল্লিতে সহিংসতার খবর সংগ্রহের সময় মঙ্গলবার আক্রান্ত হয়েছেন পাঁচ সংবাদকর্মী। এদের একজন গুলিবিদ্ধ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন আর অন্যদের মারাত্মকভাবে পেটানো হয়েছে। কাউকে কাউকে পেটানো শুরুর পর হিন্দু পরিচয় পেয়ে ছেড়ে দিয়েছে সংঘবদ্ধ হামলাকারীরা। আবার পুড়িয়ে দেওয়া মসজিদের ছবি তোলার সময়ও আক্রান্ত হয়েছেন কোনও কোনও সাংবাদিক। বিতর্কিত সিএএ আইনের পক্ষ নেওয়া হিন্দুত্ববাদীরা এসব হামলা চালিয়েছে বলে সন্দেহ জোরালো হচ্ছে।

গত রবিবার থেকে বিতর্কিত সিএএ সমর্থক ও বিরোধিতাকারীদের মধ্যে পাল্টাপাল্টি সংঘর্ষ শুরু হয়েছে। গত দুই দিন ধরে চলা এই সহিংসতায় অন্তত ১৩ জন নিহত হয়েছে। আর অন্তত ৭০ জন গুলিবিদ্ধসহ আহত হয়েছে দেড় শতাধিক মানুষ। ভজনপুর, চান্দ বাগ, কারায়াল নগরসহ বিভিন্ন এলাকায় লাঠি ও রড হাতে রাস্তায় টহল দিয়েছে সশস্ত্র ব্যক্তিরা। জ্বালিয়ে দেওয়া হয়েছে বিভিন্ন দোকানপাট ও যানবাহন। 

সোমবার সিএএ সমর্থকদের অবস্থান মৌজপুর এলাকায় সংবাদ সংগ্রহ করতে গিয়ে গুলিবিদ্ধ হয়েছেন ভারতীয় সম্প্রচারমাধ্যম জেকে ২৪ নিউজ টিভি চ্যানেলের সাংবাদিক আকাশ নাপা। পরে তাকে গুরু তেগ বাহাদুর (জিটিবি) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। নিউজ ১৮ এর প্রতিবেদক জেবা ওয়ারসি টুইটারে লিখেছেন, মৌজপুরে গুলিবিদ্ধ জেকে ২৪ এর সাংবাদিককে জিটিবি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। পরিস্থিতি আয়ত্তের বাইরে চলে যাচ্ছে।

এর আগে এনডিটিভির প্রতিবেদক অরবিন্দ গুনাশেখর ও সৌরভ শুকলাকে উত্তরপূর্ব দিল্লিতে মারপিট করা হয। পরে তাদের হাসপাতালে পাঠানো হয়। সম্প্রচারমাধ্যমটির আরেক প্রতিবেদক নিধি রাজদান টুইট বার্তায় লিখেছেন, কিছুক্ষণ আগে দিল্লিতে আমার দুই সহকর্মীকে পিটিয়েছে সংঘবদ্ধ হামলাকারীরা। কেবলমাত্র ‘আমাদের লোক-হিন্দু’ বুঝতে পারার পরই তারা পেটানো থামায়। চরম ঘৃণ্য।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের সৌম্য লাখানি জানিয়েছেন, নিউজ১৮ এর রঞ্জন শর্মা সংঘবদ্ধ হামলাকারীদের কাছে অরবিন্দ গুনাশেখরকে ছেড়ে দেওয়ার আহ্বান জানান। তিনি জানান, হামলায় গুনাশেখরের দাঁত পড়ে গেছে।

বেশ কয়েকজন সাংবাদিক টুইট বার্তায় জানিয়েছেন, জ্বালিয়ে দেওয়া একটি মসজিদের ছবি তোলার সময়ে গুনাশেখর ও শুকলার ওপর হামলা চালানো হয়। এনডিটিভির খবরে বলা হয়েছে, হামলার সময় আশেপাশে পুলিশ থাকলেও তারা কোনও পদক্ষেপ নেয়নি। সম্প্রচারমাধ্যমটি জানিয়েছে, গুনাশেখরের দাত পড়ে গেছে আর শুকলার পিঠে লাঠি দিয়ে মারা হয়েছে।

এদিকে আলাদা স্থানে হামলার শিকার হয়েছেন এনডিটিভির আরেক সাংবাদিক মরিয়ম আলাভি। সহকর্মী শ্রীনিবাসন জৈনের সঙ্গে খবর সংগ্রহের সময় তার পিঠে আঘাত করা হয়। ক্যামেরাপার্সন সুশীল রাথিও আঘাত পেয়েছেন।

/জেজে/

লাইভ

টপ