X
বৃহস্পতিবার, ১৫ এপ্রিল ২০২১, ২ বৈশাখ ১৪২৮

সেকশনস

ভুয়া এনআইডি তৈরি করে ব্যাংক লোন নিতো তারা

আপডেট : ০৪ মার্চ ২০২১, ২০:১২

ভুয়া জাতীয় পরিচয়পত্র, ট্রেড লাইসেন্স ও টিন সার্টিফিকেট তৈরি করে ব্যাংক লোন নিয়ে আত্মসাৎকারী একটি চক্রের পাঁচ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের গোয়েন্দা মতিঝিল বিভাগ। গ্রেফতারকৃতরা হলো আল আমিন ওরফে জামিল শরীফ (৩৪), খ ম হাসান ইমাম ওরফে বিদ্যুত (৪৭), আব্দুল্লাহ আল শহীদ (৪১), রেজাউল ইসলাম (৩৮) ও শাহ জামান (৩৯)। গত মঙ্গলবার (২ মার্চ) রাজধানীর খিলগাঁও ও রামপুরা এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়। তাদের কাছ থেকে প্রতারণার কাজে ব্যবহৃত একটি প্রাইভেট কার উদ্ধার করা হয়েছে।

বুধবার (৩ মার্চ) সকালে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার এ কে এম হাফিজ আক্তার এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান। তিনি বলেন, এই চক্রের সঙ্গে জাতীয় পরিচয়পত্র বিভাগের নিম্নপদের কয়েকজন কর্মচারী জড়িত রয়েছে। আমরা বিষয়টি এনআইডি কর্তৃপক্ষকে জানিয়েছি। তারা ইতোমধ্যে ৪৪ জন কর্মচারীকে বহিষ্কার করেছে। বহিষ্কার হওয়ার আগে এদের কেউ কেউ এই প্রতারণা চক্রের সঙ্গে জড়িত হয়ে কাজ করেছে।

পুলিশ জানায়, একটি ফ্ল্যাটের নামে ৮৫ লাখ টাকা লোন নিয়ে আত্মসাতের অভিযোগে ঢাকা ব্যাংকের পক্ষে গত ৭ ডিসেম্বর ও ১২ ডিসেম্বর রাজধানীর খিলগাঁও এবং পল্টন থানায় পৃথক দুটি মামলা দায়ের করা হয়। মামলা দুটির তদন্তভার গোয়েন্দা পুলিশের কাছে স্থানান্তর করা হলে গোয়েন্দা পুলিশের খিলগাঁও জোনাল টিম প্রতারকদের ধরতে অনুসন্ধান শুরু করে। অনুসন্ধানে গোয়েন্দা কর্মকর্তারা জানতে পারেন, এই চক্রটি পেশাদার প্রতারক চক্র। তারা ভুয়া এনআইডি, ট্রেড লাইসেন্স ও টিন সার্টিফিকেট তৈরি করে বিভিন্ন ব্যাংক থেকে ঋণ নিয়ে আত্মসাৎ করে। এরই ধারাবাহিকতায় গোয়েন্দা পুলিশ গত ২৮ ফেব্রুয়ারি বিপ্লব নামে এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করে। জিজ্ঞাসাবাদে বিপ্লব জানায়, ভুয়া এনআইডি তৈরির সাথে নির্বাচন কমিশনের নিম্ন শ্রেণির অসাধু কিছু কর্মকর্তা জড়িত রয়েছে। তাদের সহযোগিতায় ভুয়া এনাআইডি তৈরি করে এই প্রতারণা করেছে। ঋণ নেওয়ার সময় এনআইডি যাচাই করার সময় ভুয়া এনআইডির তথ্য সাময়িকভাবে সার্ভারে আপলোড করা হয়। ঋণ নেওয়ার জন্য এনআইডি যাচাই-বাছাই শেষ হলে জাতীয় পরিচয়পত্রের সার্ভার থেকে সেসব তথ্য আবার নামিয়ে ফেলা হয়।
গোয়েন্দা কর্মকর্তারা জানান, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ শেষে গত ১লা মার্চ বিপ্লব আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয়। বিপ্লবের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে গত মঙ্গলবার প্রথমে আল-আমিনকে গ্রেফতার করা হয়। পরে আলামীনের দেওয়া তথ্যে বাকিদের গ্রেফতার করে পুলিশ।

