টোলারবাগে আটকে পড়া এক হাজার পরিবারকে খাবার দিলো ডিএনসিসি

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৫:১৬, মার্চ ২৯, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৭:১০, মার্চ ২৯, ২০২০

শুকনো খাবার বিতরণ করেন আতিকুল ইসলামকরোনাভাইরাসে রাজধানীর টোলারবাগে এক জনের মৃত্যুর ঘটনায় গত ২১ মার্চ থেকে ওই এলাকা লকডাউন করা হয়। সেই থেকে ওই এলাকার প্রায় এক হাজার পরিবার ঘরবন্দি। আটকে পড়া বাসিন্দারা খাদ্য সংকটে ভুগছেন। তাদের পাশে দাঁড়িয়েছে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিএনসিসি)। রবিবার (২৯ মার্চ) এসব পরিবারের মাঝে শুকনো খাবার বিতরণ করা হয় ডিএনসিসির পক্ষ থেকে।

প্রত্যেক পরিবারকে পাঁচ কেজি করে চাল, এক কেজি ডাল, একটি সাবান, এক লিটার তেল, এক কেজি আলু ও তিনটি করে মাস্ক দেওয়া হয়। এ সময় মেয়র আতিকুল ইসলাম বলেন, ‘আমি আশা করি বিত্তবান মানুষ যারা আছেন, তারাও এগিয়ে আসবেন। এই বিপর্যয়ের সময়ে মানুষের পাশে দাঁড়াতে হবে।’
তিনি বলেন, ‘ডিএনসিসির ভারপ্রাপ্ত মেয়র জামাল মোস্তফা আছেন, তাকে পরামর্শ দিয়ে সহযোগিতা করছি। আমি সাবেক মেয়র এবং নবনির্বাচিত মেয়র হিসেবে কাউন্সিলরদের নিজ নিজ ওয়ার্ডে তালিকা করতে বলেছি। প্রত্যেক কাউন্সিলর ৫০০ জনের তালিকা করে দেবেন, আর সংরক্ষিত কাউন্সিলররা দেবেন ১০০ জনের তালিকা। এই তালিকা ধরে নিম্ন আয়ের খেটে খাওয়া অসহায় মানুষের মাঝে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করা হবে।’

আতিকুল ইসলাম বলেন, ‘ডিএনসিসির মতো যদি অন্যরাও এগিয়ে আসেন, তাহলে একজন মানুষও না খেয়ে মারা যাবে না। এই শহরে অনেক মানুষ রয়েছেন যারা কর্মহীন হয়ে ঘরবন্দি হয়েছেন। তাদের ঘরে খাবার নেই, বের হতে পারছেন না। তাদের পাশে সবাইকে এগিয়ে আসার জন্য আহ্বান জানাচ্ছি।’

খাদ্যসামগ্রী বিতরণের সময় উপস্থিত ছিলেন ডিএনসিসি’র ভারপ্রাপ্ত মেয়র জামাল মোস্তফা, প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আব্দুল হাই, স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও আওয়ামী লীগের নেতারা।

/এসএস/আইএ/এপিএইচ/এমওএফ/

লাইভ

টপ