হোটেলের আলোয় হৃদয় এঁকে করোনা আক্রান্তদের প্রতি সংহতি

Send
জার্নি ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৭:৪১, মার্চ ২৫, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৭:৪৬, মার্চ ২৫, ২০২০

নায়াগ্রা ফলসের হোটেলকরোনাভাইরাস মহামারির বিরুদ্ধে লড়াই করছে সারাবিশ্ব। সবার সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করলো কানাডার অন্টারিও প্রদেশের নায়াগ্রা ফলস শহরের হোটেল ও ক্যাসিনো। কানাডার পর্যটন কর্তৃপক্ষ এই উদ্যোগকে বলছেন ‘নায়াগ্রা হার্ট অব হোপ’।

নায়াগ্রা ফলসের সব হোটেল ও ক্যাসিনোতে আশা ও সংহতির নিদর্শন হিসেবে আলো দিয়ে হৃদয় আকৃতি ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। নায়াগ্রা ফলস ট্যুরিজম সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে গত ২২ মার্চ এ তথ্য জানিয়ে মন্তব্য করেছে, ‘একটি সমাজ হিসেবে আমরা করোনাভাইরাসের বিস্তার রোধে লড়াই করতে ঐক্যবদ্ধ।’

আলোর মাধ্যমে হৃদয় আকৃতি সৃষ্টির জন্য হোটেলগুলোর সব কক্ষের বেশিরভাগ বাতি নিভিয়ে দেওয়া হয়। যেগুলো জ্বলছিল সেসব মিলেই বাইরে থেকে দেখতে ভালোবাসার প্রতীক হৃদয়ের আকার দাঁড়ায়।

যুক্তরাষ্ট্রের ম্যারিল্যান্ড রাজ্যের ব্যাল্টিমোর শহরের জনস হপকিন্স ইউনিভার্সিটির তথ্য অনুযায়ী, গত ২১ মার্চ পর্যন্ত পৃথিবীব্যাপী তিন লাখেরও বেশি মানুষ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে।

নায়াগ্রা ফলস ট্যুরিজম প্রথম নয়, করোনার ছোবলে থমকে যাওয়া দেশগুলোর সঙ্গে সংহতি প্রকাশের ঘটনা আগেও দেখা গেছে। গত সপ্তাহে করোনাভাইরাস মহামারিতে আক্রান্ত হওয়া দেশগুলোর পতাকা প্রদর্শিত হয় ব্রাজিলের ক্রাইস্ট দ্য রিডিমার মূর্তিতে। একইসঙ্গে আলোর মাধ্যমে ফুটে ওঠে আশার বার্তা।

রিও ডি জানেইরো শহরের দিকে তাকিয়ে থাকা ক্রাইস্ট দ্য রিডিমার মূর্তিতে প্রে টুগেদার (একসঙ্গে প্রার্থনা করুন) হ্যাশট্যাগ বার্তাটি বিভিন্ন ভাষায় তুলে ধরা হয়। এরপর একে একে ভেসে ওঠে এশিয়া, ইউরোপ, আমেরিকা, আফ্রিকা ও ওশেনিয়া মহাদেশের নাম। তারপর দেখানো হয় বিভিন্ন দেশের পতাকা।

সূত্র: সিএনএন

/জেএইচ/
টপ