বৃষ্টিতে করোনার প্রকোপ বাড়বে নাকি কমবে?

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ০১:২৬, এপ্রিল ০৩, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ২৩:১২, এপ্রিল ০৩, ২০২০

বিকালে রাজধানীতে হঠাৎ বৃষ্টি (ছবি: ফোকাস বাংলা)

বিকাল ও রাতে হালকা বৃষ্টি হওয়ার পরই জনমনে প্রশ্ন উঠেছে বৃষ্টির সঙ্গে করোনাভাইরাসের কোনও সম্পর্ক রয়েছে কিনা? অথবা বৃষ্টি হলে ভালো হবে নাকি মন্দ। এর উত্তর কেউ সরাসরি দিতে পারেননি। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, এটি নতুন ভাইরাস। অনেক তথ্যই এখনও অজানা। তবু যেহেতু আর্দ্রতা বেশি থাকলে ভাইরাস কম ছড়ায়, তাই বৃষ্টিতে হয়তো সংক্রমণের হার একটু কম হতে পারে।
জানতে চাইলে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিসিন অনুষদের সাবেক ডিন অধ্যাপক ডা. এবিএম আব্দুল্লাহ বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, সবই তো এখন অজানা। তবে বৃষ্টি যদি মুষলধারে হতো তাতে করোনা বোধহয় কমতেও পারে—এটা আমার ধারণা। তিনি বলেন, এই ভাইরাস ভারী, কেউ কাশি-হাঁচি দিলে সেটা ঘরের মেঝে, রাস্তায় পরে। ভারী বৃষ্টি হলে সেগুলো ভেসে যেতো। মনে হয় একটু লাভ হলেও হতে পারে।

শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিক্যাল কলেজের ভাইরোলজি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ডা. জাহিদুর রহমান বলেন, বৃষ্টির সঙ্গে করোনা নয়, ডেঙ্গুর সরাসরি সম্পর্ক রয়েছে। তবে নভেল করোনাভাইরাস বা কোভিড-১৯-এর মতো ভাইরাসগুলো বাতাসে আর্দ্রতা বেশি থাকলে একটু কম ছড়ায়, আর বৃষ্টি হলে যেহেতু আর্দ্রতা বাড়ে তাই সংক্রমণের পরিমাণ একটু কম হতে পারে। কিন্তু ছড়ায় না—এমন কোনও কথা কোথাও বলা হয়নি। আর্দ্রতা যত বেশি হবে ছড়ানোর হার তত কম থাকবে—যদিও একদম সরাসরি এমন কোনও সম্পর্ক বের করা যায়নি।
তিনি বলেন, সবচেয়ে ভয়ের বিষয় হচ্ছে, করোনা এবং ডেঙ্গু দুটোরই কমন উপসর্গ। একদিকে করোনার জন্য মানুষকে ঘরে থাকার কথা বলা হচ্ছে, অন্যদিকে ঘরে থাকা যাচ্ছে না মশার যন্ত্রণায়। এডিস মশা যাতে না কামড়ায় সেজন্য এখন থেকেই সরকারি পর্যায়ে মশক নিধন কার্যক্রম জোরদার করতে হবে। একইসঙ্গে ব্যক্তি পর্যায়ে নিজের বাসাবাড়ি পরিষ্কার রাখতে হবে।

/জেএ/এমআর/এমওএফ/

লাইভ

টপ