এবার অচেনা অস্ট্রেলিয়ার সামনে সালমারা

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ২০:২৭, ফেব্রুয়ারি ২৬, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ২০:৫০, ফেব্রুয়ারি ২৬, ২০২০

বাংলাদেশের মেয়েদের অনুশীলনটি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে অঘটনের স্বপ্ন নিয়ে বৃহস্পতিবার অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে মাঠে নামবে বাংলাদেশ নারী দল। বর্তমান চ্যাম্পিয়নদের হারিয়ে টুর্নামেন্ট শুরু করেছে ভারত। আর এই ভারতের কাছেই বাংলাদেশ তাদের প্রথম ম্যাচে পরাজিত হয়েছে। একে তো হারের ক্ষত নিয়ে মাঠে নামবে অস্ট্রেলিয়া , অন্যদিকে তারা অচেনা পরাশক্তি। সব মিলিয়ে সালমাদের জন্য ম্যাচটি কঠিনই হতে যাচ্ছে। ক্যানবেরার মানুকা ওভাল মাঠে দিবা-রাত্রির ম্যাচটি শুরু বাংলাদেশ সময় দুপুর ২টায়।

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে আগে কখনও খেলেনি বাংলাদেশ। প্রতিপক্ষের ভিডিও ফুটেজ দেখেই যা একটু ধারনা নেওয়ার চেষ্টা করছেন সালমা-রুমানারা। ভারত ও শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দুই ম্যাচেই অস্ট্রেলিয়াকে ভুগিয়েছে স্পিন। এই স্পিন শক্তিকে  কাজে লাগিয়েই অস্ট্রেলিয়াকে চমকে দিতে চায় বাংলাদেশ। বুধবার ম্যাচ পূর্ববর্তী সংবাদ সম্মেলনে এমনটাই জানিয়েছেন পেসার জাহানারা আলম।

প্রথম ম্যাচে ভারতের কাছে হারলেও বাংলাদেশের লড়াকু মনোভাব প্রশংসা কুড়িয়েছে।   এই লড়াইয়ের মন্ত্রটা থাকছে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ম্যাচের আগেও। পেসার জাহানারা আলম বলেছেন, ‘প্রথম ম্যাচে কী হয়েছে না হয়েছে আমরা সেটা মাথায় রাখতে চাই না। এই ম্যাচে আমরা জয়ের জন্যই মাঠে নামবো। আশা করি দলের সবার ঐক্যবদ্ধ পারফরম্যান্সে আমরা খুব ভালোভাবে ঘুরে দাঁড়াতে পারবো।’

অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে কখনও খেলার সুযোগ হয়নি বাংলাদেশের। মেগ ল্যানিং-এলিস পেরিদের বিপক্ষে না খেলার অভিজ্ঞতা নাথায় ভিডিও বিশ্লেষণের ওপরই ভরসা বলে জানান জাহানারা, ‘অস্ট্রেলিয়াও বড় দল। ওরা বর্তমান চ্যাম্পিয়ন। ওদের সঙ্গে প্রস্তুতি নিতে আমাদের ভিডিও বিশ্লেষণ ছাড়া অন্য কোনও উপায় নেই। আমরা যদি পরিকল্পনা মাঠে কাজে লাগাতে পারি ফল আমাদের পক্ষে আসতেও পারে।’

নারী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ইতিহাসে একচ্ছত্র আধিপত্য অস্ট্রেলিয়ার নারী ক্রিকেটারদের। ছয় আসরের ৪ বারের চ্যাম্পিয়ন তারা।  তবে এবার ঘরের মাটিতে বেশ বেগ পেতে হচ্ছে তাদের। ভারতের কাছে হেরে টুর্নামেন্টের শুরুতেই হোঁচট খেয়েছে। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে জয়টাও সহজে আসেনি। বিশেষ করে স্পিনারদের খেলতে হিমশিম খেতে হচ্ছে ব্যাটসম্যানদের। বাংলাদেশে দল এই জায়গাতেই আঘাত হানতে চায়। সালমা-নাহিদা-রুমানা-ফাহিমা-কুবরাকে নিয়ে স্পিন আক্রমণ সাজাতে পারলে অঘটন ঘটানো সম্ভব বলে মনে করেন বাংলাদেশ নারী দলের সেরা পেসার,  ‘অস্ট্রেলিয়া দলে অনেক বড় বড় নাম আছে। যারা পেস ও স্পিন সব ভালো খেলে। তবে আমাদেরও ভালো স্পিনার ও পেসার আছে। ওদের নিয়ে না ভেবে নিজেদের পরিকল্পনা অনুযায়ী কাজ করতে চাই।’

/আরআই/পিকে/

লাইভ

টপ
X