‘৩১ শতাংশ শিশু মারা যায় অপরিণত অবস্থায় জন্মের কারণে’

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ০৫:৩১, নভেম্বর ১৮, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ০৫:৩৪, নভেম্বর ১৮, ২০১৯

single pic template-1দেশের বিপুল সংখ্যক শিশু সঠিক সময়ের আগেই জন্ম নেওয়ার কারণে মারা যায় বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। তিনি বলেন, ‘দেশে প্রতিবছর ছয় লাখ শিশু জন্ম নেয়। তার মধ্যে ৩১ শতাংশ অপরিণত অবস্থায় জন্মানোর কারণে মারা যায়।’ রবিবার (১৭ নভেম্বর) সকালে বিশ্ব প্রিম্যাচ্যুরিটি দিবস উপলক্ষে আয়োজিত সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এ কথা বলেন। রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে স্বাস্থ্য অধিদফতরের জাতীয় নবজাতক স্বাস্থ্য কেন্দ্র এ সম্মেলনের আয়োজন করে।

এ সময় স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘দেশে ২০ শতাংশ মানুষ দারিদ্র্যসীমার নিচে বসবাস করে। দরিদ্র মায়েদের পুষ্টির ঘাটতি রয়েছে। অপুষ্টি, গর্ভবতী মায়ের যত্ন না নেওয়া এবং বাল্যবিবাহের কারণে অপরিণত শিশুর জন্ম হচ্ছে। এই মৃত্যু রোধ করতে মায়েদের ক্যাঙ্গারু সেবা দিতে হবে। দেশের সব হাসপাতালে ২৪ ঘণ্টা গর্ভবতী মায়েদের জন্য সেবা বিভাগ রাখতে হবে। এর পাশাপাশি নার্স ও মিডওয়াইফারিদের উপযুক্ত প্রশিক্ষণ দেওয়ার মাধ্যমে নিরাপদ মাতৃত্ব নিশ্চিত করতে হবে এবং শিশু মৃত্যুহার হ্রাস করতে হবে।’

অনুষ্ঠানে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) নিউনেটোলজি বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডা. মোহাম্মদ সহিদুল্লা বলেন, ‘বিশ্বে প্রতিবছর ১৫ মিলিয়ন শিশু সঠিক সময়ের আগেই জন্ম নেয়। এজন্য বিপুল সংখ্যক শিশু অপরিণত বয়সে মারা যায়।’

স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সচিব মো. আসাদুল ইসলামের সভাপতিত্বে সম্মেলনে আরও বক্তব্য রাখেন– নার্সিং ও মিডওয়াইফারির মহাপরিচালক আলম আরা বেগম, পরিকল্পনা শাখার যুগ্ম-প্রধান ডা. আ. এ. মো. মহিউদ্দীন ওসমানী, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রতিনিধি ড. বার্দন জাংসহ অন্যরা।

 

/জেএ/এমএএ/

লাইভ

টপ