তোষামোদকারীদের আনিসের পাশে ভিড়তে দেইনি : রুবানা হক

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ০৩:১২, জানুয়ারি ২২, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ০৩:২৭, জানুয়ারি ২২, ২০২০

 

‘শহর নিয়ে ব্যবসায়ীদের প্রত্যাশা’ শীর্ষক আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখছেন বিজিএমইএ চেয়ারম্যান রুবানা হক।

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের প্রয়াত মেয়র আনিসুল হকের স্ত্রী ও বিজিএমইএ’র সভাপতি রুবানা হক বলেছেন, আমি তোষামোদকারীদের কখনও আনিসের  পাশে ভিড়তে দেইনি। আতিক ভাই আমাদের খুব শ্রদ্ধার, তাকে যেন আমরা কেউ পথভ্রষ্ট না করি। মঙ্গলবার (২১ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় রাজধানীর রাওয়া কনভেনশন হলে 'শহর নিয়ে ব্যবসায়ীদের প্রত্যাশা' শীর্ষক সভায় তিনি একথা বলেন।

রুবানা হক বলেন, আমি কোনওদিন তোষামোদকারীদের আনিসের কাছে ভিড় করতে দেইনি। আমরা অহেতুক তোষামোদী করি। বড় নেতার পাশে সামনে দাঁড়িয়ে তাকে পথভ্রষ্ট করি। এই জায়গায় আতিক ভাইয়ের প্রতি আমার অনুরোধ, আপনি পথভ্রষ্ট হবেন না। কারও তোষামোদীতে তলিয়ে যাবেন না। আতিকুল ইসলামের কাছে অনেক প্রত্যাশা উল্লেখ করে তিনি বলেন,  আমার তার জন্য সত্যি মায়া হয়। যে কেউ বক্তৃতা দিতে গেলে আনিসুল হকের নাম শতবার নিয়ে থাকে। এটি কিন্তু আতিক ভাইয়ের ওপর এক ধরনের চাপ। আবার একইভাবে মানুষ ইতিহাসকে অস্বীকারও করতে পারে না। আনিসুল হক ভালো একজন মেয়র ছিলেন, কাজ করার চেষ্টা করেছিলেন। অল্প কিছুদিন দায়িত্বে ছিলেন, অল্প দিনে যে শহর বদলানো সম্ভব  এটা আনিসুল হক দেখিয়েছিলেন। আনিসুল শুধু শুধু স্বপ্ন দেখায়নি, সে কাজ করেছে।

তিনি বলেন, ৩০ বছর আমি আনিসের পাশে প্রচ্ছন্ন ছায়া হিসেবে পাশে দাঁড়িয়ে ছিলাম। কখনও সামনে আসিনি, কখনও কোনও অর্গানাইজেশনে জয়েন করিনি। কিন্তু আনিসের সঙ্গেই ছিলাম। একটি মুহূর্তের জন্য আমি যেটা ঠিক মনে করেছি, সেটা করা থেকে আনিসকে কেউ আটকাতে পারেনি। আমি আশা করি আতিক ভাইয়ের পরিবার তাকে মনে করিয়ে দেবেন যে ব্যবসায়ী হয়ে থাকা এক জিনিস এবং জনগণের সেবক হওয়া আরেক জিনিস।

 

/এসও/এমআর/

লাইভ

টপ