X
সোমবার, ২৫ অক্টোবর ২০২১, ৮ কার্তিক ১৪২৮

সেকশনস

পাবজি বন্ধের পাঁচ কারণ

আপডেট : ০২ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২:৪১

বাংলাদেশসহ ভারত, পাকিস্তান, নেপাল, চীন, ইরান, জর্ডান ও আফগানিস্তানে নিষিদ্ধ পাবজি। আর এ সিদ্ধান্তের পেছনে রয়েছে বেশ কিছু কারণ। বিশেষ করে পাবজি কেন বন্ধ করা উচিৎ লিখে সার্চ করলেই বেরিয়ে আসবে উত্তরগুলো।

 

মারাত্মক সহিংস

বয়স্ক গেমাররা হয়তো ভাববেন, এ তো স্রেফ গেম মাত্র, এটাকে এত সিরিয়াসলি দেখার কী আছে? কিন্তু পাবজির কারণে ইতোমধ্যেই উপমহাদেশে ঘটে গেছে অনাকাঙ্ক্ষিত একগাদা সহিংস ঘটনা। গেমটার ধরনই যে এমন। দেখা মাত্রই মেরে ফেলতে হবে প্রতিপক্ষকে। আর এ ধরনের গেম তো শিশুর মনকে প্রতিহিংসাপরায়ণ করে তুলবেই। বিশেষ করে যেখানে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা নয়, বরং সরাসরি জ্বলজ্যান্ত ব্যক্তির বিপরীতেই খেলা হচ্ছে গেমটি।

 

অসামাজিক আচরণ

সারাক্ষণ ফোনের দুনিয়ায় থাকলে সামাজিক সম্পর্কের চর্চায় অনভিজ্ঞ ও অজ্ঞতা নিয়েই বড় হবে শিশুরা। যার প্রভাব পড়বে ভবিষ্যতের চাকরি, ব্যবসা কিংবা যোগাযোগের নানা ক্ষেত্রে। পাবজি-ফ্রি ফায়ারে আসক্তদের অনেককেই আগোরাফোবিয়ায় (জনসম্মুখে থাকার ভীতি) আক্রান্ত হতে দেখা গেছে।

 

শরীরের ক্ষতি

যারা পাবজি-ফ্রি ফায়ার খেলে অভ্যস্ত, তারা দিনে অন্তত ৫টি ম্যাচ খেলেই থাকেন। এতে কমপক্ষে নষ্ট হতে পারে ৩-৪ ঘণ্টা। আবার রাতে শোয়ার আগে বন্ধুদের সঙ্গে মিলে ‘এক ম্যাচ’ খেলতে গিয়েও ঘুমের বারোটা বাজছে অনেকের। গেমের পুরোটা সময় টেনশনে থাকতে হয় বলে স্বপ্নেও হানা দেয় পাবজি-ফ্রি ফায়ারের শত্রুপক্ষ। এতে ‘কোয়ালিটি স্লিপ’টাও হয় না। এ ছাড়া টানা অনেকক্ষণ মোবাইলের পর্দায় ঘাড় বাঁকা করে তাকানো ও বসে থাকাটাও কম ক্ষতি করছে না স্বাস্থ্যের।

 

মনের ক্ষতি

অনেক গবেষণাতেই দেখা গেছে এ ধরনের শুটিং গেমে আসক্তরা দ্রুত কোনও কিছু নিয়ে টেনশনে পড়ে যায়। আবার কারণে-অকারণে ভয়-ভীতিতেও আক্রান্ত হয় অনেকে।

 

কাজের ক্ষতি

আসক্তি তৈরির তালিকায় পাবজি-ফ্রি ফায়ার আছে এক নম্বরে। এতে শিশু-কিশোররা অজান্তেই কম উৎপাদনশীল হচ্ছে। যা তাদের ভবিষ্যতের জন্য হুমকি।

আবার আমাদের অবচেতন মন সারাক্ষণই কোনও না কোনও উৎস থেকে আনন্দ খুঁজে পেতে চায়। এ জন্য মস্তিষ্ক সবসময়ই শর্টকাট খোঁজে। যার কারণে গুরুত্বপূর্ণ অনেক কাজ ফেলেও অনেকের মন বলে, ‘যাই এক ম্যাচ পাবজি খেলে আসি।’ এতে দিনে যে সময়টা নষ্ট হয়, তাতে চাইলে নতুন কিছু শিখে ফেলা যায়।  

আর যারা আসক্ত, তারা সময় নষ্টের বিষয়টা হিসাবেই আনতে চায় না। কিন্তু দিনে ৩ ঘণ্টা করে হিসাব করলেও বছরে নষ্ট হবে প্রায় এক হাজার কর্মঘণ্টা। যা কিনা একজন চাকরিজীবীর ১৩০ দিন কাজ করার সমান!

