ক্যামেরুনের স্কুলে বন্দুক হামলা, নিহত ৮

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৩:৪৭, অক্টোবর ২৫, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৬:২১, অক্টোবর ২৫, ২০২০

ক্যামেরুনের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের এক স্কুলে বন্দুকধারীর হামলায় অন্তত আটজন নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে আরও ১২ জন। শনিবার (২৩ অক্টোবর) দুপুরে কুম্বা শহরে এ হামলা হয়। জাতিসংঘকে উদ্ধৃত করে কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল জাজিরা এ তথ্য জানিয়েছে। এখন পর্যন্ত কেউ হামলার দায় স্বীকার করেনি।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছে, শনিবার দুপুরের দিকে বেসামরিক পোশাক পরা হামলাকারীরা মোটরসাইকেলে করে এসে ফ্রান্সিসকা ইন্টারন্যাশনাল বাইলিঙ্গুয়াল একাডেমি স্কুলে হামলা চালায়। হামলাকারীদের হাতে বন্দুকের পাশাপাশি চাপাতিও ছিল।

জাতিসংঘের মানবিক সহায়তাবিষয়ক সমন্বয়কের কার্যালয়ের (ওসিএইচএ)-এর বিবৃতিতে বলা হয়, ‘হামলাকারীরা গুলি চালিয়ে ও চাপাতি দিয়ে আঘাত করে অন্তত আটজনকে হত্যা করেছে।’ আহত হওয়া ১২ জনকে হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে।’

এই হামলার সঙ্গে পশ্চিমাঞ্চলীয় ইংরেজিভাষী অঞ্চলে অ্যামবোজানিয়া নামের একটি রাষ্ট্র গঠনের চেষ্টারত সশস্ত্র গোষ্ঠীগুলোর সংযোগ রয়েছে কিনা তা পরিষ্কার হওয়া যায়নি। এই গোষ্ঠীগুলো ক্যামেরুন সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে লড়াই করছে।

স্থানীয় সাংবাদিকদের ধারণ করা ভিডিওতে প্রাপ্তবয়স্ক ব্যক্তিদেরকে শিশুদের কোলে নিয়ে স্কুলটি থেকে বের হয়ে আসতে দেখা গেছে। উৎকণ্ঠায় থাকা দর্শনার্থীরা তাদের ঘিরে ছিলেন। জানা গেছে, শিশুদের কেউ কেউ আতঙ্কে দোতলা থেকে লাফিয়ে পড়ে আহত হয়েছে।

রয়টার্সের যাচাই করা একটি ছবিতে একটি শ্রেণিকক্ষের ভেতরের মেঝেতে জমে থাকা রক্ত ও কাছে শিশুদের কিছু স্যান্ডেল পড়ে থাকতে দেখা গেছে।

ইসাবেল ডিয়োনে নামের এক অভিভাবক জানান, হামলার খবর পেয়ে তিনি তার ১২ বছরের মেয়ের খোঁজে স্কুলের ভিতরে যান। সেখানে ক্লাসের মেঝেতে মেয়েকে পড়ে থাকতে দেখেন তিনি, তার পেট থেকে রক্তপাত হচ্ছিল।

ডিয়োনে বলেন, “ও অসহায়ভাবে পড়েছিল আর চিৎকার করে বলছিল ‘মা আমাকে সাহায্য কর’, আমি তাকে বললাম, তোমার ঈশ্বরই শুধু এখন তোমাকে সাহায্য করতে পারে।”

হাসপাতালে মেয়ের চিকিৎসা চলছে বলে জানিয়েছেন ডিয়োনে।

/এফইউ/বিএ/

লাইভ

টপ