সরকার কৃষকবান্ধব নয়: চরমোনাই পীর

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ০০:১৭, মে ২৭, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ০০:১৯, মে ২৭, ২০১৯

চরমোনাই পীর ও  ইসলামী আন্দোলনের আমির মুফতি সৈয়দ মুহাম্মাদ রেজাউল করীম বলেছেন, ‘মিল ফ্যাক্টরিতে শ্রমিক আর মাঠে কৃষকদের দুর্দিন চললেও সরকার তাদের ব্যাপারে কার্যকরী ব্যবস্থা নিচ্ছে না। এতে প্রমাণিত হয়, সরকার কৃষক-শ্রমিক বান্ধব নয়, লুটেরা বান্ধব।’

রবিবার (২৭ মে) বিকালে পুরানা পল্টনে ‘শ্রমিকের প্রকৃত মর্যাদা ও ন্যায্য অধিকার প্রতিষ্ঠায় মাহে রমজানের ভূমিকা’ শীর্ষক আলোচনা সভা ও ইফতার মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। 

এসময় চরমোনাই পীর বলেন, ‘দুর্নীতির কারণে কৃষিপ্রধান বাংলাদেশে অধিকারহারা কৃষক-শ্রমিক ও মেহনতি মানুষের আর্তনাদে আকাশ-বাতাশ প্রকম্পিত। পাটকল শ্রমিকরা বকেয়া বেতন ভাতার দাবিতে রমজান মাসে প্রচণ্ড তাপদাহের মধ্যে আন্দোলন করার পরেও তাদের পাওনা পরিশোধে সরকারের কার্যকরী কোনও পদক্ষেপ নেই। কৃষক অনেক পরিশ্রমে ফসল উৎপাদন করে ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছেন। কিন্ত সরকারের পক্ষ থেকে কৃষি মন্ত্রীর তামাশার বক্তব্যে দেশের কৃষকরা হতাশ।’

মুফতি সৈয়দ মুহাম্মাদ রেজাউল করীম বলেন, ‘ইসলামী শ্রমনীতির অনুপস্থিতির কারণে কৃষক-শ্রমিক মেহনতি মানুষ ন্যায্য অধিকার থেকে বঞ্চিত। দুর্নীতি, দুঃশাসন, সন্ত্রাস ও মাদকমুক্ত সুখি সমৃদ্ধ বাংলাদেশ নিশ্চিত করতে ইসলামী হুকুমত প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে ইসলামী শ্রমিক আন্দোলনকে তৃণমূল পর্যায়ে আরও মজবুত করতে হবে।’

দলটির মহাসচিব মাওলানা ইউনুছ আহমাদ বলেন, ‘দেশের প্রতিটি সেক্টরে দুর্নীতির কারণে দেশে আজ পারমানবিক বালিশের উৎপাদন শুরু হয়েছে। দুদককে এখনই আরও কার্যকর করে সর্বোচ্চ পর্যায় থেকে দুর্নীতি বন্ধ করা না গেলে দেশের ভবিষ্যত অন্ধকারে পতিত হবে।’ 

ইসলামী শ্রমিক আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সভাপতি মুহাম্মাদ আশরাফ আলী আকনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও  উপস্থিত ছিলেন সেক্রেটারী জেনারেল মাওলানা ছিদ্দিকুর রহমান, ইসলামী আন্দোলনের প্রেসিডিয়াম সদস্য সৈয়দ মোসাদ্দেক বিল্লাহ আল মাদানী, মহাসচিব মাওলানা ইউনুছ আহমাদ, যুগ্ম মহাসচিব মাহবুবুর রহমান, ঢাকা দক্ষিণের সভাপতি মাওলানা ইমতিয়াজ আলম প্রমুখ।

 

 

/সিএ/এএইচ/

লাইভ

টপ