সরকারের অপপ্রচার ঠেকাতে বিএনপির অহিংস আন্দোলন

Send
আদিত্য রিমন
প্রকাশিত : ১৮:৪৯, ফেব্রুয়ারি ১৩, ২০১৮ | সর্বশেষ আপডেট : ১৮:৫৫, ফেব্রুয়ারি ১৩, ২০১৮

 



বিএনপিজিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় দণ্ডিত বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল, মানবন্ধন, অবস্থান ও অনশনের মতো শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি পালন করছে দলটি। নিকট অতীতে বিভিন্ন ইস্যুতে হরতাল, অবরোধের মতো কর্মসূচি পালন করলেও এখন সেই পথে হাঁটছে না তারা। কারণ, এ ধরনের কর্মসূচিতে বিএনপির লাভের চেয়ে ক্ষতিই হয়েছে বেশি। বিভিন্ন সময় সরকারের অপপ্রচারের স্বীকারও হয়েছে তারা। দলটির শীর্ষস্থানীয় একাধিক নেতার সঙ্গে কথা বলে এসব জানা গেছে।

বিএনপি নেতারা বলেছেন, হরতাল, অবরোধ গণতান্ত্রিক আন্দোলন। কিন্তু এ ধরনের আন্দোলন করে বিএনপির লাভের চেয়ে ক্ষতি হয়েছে বেশি। বিএনপি এ ধরনের কর্মসূচি পালন করে আওয়ামী লীগ সরকারের অনেক অপপ্রচারের স্বীকার হয়েছে। বিএনপিকে সন্ত্রাসী সংগঠন হিসেবে পরিচিত করার চেষ্টায় লিপ্ত আছে সরকার। তাই আগামী নির্বাচনের আগে এ ধরনের কর্মসূচি দিয়ে কোনও অপবাদের অংশীদার হতে তারা চায় না। হরতাল-অবরোধের মতো কর্মসূচি পালন করলে সরকারের লোকেরা জ্বালাও-পোড়াও করে বিএনপি’র ওপর দোষ চাপায় বলে দাবি তাদের। তাই এই মুহূর্তে এমন কোনও কর্মসূচি ঘোষণা করার চিন্তা বিএনপির নেই।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘দলীয় সিদ্ধান্তে আমরা শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি পালন করে যাবো। আগামী নির্বাচনের এখনও অনেক সময় আছে কর্মসূচি দেওয়ার। তবে আমরা শান্তিপূর্ণ ও নিয়মতান্ত্রিক চালিয়ে যাবো।’

হরতাল-অবরোধ গণতান্ত্রিক আন্দোলন উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘তবে সরকার এ ধরনের আন্দোলনকে ব্যবহার করে বিএনপির নামে অপপ্রচার চালিয়ে থাকে। যেমন আগের হরতাল-অবরোধে সরকার জ্বালাও-পোড়াও করে দোষ দিয়েছে বিএনপিকে। এ জন্য এবার আমরা এ ধরনের কর্মসূচিতে যাচ্ছি না। কারণ, বিএনপি এ ধরনের কর্মসূচিতে গেলে আবারও সরকার নিজেরা জ্বালাও-পোড়াও করে বিএনপির নামে বদনাম ও অপপ্রচার চালাবে।’

বিএনপির নেতারা জানান, খালেদা জিয়া কারাগারে যাওয়ার আগে শান্তিপূর্ণ আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার দেওয়ার নির্দেশনা দিয়ে গেছেন। এর বাইরে বর্তমান ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানও শান্তিপূর্ণ আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন। তাই এই মুহূর্তে হরতাল ও অবরোধের মতো কোনও কর্মসূচি ঘোষণা করবে না দলটি।

বিএনপির প্রচার সম্পাদক শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানী বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘বিএনপি শান্তিপূর্ণ আন্দোলন করছে। এরপরও নেতাকর্মীদের উপর হামলা-মামলা থেমে নেই। গ্রেফতারও বন্ধ নেই। তাও আমরা শান্তিপূর্ণ আন্দোলন চালিয়ে যাবো।’

তিনি বলেন, ‘দেশনেত্রী খালেদা জিয়া নির্দেশ ও ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের পরামর্শে আমরা শান্তিপূর্ণ আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছি।’ বিএনপি কখনও জ্বালাও-পোড়াও রাজনীতিতে বিশ্বাস করে না বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

এর আগে মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) সকালে এক অবস্থান কর্মসূচিতে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, ‘নিয়মতান্ত্রিক শান্তিপূর্ণ জনতার গণআন্দোলনের মাধ্যমে খালেদা জিয়াকে জেল থেকে মুক্ত করে নিয়ে আসা হবে।’

 

এএইচআর/এইচআই

লাইভ

টপ