X
শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪
১ আষাঢ় ১৪৩১

চাকরিতে পুনর্বহালের রায় বাস্তবায়নে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা আনসার সদস্যদের

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
০৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ০১:০৩আপডেট : ০৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৬:৪০

চাকরিচ্যুত আনসার সদস্যদের চাকরিতে পুনর্বহালের রায় দ্রুত বাস্তবায়নে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন আনসার সদস্যরা। মঙ্গলবার (৬ ফেব্রুয়ারি) রাজধানীর জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে আয়োজিত এক মানববন্ধনে এ হস্তক্ষেপ কামনা করেন তারা।

মানববন্ধনে চাকরিচ্যুত আনসার সদস্য আবুল কাশেম বলেন, আমরা আনসার ব্যাটালিয়ন থেকে চাকরিচ্যুত হয়েছি। ১৯৯৪ সালের ১লা ডিসেম্বর সকল আনসার সদস্যরা বেতন ভাতাসহ জাতীয়করণের দাবিতে কর্মবিরতি দিয়েছিলেন। ঠিক সেই সময় জায়ামাত বিএনপির সরকার আনসারদের দাবির কথা বিবেচনায় না নিয়ে তাদের কিছু অসাধু নেতার কথায় আনসার বিদ্রোহ নামকরণ করেন। পাশাপাশি আনসারদের প্রতি নির্মম আচরণ করেন। যার বলি হয়েছি আমরা শত শত আনসার সদস্যরা।

তিনি আরও বলেন, কোন কারণ ছাড়াই সেনাবাহিনী, বিডিআর ও পুলিশ দ্বারা আনসারদেরকে ঘেরাও করে রাখা হয়েছিল। অমানুষিক নির্যাতনের পর অবিচারিকভাবে বন্দী করে রাখা হয়েছিল কারাগারে। আবার বিচারহীনভাবেই ছেড়ে দেওয়া হয় কারাগার থেকে। দুর্ভাগ্য হলেও সত্য কারাগার থেকে ছেড়ে দিলেও চাকরি থেকে করা হয় বহিষ্কার।

তিনি আরও বলেন, ২০২২ সালে চাকরিচ্যুত এই সদস্যরা তাদের চাকরি পুনর্বহালের রায় পেয়েছেন। আনসার বিদ্রোহ মামলায় হাইকোর্টের দেওয়া রায়ের বিরুদ্ধে সরকারপক্ষের করা আপিল বিভাগের রায়ের সন্তুষ্টি প্রকাশ করছি। প্রায় তিন দশক ধরে দুঃখ কষ্টে, অর্ধাহারে ও অনাহারে থাকা চাকরিচ্যুত আনসারদের পক্ষে আপিল বিভাগের দেওয়া পুনর্বহাল রায় অতি দ্রুত বাস্তবায়ন প্রয়োজন। আমরা এই রায় বাস্তবায়নে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করছি।

এসময় মানববন্ধনে চাকরিচ্যুত শতাধিক আনসার সদস্য উপস্থিত ছিলেন।

/এএজে/এসএইচএম/
সম্পর্কিত
গাজীপুরে ফজিলাতুন নেছা হাসপাতালে স্বাস্থ্য পরীক্ষা করেছেন প্রধানমন্ত্রী
এ মাসে আবার দিল্লি সফরে যাচ্ছেন শেখ হাসিনা
বাংলাদেশ থেকে চাকরি দিয়ে জনবল নেবে আমিরাত, বিনিয়োগও চাইলেন প্রধানমন্ত্রী
সর্বশেষ খবর
তীব্র গরমে আরাফাত ময়দানে জড়ো হচ্ছেন ১৫ লক্ষাধিক হাজি
তীব্র গরমে আরাফাত ময়দানে জড়ো হচ্ছেন ১৫ লক্ষাধিক হাজি
বেনাপোলে যাত্রীদের উপচে পড়া ভিড়, পেট্রাপোল ইমিগ্রেশনে ভোগান্তি
বেনাপোলে যাত্রীদের উপচে পড়া ভিড়, পেট্রাপোল ইমিগ্রেশনে ভোগান্তি
কমলাপুরে টিকিট পেতে দীর্ঘ লাইন
কমলাপুরে টিকিট পেতে দীর্ঘ লাইন
বিএনপির বিদেশ বিষয়ক দুটি কমিটি গঠন, প্রধান তারেক রহমান
বিএনপির বিদেশ বিষয়ক দুটি কমিটি গঠন, প্রধান তারেক রহমান
সর্বাধিক পঠিত
অবশেষে বদলি হলেন সাতক্ষীরা পৌরসভার সেই সিইও
অবশেষে বদলি হলেন সাতক্ষীরা পৌরসভার সেই সিইও
সেন্টমার্টিনে খাদ্যসংকট, কক্সবাজার থেকে গেলো পণ্যবোঝাই জাহাজ
সেন্টমার্টিনে খাদ্যসংকট, কক্সবাজার থেকে গেলো পণ্যবোঝাই জাহাজ
যানজট এড়াতে ঘুরতে হচ্ছে ২৯ কিলোমিটার সড়ক
যানজট এড়াতে ঘুরতে হচ্ছে ২৯ কিলোমিটার সড়ক
রুশ সম্পদ ‘চুরি’র পরিণতি পশ্চিমাদের ভুগতে হবে, হুঁশিয়ারি পুতিনের
রুশ সম্পদ ‘চুরি’র পরিণতি পশ্চিমাদের ভুগতে হবে, হুঁশিয়ারি পুতিনের
ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে ‘পিঁপড়ার গতিতে’ চলছে গাড়ি
ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে ‘পিঁপড়ার গতিতে’ চলছে গাড়ি