নিজস্ব অনলাইন শিক্ষা পদ্ধতি চালু করছে ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়

Send
ক্যাম্পাস রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৬:০৫, জুন ২২, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৬:৪৩, জুন ২২, ২০২০

করোনা মহামারিতে শিক্ষা কার্যক্রম স্বাভাবিক রাখতে হার্ভার্ড-এম আই টি বিশ্ববিদ্যালয়ের আদলে নিজস্ব অনলাইন লার্নিং প্লাটফর্ম তৈরি করছে ব্র্যাক ইউনিভার্সিটি। এই অনলাইন লার্নিং প্লাটফর্মের নাম দেওয়া হয়েছে ‘বিইউএক্স’। অনলাইন এই প্ল্যাটফর্মে দুর্বল ইন্টারনেট ব্যবস্থাতেও শিক্ষার্থীরা যেকোনো স্থান থেকে স্বাচ্ছন্দ্যে ক্লাসে অংশগ্রহণ করতে পারবে।

ব্র্যাক ইউনিভার্সিটির উপাচার্য প্রফেসর ভিনসেন্ট চ্যাং বলেন, ‘স্প্রিং-২০২০ সেমিস্টারে অনলাইন কার্যক্রম পরিচালনা করতে গিয়ে আমরা বেশ কিছু সমস্যার সম্মুখীন হই। বিইউএক্স এর অনলাইন শিক্ষা পদ্ধতি হবে ভিন্ন ধাঁচের, যেখানে শিক্ষকরা জুমের মতো ভিডিও কনফারেন্সিং টুলস ব্যবহার করে পাঠদান করাবেন। এখানে আরও অনেক সুবিধা রয়েছে।’ শিক্ষা পদ্ধতির এই রূপান্তর কোর্স আধুনিকায়নের সুযোগ ঘটিয়ে আন্তর্জাতিক মানের হয়ে উঠবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি। 

দুর্বল ইন্টারনেট ব্যবস্থাতেও ‘বিইউএক্স’ এর কার্যক্রম চালু থাকবে বলে জানান প্রফেসর ভিনসেন্ট চ্যাং। তিনি বলেন, ‘শিক্ষার্থীদের ইন্টারনেট ব্যবস্থা উন্নত করতে যথাসাধ্য চেষ্টা করছি আমরা। ইন্টারনেট প্যাকেজ এবং ব্রডব্যান্ড সহায়তা করা হবে। প্রয়োজন হলে শিক্ষার্থীদের হার্ডওয়্যার প্রদান করা হবে।’   

ইতোমধ্যে সামার-২০২০ সেমিস্টারের শিক্ষার্থীদের জন্য সকল নন-টিউশন ফি মওকুফ করা হয়েছে। এছাড়া করোনা মহামারীতে শিক্ষার্থীদের শিক্ষা কার্যক্রম যাতে ব্যহত না হয় সেজন্য ১৫ কোটি টাকার স্টুডেন্ট অ্যাসিসটেন্স ফান্ড গঠন করেছে ব্র্যাক ইউনিভার্সিটি। নবগঠিত এই তহবিল সেমিস্টারের মোট টিউশন এবং ফি এর প্রায় ২৫ শতাংশ।

টিউশন ফি কমানো, আর্থিক ক্ষতিগ্রস্থ শিক্ষার্থীদের অর্থসহায়তাসহ তাদের উন্নতমানের ইন্টারনেট সুবিধা নিশ্চিত করতে স্টুডেন্ট অ্যাসিসটেন্স ফান্ডের অর্থ ব্যয় করা হবে। এছাড়া আগের মতোই চাহিদাভিত্তিক ও মেধাভিত্তিক স্কলারশিপ চালু রাখার ঘোষণা দেওয়া হয়েছে।

/এনএ/

লাইভ

টপ