চর্চার অভাবে ভাষার অপমৃত্যু ঘটে: ইসলামী আন্দোলন

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৯:৫৮, ফেব্রুয়ারি ২১, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৯:৫৯, ফেব্রুয়ারি ২১, ২০২০

ইসলামী-আন্দোলনইসলামে মাতৃভাষার গুরুত্ব অপরিসীম বলে মন্তব্য করেছেন ইসলামী আন্দোলনের প্রেসিডিয়াম সদস্য সৈয়দ মোসাদ্দেক বিল্লাহ আল-মাদানী। তিনি  বলেন, ‘মাতৃভাষা মানব জাতির অমূল্য সম্পদ, যা মানব ইতিহাসের বৈচিত্র্যময় জীবনধারাকে প্রবহমান রাখে যুগ থেকে যুগান্তরে। উপযুক্ত চর্চার অভাবে ভাষার অপমৃত্যু ঘটে।’ শুক্রবার (২১ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে দলটির ঢাকা মহানগরীর উদ্যোগে আয়োজিত ‘ইসলামে মাতৃভাষার গুরুত্ব’ শীর্ষক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

সৈয়দ মোসাদ্দেক বিল্লাহ আল-মাদানী বলেন, ‘রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের বিনিময়ে অর্জিত সেই অমর একুশে ফেব্রুয়ারি আজ। আমাদের প্রাণপ্রিয় মাতৃভাষা বাংলাকে রাষ্ট্রীয় ভাষার মর্যাদায়  প্রতিষ্ঠিত করার জন্য স্বৈরাচারী সরকারের পুলিশের গুলিতে শহীদ হন সালাম, রফিক, জব্বার, বরকত, অলিউল্লাহ ও শফিক। আজও  দেশ, জাতি, দেশের মানুষের ভাত ও ভোটের অধিকার প্রতিষ্ঠিত হয়নি। বিদেশি ভাষার আগ্রাসনে বাংলা ভাষার মর্যাদা রক্ষা হয়নি।’

মোসাদ্দেক বিল্লাহ বলেন, ‘একুশ জাতির জন্য একদিকে শোক অন্যদিকে গৌরবের দিন। রক্তের বিনিময়ে প্রতিষ্ঠিত মাতৃভাষা দিবস। সব বাধা-বিপত্তিকে অতিক্রম করে বাংলাকে এগিয়ে নিতে হবে। বাংলা ভাষার মর্যাদা প্রতিষ্ঠার জন্য এদিনে সালাম, বরকত, রফিকসহ অনেকেই নিজের জীবন বিলিয়ে দিয়েছেন।’

সভাপতির বক্তব্যে দলটির ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সভাপতি মাওলানা ইমতিয়াজ আলম বলেন, ‘উন্নয়নশীল দেশেগুলো যেমন জাপান, চীনের দিকে তাকালে দেখা যায়, তাদের অফিসিয়াল ভাষা জাপানিজ, চায়নিজ। অথচ, তারা তাদের মাতৃভাষার জন্য রক্ত দেয়নি। পক্ষান্তরে বাংলা ভাষার জন্য রক্ত দিলেও বাংলাদেশে বাংলাকে রাষ্ট্রের সর্বস্তরে অফিসিয়াল ভাষা হিসেবে স্বীকৃত দেওয়া হচ্ছে না। যা চরম হতাশা ও নিন্দার বিষয়।’  

অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন দলের কেন্দ্রীয় প্রচার সম্পাদক আহমদ আবদুল কাইয়ুম, মুক্তিযোদ্ধা আবুল কাশেম, দক্ষিণ সেক্রেটারী মাওলানা এবিএম জাকারিয়া, আব্দুল আউয়াল, ডা. শহিদুল ইসলাম, মুফতি ফরিদুল ইসলাম, মুহাম্মাদ হুমায়ুন কবির প্রমুখ।

/সিএ/এমএনএইচ/

সম্পর্কিত

লাইভ

টপ