প্রধানমন্ত্রীর পেঁয়াজ না খাওয়ার পরামর্শ কাটা ঘায়ে নুনের ছিটার মতো: সেলিম

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ২১:৩৩, নভেম্বর ১৮, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ২২:৪৮, নভেম্বর ১৮, ২০১৯





প্রেস ক্লাবে বক্তব্য রাখেন মুজাহিদুল ইসলাম সেলিমপেঁয়াজের দাম নিয়ন্ত্রণের ব্যর্থতা আওয়ামী দুঃশাসনের গণবিরোধী চরিত্রের আরেকটি নিদর্শন বলে মন্তব্য করেছেন সিপিবি সভাপতি মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম। তিনি বলেছেন, সংকট দ্রুত নিরসনের বদলে সরকার তামাশা করতে ছাড়েনি। ব্যর্থতার দায় স্বীকার করে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রী পদত্যাগও করেনি। অন্যদিকে, প্রধানমন্ত্রী পেঁয়াজ না খাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন, যা ছিল জনগণের কাটা ঘায়ে নুনের ছিটার মতো।

সোমবার (১৮ নভেম্বর) বিকালে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি) আয়োজিত এক বিক্ষোভ সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন। পেঁয়াজের দাম বৃদ্ধি ও সরকারের উদাসীনতার প্রতিবাদে এই বিক্ষোভ সমাবেশের আয়োজন করা হয়।
সেলিম বলেন, শুধু পেঁয়াজ নয়, ধানসহ প্রতিটি কৃষিপণ্যের ক্ষেত্রে একদিকে কৃষকদের বঞ্চিত করা হচ্ছে, অন্যদিকে জনগণের ওপর বর্ধিত দামের বোঝা চাপিয়ে দেওয়া হয়েছে। মধ্যস্বত্বভোগীদের সহায়তায় কোটিপতিদের সিন্ডিকেট জনগণের পকেট থেকে ইতোমধ্যে কয়েক হাজার কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে।
তিনি আরও বলেন, বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন এবারের পেঁয়াজ সংকট থেকে এই অশুভ শক্তি ৩ হাজার কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে।
সেলিম বলেন, মুক্তবাজার লুটেরাদের জন্য অভয়ারণ্য হলেও সাধারণ মানুষের জন্য দুর্বিষহ যন্ত্রণা। এ ধরনের সংকট থেকে পরিত্রাণ পেতে হলে দেশের প্রতিটি ইউনিয়নে অস্থায়ী গুদাম স্থাপন করে খাদ্যশস্য সংরক্ষণ করা অপরিহার্য। এজন্য ৫ থেকে ৭ হাজার কোটি টাকা বরাদ্দের প্রয়োজন হতে পারে। সরকার লক্ষ কোটি টাকা অপচয় করছে, বিদেশে পাচারের সুযোগ করে দিচ্ছে। কিন্তু, বাজেটের ১ থেকে ২ শতাংশ বরাদ্দ দিয়ে এ ধরনের গুদাম তৈরির পদক্ষেপ নিচ্ছে না।

সমাবেশে সিপিবি'র নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

/এইচএন/আইএ/টিএন/এমওএফ/

লাইভ

টপ