যেভাবে প্রতারণা করে তারা

তদন্ত সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা জানান, প্রতারক চক্রের সদস্যরা কোনও একটি ব্যাংকের শাখাকে টার্গেট করে সেখানে লোন নেওয়ার জন্য যায়। ফ্যাটের বিপরীতে লোন নেওয়ার কথা বললে ব্যাংক কর্মকর্তারা সেই ফ্ল্যাট ভিজিট করতে চায়। প্রতারকরা আগে থেকেই কোনও একটি ফ্ল্যাট বিক্রির সাইনবোর্ড ঠিক করে ব্যাংক কর্মকর্তাদের সেখানে নিয়ে যায়। পরবর্তীতে প্রতারক দলের সদস্যরা সেই বিক্রেতার জাতীয় পরিচয়পত্রের কপি নিয়ে আসে। সেই এনআইডির ছবি পরিবর্তন করে ভুয়া এনআইডি তৈরি করে ব্যাংকে জমা দেয়। ব্যাংক কর্তৃপক্ষ সেই এনআইডি সার্ভারে যাচাই করে ঠিক দেখতে পেয়ে লোন অনুমোদন করে দেয়।
গোয়েন্দা কর্মকর্তারা জানান, গ্রেফতারকৃতরা জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছে, তারা ব্যাংকে কাগজপত্র ও এনআইডি জমা দেওয়ার আগে নির্বাচন কমিশনের কর্মচারীর মাধ্যমে সেই ভুয়া এনআইডির তথ্য সার্ভারে আপলোড করে। যাতে ব্যাংক কর্তৃপক্ষ জাতীয় পরিচয়পত্র যাচাই করতে গিয়ে এর সত্যতা পায়। যাচাই শেষ হলেই তা আবার নামিয়ে ফেলা হয়।

ডিবির অতিরিক্ত কমিশনার হাফিজ আক্তার বলেন, গ্রেফতারকৃতরা ইতোমধ্যে এগারটা ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান থেকে এভাবে প্রতারণা করে অর্থ আত্মসাৎ করেছে। আমরা এসব বিষয়ে তদন্ত করছি। এছাড়া ভুয়া এনআইডির তৈরির অসাধু কর্মচারীদের শনাক্ত করা হয়েছে, তাদের গ্রেফতারের জন্য অভিযান চালানো হচ্ছে।

/এনএল/এমআর/

সম্পর্কিত

বিপুল পরিমাণ গাঁজাসহ আটক ২

বিপুল পরিমাণ গাঁজাসহ আটক ২

নগরবাসীর প্রতি ডিএমপি’র আহ্বান

নগরবাসীর প্রতি ডিএমপি’র আহ্বান

একবছরে পুলিশে আইজিপির যত উদ্যোগ

একবছরে পুলিশে আইজিপির যত উদ্যোগ

নারায়ণগঞ্জ ক্লাবের বিরুদ্ধে ভ্যাট ফাঁকির অভিযোগ

নারায়ণগঞ্জ ক্লাবের বিরুদ্ধে ভ্যাট ফাঁকির অভিযোগ

পুকুরে পাওয়া গেলো শুটারগান

পুকুরে পাওয়া গেলো শুটারগান

মামুনুলকে খুঁজে পাচ্ছে না পুলিশ

মামুনুলকে খুঁজে পাচ্ছে না পুলিশ

ট্রাকের সঙ্গে সংঘর্ষে সিএনজির ২ যাত্রী নিহত

ট্রাকের সঙ্গে সংঘর্ষে সিএনজির ২ যাত্রী নিহত

কুড়িয়ে পাওয়া বোমা বিস্ফোরণে শিশু নিহত, আহত ২

কুড়িয়ে পাওয়া বোমা বিস্ফোরণে শিশু নিহত, আহত ২

‘জরুরি প্রয়োজন’ ওড়না ডেলিভারি, ডাক্তারকে খেজুর গিফট

‘জরুরি প্রয়োজন’ ওড়না ডেলিভারি, ডাক্তারকে খেজুর গিফট

যুবদলের সাবেক সভাপতি মজনু পাঁচ দিনের রিমান্ডে

যুবদলের সাবেক সভাপতি মজনু পাঁচ দিনের রিমান্ডে

হেফাজতের কেন্দ্রীয় নেতা রাজীসহ তিন জন ৫ দিনের রিমান্ডে

হেফাজতের কেন্দ্রীয় নেতা রাজীসহ তিন জন ৫ দিনের রিমান্ডে

জরুরি প্রয়োজন ছাড়া বের হলেই জরিমানা

জরুরি প্রয়োজন ছাড়া বের হলেই জরিমানা

সর্বশেষ

বিপুল পরিমাণ গাঁজাসহ আটক ২

বিপুল পরিমাণ গাঁজাসহ আটক ২

ডিএসসিসির ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানে ১১ মামলা

ডিএসসিসির ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানে ১১ মামলা

রাশিয়ার বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা জারি করলো যুক্তরাষ্ট্র

