যুব দলের কোচিং স্টাফে রদবদল, নতুন দায়িত্বে অপি-তালহা

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৫:২৯, আগস্ট ১৩, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৫:৩৭, আগস্ট ১৩, ২০২০

যুব দলের কোচিং স্টাফে মেহরাব হোসেন অপি ও তালহা জুবায়েরঅনূর্ধ্ব-১৯ দলের হাত ধরে প্রথমবারের মতো বৈশ্বিক কোনও টুর্নামেন্টের শিরোপা জিতেছে বাংলাদেশ। দুই বছরের কঠোর পরিশ্রমের ফল পেয়েছে যুবারা। আকবর আলীদের চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পেছনে কোচিং স্টাফদের ছিল অগ্রণী ভূমিকা। তাদের সাফল্য ধরে রাখতে নতুন যুব দল গঠন করতে যাচ্ছে বিসিবি। আগামী সপ্তাহ থেকে শুরু হচ্ছে ক্যাম্প। সেই প্রক্রিয়া শুরুর আগে কোচিং স্টাফে এসেছে বেশ কিছু পরিবর্তন।

বিশ্বকাপ জয়ী দুই কোচকে সরিয়ে নতুন দুজনকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। আগে ব্যাটিং কোচ না থাকলেও এবার এই পদটি যুক্ত করা হয়েছে। গত বিশ্বকাপে ম্যানেজারের দায়িত্ব সামলানো মেহরাব হোসেন অপি পেয়েছেন ব্যাটিং কোচের দায়িত্ব। বোলিং কোচেও এসেছে পরিবর্তন। আকবর-শামীমদের বোলিং কোচ ছিলেন মাহবুব আলী জাকি, তার জায়গায় দায়িত্ব দেওয়া হচ্ছে সাবেক পেসার তালহা জুবায়েরকে। ফিল্ডিং কোচের দায়িত্বে ছিলেন সাবেক ক্রিকেটার ফয়সাল হোসেন ডিকেন্স। এখন তার জায়গায় দায়িত্ব পালন করবেন মোহাম্মদ সেলিম। 

এসব পদে রদবদল হলেও আকবরদের প্রধান কোচের দায়িত্ব পালন করা নাভিদ নওয়াজেই আস্থা বিসিবির। বিশ্বকাপে চলকালে সবচেয়ে আলোচিত ব্যক্তি ছিলেন ট্রেইনার রিচার্ড স্টনিয়ার। আকবরদের ফিটনেস ঠিক রাখতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছেন তিনি। শুধু তা-ই নয়, মাঠের বাইরে থেকে ক্রিকেটারদের ইতিবাচক রাখতে পালন করেছেন কার্যকরী ভূমিকা। তাকেও রেখে দিয়েছে দেশের ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থাটি।

কোচিং স্টাফ পরিবর্তনের ব্যাপারে বিসিবির গেম ডেভেলপমন্টের ম্যানেজার আবু ইমাম মোহাম্মদ কায়সার বাংলা ট্রিবিউনকে বলেছেন, ‘ব্যর্থতা কিংবা সাফল্যের বিচার করে কোচিং স্টাফে পরিবর্তন আনা হয়নি। তরুণ কোচদের সুযোগ করে দিতেই আমাদের এমন উদ্যোগ। পুরোনো কোচরা গত ব্যাচকে নিয়ে দুর্দান্ত কাজ করেছে।’

পুরোনোরা বাদ পড়লেও তাদের অন্যত্র সুযোগ করে দিতে চায় বিসিবি। কায়সারের ভাষ্য, ‘জাকি ভাই-ডিকেন্স ভাইরা খুব ভালো কাজ করছেন। ওনাদের অন্য কোথাও আমরা কাজে লাগাতে পারবো। এখানে কোনোভাবেই মনে করার কারণ নেই তাদের হেয় করা হয়েছে। আমরা আসলে নতুন কোচদের প্রস্তুত করতে এই উদ্যোগ নিয়েছি। তারা সামর্থ্যবান বলেই সুযোগ পেয়েছে।’

বাংলাদেশের প্রথম ক্রিকেটার হিসেবে ওয়ানডেতে সেঞ্চুরি করা অপি পেয়েছেন ব্যাটিং কোচের দায়িত্ব। কেন অপিকে বেছে নেওয়া? কায়সারের ব্যাখ্যা, ‘আগামী সপ্তাহ থেকে ক্যাম্প শুরু হওয়ার পর বিদেশি কোচিং স্টাফদের পাওয়ার বিষয়টি এখনও নিশ্চিত নয়। সব মিলিয়ে তাই আমরা বড় একটি কোচিং স্টাফ সেটআপ করার চেষ্টা করেছি। এখানে অপিকে আমাদের সামর্থ্যবান মনে হয়েছে বলেই ব্যাটিং বিভাগটি দেখভাল করতে তাকে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।’

২০২২ যুব বিশ্বকাপ সামনে রেখে ক্যাম্প শুরু করছে বিসিবি। ক্যাম্পের জন্য ৪৫ সদস্যের প্রাথমিক দল ঘোষণা করা হয়েছে। এই দলটি নিয়ে যাত্রা শুরু হবে নতুন কোচিং স্টাফদের।

বিকেএসপিতে চার সপ্তাহের ক্যাম্প শুরু ২৩ আগস্ট। তার আগে ১৫ থেকে ১৯ আগস্ট- এই পাঁচ দিন হোম অব ক্রিকেটে তরুণ ক্রিকেটারদের স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য ডাকা হবে। করোনা পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের বিকেএসপির ক্যাম্পে নেওয়ার পরিকল্পনা ২০ আগস্ট। দুই দিন পর শুরু হবে কন্ডিশনিং ক্যাম্প। ফিটনেস ও স্কিল ট্রেনিং হবে চার সপ্তাহ। ২৩ আগস্ট থেকে শুরু করে যা চলবে ১৮ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত।

/আরআই/কেআর/

লাইভ

টপ