তিন দিনব্যাপী বিদ্যাপীঠ বইমেলার উদ্বোধন

Send
বাংলা ট্রিবিউন ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৬:১৪, ডিসেম্বর ০৫, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৬:৫২, ডিসেম্বর ০৫, ২০১৯

জ্ঞানতাপস আব্দুর রাজ্জাক ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে তিন দিনব্যাপী বিদ্যাপীঠ বইমেলার উদ্বোধন হয়েছে। আজ বৃহষ্পতিবার সকালে ধানমন্ডির জ্ঞানতাপস আব্দুর রাজ্জাক বিদ্যাপীঠে এই বইমেলার উদ্বোধন করেন প্রখ্যাত লেখক ও গবেষক ড. গোলাম মুরশিদ।

উদ্বেধনী অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, ‘বর্তমানে বাংলাদেশে বইয়ের বাজার অনেক বড় হয়েছে, কিন্তু কদর বাড়েনি। কেবল বাংলা একাডেমির বইমেলা উপলক্ষে ঢাকায় প্রতি বছর তিন-চার হাজার নতুন বই প্রকাশিত হয়। এর মধ্যে কোনও কোনও বই মাত্র দু-তিনশ’ কপি ছাপা হয়, যার মধ্যে একশ কিনে নিতে হয় লেখককে। বাকি পঞ্চাশ-একশ কপি বিক্রি হয় তাও লেখকের বন্ধুবান্ধব কিংবা পরিচিত মহলের মধ্যে। এসব ক্ষেত্রে বই আর জ্ঞানের আধার নয়, বরং ব্যবহৃত হচ্ছে পরিচিতি বা খ্যাতি অর্জনের উপকরণ হিসেবে।’

তিনি আরও বলেন, ‘বইয়ের অনাদর এখন সর্বত্র। পরীক্ষায় পাশ করতে গেলে আর বই পড়তে হয় না। নোট কিংবা ইন্টারনেট ঘাঁটলেই উত্তর পাওয়া যায়। বই দিয়ে বাসা সাজানোর বিলাসিতাও এখন আর দেখা যায় না। দেশের সাংস্কৃতিক মান উন্নত করতে হলে মানসম্পন্ন বই ও সত্যিকারের পাঠক বাড়ানোর কোনও বিকল্প নেই।   সভাপতির বক্তব্যে সাবেক অর্থমন্ত্রী এম. সাইদুজ্জামান বলেন, পাকিস্তান আমলে প্রকাশকের সংখ্যা ছিল হাতে গোণা। স্বাধীনতার পর অর্থনৈতিক উন্নয়নের সঙ্গে লেখক-প্রকাশক-পাঠকের সংখ্যা অনেক বেড়েছে। বাংলাদেশে পাঠক সৃষ্টিতে উল্লেখযোগ্য ভূমিকা রেখেছে বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্রের মত বিভিন্ন সামাজিক আন্দোলন। তবে এখন বইয়ের গুণগত মান নিশ্চিত করার দিকে মনযোগ দিতে হবে।’

অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে আরও উপস্থিত ছিলেন মুক্তিযুদ্ধ-বিষয়ক গবেষক সুরমা জাহিদ। স্বাগত বক্তৃতায় জ্ঞানতাপস আব্দুর রাজ্জাক ফাউন্ডেশনের মহাপরিচালক ড. আহরার আহমদ বলেন, অধ্যাপক রাজ্জাক সারাজীবন কোন জাগতিক আকাঙ্ক্ষা ও উচ্চাভিলাষ পোষণ করেননি। জ্ঞানচর্চায় নিবেদন করে গেছেন সারাটি জীবন। তার স্মরণেই বক্তৃতা-সেমিনার, কোর্স আয়োজনের পাশাপাশি নিয়মিতভাবে আয়োজন করা হচ্ছে এই বইমেলা।

জ্ঞানতাপস আব্দুর রাজ্জাক ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে আয়োজিত এই বইমেলা চলবে ৫ থেকে ৭ ডিসেম্বর পর্যন্ত। প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত বিদ্যাপীঠ প্রাঙ্গণে। প্রথমা, ইউপিএল, অ্যাডর্ন, বেঙ্গল পাবলিকেশন্স-সহ দশটির বেশি প্রকাশনী এই মেলায় অংশগ্রহণ করছে। মেলায় ক্রেতারা ২৫% ছাড়ে বই কিনতে পারবেন।

/এফএএন/

লাইভ

টপ
X