রাশিয়ার বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা জারি করলো যুক্তরাষ্ট্র

ভার্চুয়াল কোর্টে জামিন পেলেন ২৩৬০ জন

ভার্চুয়াল কোর্টে জামিন পেলেন ২৩৬০ জন

স্বাস্থ্যবিধি মানা হচ্ছে না নারায়ণগঞ্জের অনেক গার্মেন্টস কারখানায়

স্বাস্থ্যবিধি মানা হচ্ছে না নারায়ণগঞ্জের অনেক গার্মেন্টস কারখানায়

নগরবাসীর প্রতি ডিএমপি’র আহ্বান

নগরবাসীর প্রতি ডিএমপি’র আহ্বান

বদলে গেছে বিএসএমএমসি, কী আছে এই মেডিক্যাল কলেজে?

বদলে গেছে বিএসএমএমসি, কী আছে এই মেডিক্যাল কলেজে?

বার্সেলোনা দলে ফিরেছেন ফাতি

বার্সেলোনা দলে ফিরেছেন ফাতি

স্বর্ণালংকার ছিনিয়ে নেওয়ার পর নারীকে ধর্ষণচেষ্টা

স্বর্ণালংকার ছিনিয়ে নেওয়ার পর নারীকে ধর্ষণচেষ্টা

করোনা রোগীদের দ্রুত সেরে উঠতে সহযোগিতা করে হাঁপানির ওষুধ

করোনা রোগীদের দ্রুত সেরে উঠতে সহযোগিতা করে হাঁপানির ওষুধ

রোজা সম্পর্কিত স্টিকার আনলো ইনস্টাগ্রাম

রোজা সম্পর্কিত স্টিকার আনলো ইনস্টাগ্রাম

সন্তানকে গরম চামচের ছ্যাঁকা, মা কারাগারে

সন্তানকে গরম চামচের ছ্যাঁকা, মা কারাগারে

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

নগরবাসীর প্রতি ডিএমপি’র আহ্বান

নগরবাসীর প্রতি ডিএমপি’র আহ্বান

একবছরে পুলিশে আইজিপির যত উদ্যোগ

একবছরে পুলিশে আইজিপির যত উদ্যোগ

মামুনুলকে খুঁজে পাচ্ছে না পুলিশ

মামুনুলকে খুঁজে পাচ্ছে না পুলিশ

‘জরুরি প্রয়োজন’ ওড়না ডেলিভারি, ডাক্তারকে খেজুর গিফট

‘জরুরি প্রয়োজন’ ওড়না ডেলিভারি, ডাক্তারকে খেজুর গিফট

যুবদলের সাবেক সভাপতি মজনু পাঁচ দিনের রিমান্ডে

যুবদলের সাবেক সভাপতি মজনু পাঁচ দিনের রিমান্ডে

হেফাজতের কেন্দ্রীয় নেতা রাজীসহ তিন জন ৫ দিনের রিমান্ডে

হেফাজতের কেন্দ্রীয় নেতা রাজীসহ তিন জন ৫ দিনের রিমান্ডে

জরুরি প্রয়োজন ছাড়া বের হলেই জরিমানা

জরুরি প্রয়োজন ছাড়া বের হলেই জরিমানা

মুভমেন্ট পাসের ওয়েবসাইটে ১৬ কোটি হিট

মুভমেন্ট পাসের ওয়েবসাইটে ১৬ কোটি হিট

‘আদালত বন্ধ বা চালু রাখার সিদ্ধান্ত নেবেন প্রধান বিচারপতি’

‘আদালত বন্ধ বা চালু রাখার সিদ্ধান্ত নেবেন প্রধান বিচারপতি’

মুভমেন্ট পাস নিয়ে আজও কঠোর পুলিশ

মুভমেন্ট পাস নিয়ে আজও কঠোর পুলিশ

Bangla Tribune is one of the most revered online newspapers in Bangladesh, due to its reputation of neutral coverage and incisive analysis.
© 2021 Bangla Tribune