ইতালিতে করোনায় মৃত বাংলাদেশির দাফন সম্পন্ন

Send
ইসমাইল হোসেন স্বপন, ইতালি
প্রকাশিত : ০৩:৫৮, মার্চ ২৫, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ০৪:০০, মার্চ ২৫, ২০২০

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ইতালিতে মারা যাওয়া প্রথম বাংলাদেশি ব্যক্তির দাফন সম্পন্ন হয়েছে। স্থানীয় সময় মঙ্গলবার সকালে ইসলামি শরিয়ত মোতাবেক জানাজা শেষে তাকেমিলানের ব্রুজানো কবরস্থানে দাফন করা হয়।



২০ মার্চ ইতালির মিলান শহরে বসবাসরত নোয়াখালী জেলার কোম্পানিগঞ্জ থানার গোলাম মাওলা ( ৫o) দীর্ঘদিন ধরে সর্দি-কাশিও শ্বাসকষ্টে ভূগছিলেন। মৃত্যুর কয়েক ঘণ্টা আগে তার দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়। ওই দিন আনুমানিক রাত ৮ টার দিকে মিলানের নিগোয়ারদা হাসপাতালে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, ১ ছেলে ও ১ মেয়ে রেখে গেছেন।
মঙ্গলবার সকাল ১১টায় তার জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। স্থানীয় দারুল হিকমাহ একাডেমির প্রধান খতিব এবং মিলান কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের ইমাম মাওলানা জোনায়েদ সোবহান জানাজা নামাজ পড়ান। জানাজায় অংশ নেন ইসলামি ফোরাম ইতালি নর্থ সভাপতি আবু নাসের বাহার, ইসলামি ফোরাম মিলান সভাপতি ইমরান হোসাইন, দারুল হিকমাহ একাডেমির ভাইস প্রিন্সিপাল জিয়াউল করিম এবং মিলান কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের ইমাম আনিসুর রহমান। সরকারী বিধিনিষেধ থাকার কারণে জানাজায় অংশগ্রহণ ছিল কম।


গোলাম মাওয়ার পরিবারের প্রতি সমবেদনা প্রকাশ করেছেন ইতালির বাংলাদেশি কমিউনিটির বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ। শোক প্রকাশ করেছেন মিলানস্থ বৃহত্তর নোয়াখালী সমিতির সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট ইঞ্জিনিয়ার ফিরোজ আলমসহ সংগঠনের নেতারা। এছাড়া মিলান বাঙলা প্রেস ক্লাবসহ অন্যান্য সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।
ইতালিতে করোনা ভাইরাস অথবা বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হয়ে মৃতের পরিবারে কেউ যদি তাৎক্ষণিক যোগাযোগ করেন তাহলে মরদেহ পরিবারের নিকট হস্তান্তর করা হয়। নিজ ধর্মীয় রীতি অনুযায়ী দাফনের সুযোগ দেওয়া হয়। পরিবার বা স্বজনরা কেউ হাসপাতাল বা দায়িত্বরত প্রশাসনিক কর্মকর্তাদের সঙ্গে যোগাযোগ না করলে সরকার নির্দিষ্ট গণকবরে সমাহিত করে।

/এএ/

লাইভ

টপ