X
শুক্রবার, ১২ আগস্ট ২০২২
২৮ শ্রাবণ ১৪২৯

টিটিইর বরখাস্তের আদেশ প্রত্যাহার হচ্ছে

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
০৮ মে ২০২২, ১২:৫৭আপডেট : ০৮ মে ২০২২, ১৫:০০

মন্ত্রীর ‘আত্মীয় পরিচয় দিয়ে’ বিনা টিকিটে ট্রেনে ভ্রমণের সময় জরিমানার ঘটনায় টিটিই শফিকুল ইসলামের বরখাস্তের আদেশ প্রত্যাহার করার সিদ্ধান্ত হয়েছে বলে জানিয়েছেন রেলমন্ত্রী নূরুল ইসলাম সুজন। এ ঘটনায় তিনি নিজেও ‘বিব্রত’ বলে জানিয়েছেন মন্ত্রী।

আজ রবিবার (৮ মে) দুপুরে রেলভবনে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান রেলমন্ত্রী।

রেলমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন বলেন, ‘ভুলভ্রান্তি হলে মানুষতো সেভাবেই দেখবে। এখানে যদি দেখা যায় আমার স্ত্রী কোনও দোষ করে থাকে... ইয়ে করে থাকে...। আমার কোনও ইনভলভমেন্ট এখানে ছিল না। বলা হচ্ছে যে, মন্ত্রীর কারণে এমনটা ঘটছে। আমার যদি কিছু করার থাকতো তাহলে তো সরাসরিই করতে পারতাম। কারও সাহায্যের তো দরকার হবে না। মেসেজটা যেভাবে গেছে সেটা সঠিক নয়।’

‘টিটিই শফিকুল ইসলাম সেদিন তার দায়িত্বই সঠিকভাবে পালন করেছেন’ উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, ‘টিটিইর কাজ হলো রেলে শৃঙ্খলা আনা। তার কাজইতো রেলে যাত্রীদের সহযোগিতা করা, সাহায্য করা, সঠিক জায়গায় সেবা দেওয়া; রেলের লোকদের দায়িত্বই সেটা। এখন যেভাবে ঘটেছে ঘটনাটি, তাতে আমরা বিব্রত।’

মন্ত্রী জানান, এখন শফিকুল ইসলামকে পদোন্নতি বা অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা দেওয়া হতে পারে। তাকে পুরস্কৃত করার কথাও ভাববে রেলপথ মন্ত্রণালয়।

প্রসঙ্গত, গত বৃহস্পতিবার (৫ মে) রেলমন্ত্রীর আত্মীয় পরিচয়ে বিনা টিকিটে ভ্রমণ করার অভিযোগে তিন যাত্রীর কাছ থেকে নিয়মানুযায়ী জরিমানাসহ ভাড়া আদায় করেন রেলওয়ের ভ্রাম্যমাণ টিকিট পরীক্ষক (টিটিই) শফিকুল ইসলাম।

ঘটনার কয়েক ঘণ্টা পরই ঈশ্বরদীর পাকশী বিভাগীয় রেলওয়ে বাণিজ্যিক কর্মকর্তা (ডিসিও) নাসির উদ্দিনের নির্দেশে টিটিই শফিকুলকে বরখাস্ত করা হয়। শুক্রবার সেই আদেশ কার্যকর হয়। এনিয়ে দেশব্যাপী সমালোচনা শুরু হয়। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অনেকেই তিন দিন ধরে বিষয়টি নিয়ে লেখালেখি করছেন। সমালোচনার মুখে বরখাস্তের আদেশ প্রত্যাহার করে নিলো কর্তৃপক্ষ।

/এআরআর/ইউএস/
বাংলা ট্রিবিউনের সর্বশেষ
রাজধানীর যেসব এলাকায় আজ মার্কেট-দোকানপাট বন্ধ
রাজধানীর যেসব এলাকায় আজ মার্কেট-দোকানপাট বন্ধ
ইউরোপের বৃহৎ পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রে আবারও গোলাবর্ষণ, জাতিসংঘের উদ্বেগ
ইউরোপের বৃহৎ পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রে আবারও গোলাবর্ষণ, জাতিসংঘের উদ্বেগ
কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের হলে চুরির সময় আটক ৩
কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের হলে চুরির সময় আটক ৩
বাড়ির পাশে ছুরিকাঘাতে যুবক নিহত
বাড়ির পাশে ছুরিকাঘাতে যুবক নিহত
এ বিভাগের সর্বশেষ
অব্যবস্থাপনা দূর করতে মনিটরিং সেল করা হয়েছে, হাইকোর্টকে রেলওয়ে
অব্যবস্থাপনা দূর করতে মনিটরিং সেল করা হয়েছে, হাইকোর্টকে রেলওয়ে
রেল দুর্ঘটনার বিচার বিভাগীয় তদন্ত চেয়ে রিট
রেল দুর্ঘটনার বিচার বিভাগীয় তদন্ত চেয়ে রিট
প্রতিবেদন জমা দিতে এক সপ্তাহ সময় পেলো রেলওয়ে
প্রতিবেদন জমা দিতে এক সপ্তাহ সময় পেলো রেলওয়ে
সহজ ডটকমকে করা ভোক্তা অধিকারের জরিমানা হাইকোর্টে স্থগিত
সহজ ডটকমকে করা ভোক্তা অধিকারের জরিমানা হাইকোর্টে স্থগিত
রেলে ৭ মাসে ১০৫২ দুর্ঘটনা, নিহত ১৭৮: সেভ দ্য রোড
রেলে ৭ মাসে ১০৫২ দুর্ঘটনা, নিহত ১৭৮: সেভ দ্য রোড