সামরিক মহড়া স্থগিত করছে তুরস্ক ও গ্রিস

সামরিক মহড়া স্থগিত করছে তুরস্ক ও গ্রিস

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ০৪:২৮, অক্টোবর ২৪, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ০৪:৫৪, অক্টোবর ২৪, ২০২০

পূর্ব ঘোষিত সামরিক মহড়া স্থগিত করছে তুরস্ক ও গ্রিস। আগামী সপ্তাহে ভূমধ্যসাগরে পৃথক এ মহড়া হওয়ার কথা ছিল। তবে ন্যাটোর সঙ্গে আলোচনার পর উত্তেজনা প্রশমনে দুই দেশই এটি স্থগিতে সম্মত হয়েছে। শুক্রবার ন্যাটো প্রতিরক্ষামন্ত্রীদের সম্মেলনের পর সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে সংস্থাটির মহাসচিব জেন্স স্টোলটেনবার্গ এ তথ্য জানিয়েছেন।

জেন্স স্টোলটেনবার্গ বলেন, আমি নিশ্চিত করতে পারি যে গ্রিস ও তুরস্ক উভয়েই আগামী সপ্তাহে অনুষ্ঠিতব্য তাদের সামরিক মহড়া বাতিলের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

ন্যাটো মহাসচিব বলেন, আমি সংঘাতপূর্ণ অবস্থা থেকে বেরিয়ে আসাকে স্বাগত জানাই। মহড়া স্থগিত করায় গ্রিস ও তুরস্ককে স্বাগত জানিয়েছি। কেননা, এটি ঝুঁকি কমিয়েছে। শুধু তাই নয়; বরং এটি অন্তর্নিহিত সমস্যা নিয়ে আলোচনার পথ প্রশস্ত করতে সহায়তা করেছে।

পূর্ব ভূমধ্যসাগরে তুরস্কের জ্বালানি সম্পদ অনুসন্ধান নিয়ে গ্রিস ও সাইপ্রাসের সঙ্গে আঙ্কারার সাম্প্রতিক বিরোধের সূত্রপাত। গত ১০ আগস্ট পূর্ব ভূমধ্যসাগরে তেল ও গ্যাস সমৃদ্ধ এলাকায় একটি অনুসন্ধানকারী জাহাজ পাঠায় তুরস্ক। আঙ্কারার ওই কার্যক্রমকে অবৈধ কর্মকাণ্ড হিসেবে আখ্যায়িত করে ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদস্য গ্রিস ও সাইপ্রাস। এ নিয়ে এক পর্যায়ে তুরস্কের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপের হুঁশিয়ারি দেয় ইউরোপীয় ইউনিয়ন। গত ১৩ সেপ্টেম্বর তুরস্ক রক্ষণাবেক্ষণের জন্য অনুসন্ধানকারী জাহাজ অরুচ রেইচ-কে উপকূলে ফিরিয়ে আনলে উত্তেজনা কিছুটা প্রশমিত হয়। এর মধ্যেই উত্তেজনা প্রশমনে উদ্যোগী হয় ন্যাটো। সূত্র: ডেইলি সাবাহ।

/এমপি/

লাইভ

টপ