সন্দেহ থেকে ডেঙ্গু পরীক্ষায় ১৭ দশমিক ৭ শতাংশের ‘পজিটিভ’

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ২৩:২৫, সেপ্টেম্বর ১১, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ২৩:২৭, সেপ্টেম্বর ১১, ২০১৯





আক্রান্ত হওয়ার সন্দেহ থেকে যারা রক্ত পরীক্ষা করিয়েছেন তাদের মধ্যে ১৭ দশমিক ৭ শতাংশের ডেঙ্গু (এনএস-ওয়ান পজেটিভ) পাওয়া গেছে।
বুধবার (১১ সেপ্টেম্বর) রাজধানীর রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউটে (আইইডিসিআর) আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে এ তথ্য জানানো হয়।
‘নলেজ শেয়ারিং অন ডেঙ্গু সার্ভিলেন্স ইন বাংলাদেশ’ শীর্ষক এ অনুষ্ঠানে আইইডিসিআর-এর পরিচালক অধ্যাপক ডা. মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা বলেন, ডেঙ্গু সার্ভিলেন্সের অংশ হিসেবে গত ১ মে থেকে ১৮ আগস্ট পর্যন্ত রাজধানীর কয়েকটি হাসপাতাল থেকে পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে এই সংখ্যা পাওয়া গেছে।
হাসপাতালগুলো থেকে পাওয়া তথ্যে দেখা গেছে, ২৭ হাজার ৭৪২ জন সন্দেহ থেকে ডেঙ্গু পরীক্ষা করিয়েছিলেন। তাদের ৪ হাজার ৯২০ জনের ডেঙ্গু পাওয়া গেছে, যা ১৭ দশমিক ৭ শতাংশ।
অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ যেকোনও রোগের প্রাদুর্ভাবে গণমাধ্যমকর্মীদের প্রতিবেদন তৈরি করার ক্ষেত্রে কৌশলী হওয়ার আহ্বান জানান। তিনি বলেন, ‘মানুষের মধ্যে প্যানিক ছড়ায় এমন প্রতিবেদন করার সময়ে কৌশল অবলম্বন করতে হবে। আবার কখনও কখনও মানুষের মাঝে সচেতনতা সৃষ্টি করতে ইচ্ছে করেই প্যানিক তৈরি করতে হবে।’
তিনি বলেন, এ বছরে ১২৮টি দেশে ডেঙ্গুর প্রকোপ দেখা দিয়েছে। কিন্তু বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাসহ (ডব্লিউএইচও) কেউ অনুমান করতে পারেনি তা এভাবে ছড়িয়ে পড়বে। এর কারণ হিসেবে তিনি জলবায়ু পরিবর্তনসহ নানা কারণের কথা বলেন।
ডেঙ্গুতে ফিলিপাইনে ৮৮২ জনের মৃত্যুর হয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, বাংলাদেশে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে দশমিক ২ শতাংশ মানুষের মৃত্যু হয়েছে। এরপরও একটি মৃত্যুও কাম্য নয়। মৃত্যু ঠেকাতে সচেষ্ট থাকা হবে বলে মন্তব্য করেন তিনি।
ডা. আবুল কালাম বলেন, আগামী বছরও মশাবাহিত ডেঙ্গু রোগের প্রকোপ থাকবে। তবে তা এ বছরের মতো এত বেশি হবে না বলে মন্তব্য করেন তিনি।

/জেএ/এইচআই/

লাইভ

টপ