দেশে খেলার অনুমতি মিললেও কিউইদের অস্ট্রেলিয়া সফর স্থগিত

Send
স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৬:৫৬, সেপ্টেম্বর ২৫, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৭:০২, সেপ্টেম্বর ২৫, ২০২০

আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফিরছে নিউজিল্যান্ডে। দেশটির সরকার সিরিজ আয়োজনের অনুমতি দিয়েছে। এই সুখবরের মধ্যেই আবার শুনতে হয়েছে দুঃসংবাদ। সামনের বছরের শুরুতে সীমিত ওভারের সিরিজ খেলতে তাদের অস্ট্রেলিয়া সফরে যাওয়ার কথা থাকলেও সিরিজটি স্থগিত হয়ে গেছে।

কোয়ারেন্টিন ও আইসোলেশনের ‍পরিকল্পনা যাচাই-বাছাইয়ের পর নিউজিল্যান্ড সরকার সিরিজ আয়োজনের সবুজ সংকেত দিয়েছে। গ্রীষ্মকালীন মৌসুমে কিউইরা ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও পাকিস্তানের বিপক্ষে সিরিজ আয়োজনে আগ্রহী। একই সঙ্গে নিউজিল্যান্ড ক্রিকেট স্থগিত হয়ে যাওয়া বাংলাদেশের বিপক্ষে সিরিজটিও আয়োজন করার ব্যাপারে আশাবাদী। এই সময়কালে আরও থাকছে অস্ট্রেলিয়া পুরুষ ও মহিলা দল এবং ইংল্যান্ড মহিলা দলের সফরও।

নিউজিল্যান্ড সফরে পাকিস্তান ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ দুই টেস্ট ও তিন টি-টোয়েন্টি খেলবে। একই সঙ্গে নিউজিল্যান্ড ক্রিকেট চেষ্টা করবে বাংলাদেশের বিপক্ষে সীমিত ওভারের সিরিজটি আয়োজন করার। সরকারের অনুমতি পাওয়ার পর নিউজিল্যান্ড ক্রিকেটের প্রধান নির্বাহী ডেভিড হোয়াইট বলেছেন, ‘এটা আমাদের জন্য বিশাল পাওয়া, বিশেষ করে আর্থিক দিক থেকে। নিউজিল্যান্ডের সব খেলার তহবিল আসে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকেই। তাই আমাদের জন্য আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খুব গুরুত্বপূর্ণ।’

দেশের মাটিতে সিরিজ আয়োজনের অনুমতি মিললেও কিউইদের যাওয়া হচ্ছে অস্ট্রেলিয়ায়। জানুয়ারিতে তাসমান সাগরের ওপারে গিয়ে তিন ওয়ানডে ও একটি টি-টোয়েন্টি খেলার কথা ছিল কেন উইলিয়ামসনদের। কিন্তু কোয়ারেন্টিন ঝামেলায় সিরিজটি স্থগিত করেছে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া। যদিও দুই দেশের বোর্ড ভবিষ্যতে সিরিজটি আয়োজনের ব্যাপারে আশাবাদী।

অস্ট্রেলিয়ার রাজ্য সরকারের কোভিড-১৯ প্রটোকল অনুযায়ী, দুই দেশের খেলোয়াড়দের ১৪ দিনের কোয়ারেন্টিন বাধ্যতামূলক। জানুয়ারিতে এতটা সময় তাদের কোয়ারেন্টিনে থাকা সম্ভব নয়, সে কারণেই সিরিজটি স্থগিত করতে বাধ্য হয়েছে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া।

/কেআর/

লাইভ

টপ