 

সূত্র: স্কুপ হুপ

/এইচএএইচ/

সম্পর্কিত

‘ইন্টারনেটে ভুয়া তথ্য ছড়ানো ঠেকাতে তৃণমূল পর্যায়ে সচেতনতা জরুরি’

‘ইন্টারনেটে ভুয়া তথ্য ছড়ানো ঠেকাতে তৃণমূল পর্যায়ে সচেতনতা জরুরি’

১৬ লাখ ফিশিং ই-মেইল বন্ধ করলো গুগল

১৬ লাখ ফিশিং ই-মেইল বন্ধ করলো গুগল

আইফোন ১৩ সিরিজের প্রি-বুকিং নিচ্ছে সেলেক্সট্রা

আইফোন ১৩ সিরিজের প্রি-বুকিং নিচ্ছে সেলেক্সট্রা

টুইটারের স্পেসেস এখন সবার জন্য উন্মুক্ত

টুইটারের স্পেসেস এখন সবার জন্য উন্মুক্ত

‘ইন্টারনেটে ভুয়া তথ্য ছড়ানো ঠেকাতে তৃণমূল পর্যায়ে সচেতনতা জরুরি’

আপডেট : ২৪ অক্টোবর ২০২১, ২০:৪০

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের ‘নিউজ ফিডে’ যা-ই দেখা যায়, তা-ই সংবাদ নয়। কিন্তু অর্থ উপার্জনের নেশায় পড়ে অনেকে এখন যেনতেনভাবে নানা তথ্য প্রচার করছেন ইন্টারনেটে। এরমধ্য দিয়ে প্রচারিত কোন তথ্য সঠিক, কোন তথ্য ভুয়া সেটি শনাক্ত করা বড় চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়িয়েছে। দেশের তৃণমূল পর্যায় থেকে সচেতনতা তৈরি করা গেলে ভুল তথ্য ছাড়ানো নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব।

সাইবার নিরাপত্তা সচেতনতা মাস (ক্যাম) অক্টোবরের আলোচনায় অংশ নিয়ে এসব কথা বলেছেন বিশেষজ্ঞরা। ‘সোশাল মিডিয়ায় ভুয়া সংবাদ: চ্যালেঞ্জ ও করণীয়’ শীর্ষক ওয়েবিনারের আয়োজন করে সাইবার নিরাপত্তা সচেতনতা মাস বিষয়ক জাতীয় কমিটি-২০২১। মোবাইল ফোন অপারেটর রবি আজিয়াটা লিমিটেড ও প্রযুক্তি সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান সাইবার প্যারাডাইসের পৃষ্ঠপোষকতায় মাসব্যাপী সচেতনতামূলক এই কর্মসূচি চলছে। শনিবার রাতে (২৩ অক্টোবর) আয়োজিত ওয়েবিনার অনলাইনে সরাসরি সম্প্রচার করে ইংরেজি দৈনিক ঢাকা ট্রিবিউন।

ওয়েবিনারে সভাপতিত্ব করেন ক্যাম জাতীয় ক‌মি‌টির যুগ্ম আহ্বায়ক ও আইসাকা ঢাকা চ্যাপ্টারের ভাইস প্রেসিডেন্ট ওমর ফারুক খন্দকার। সঞ্চালক ছিলেন কমিটির সদস্য সচিব ও সাইবার ক্রাইম অ্যাওয়ারনেস ফাউন্ডেশনের (সিসিএ ফাউন্ডেশন) উপদেষ্টা ব্যারিস্টার রাশনা ইমাম। আলোচনায় অংশ নেন ঢাকা ট্রিবিউনের সহযোগী সম্পাদক আবু সাঈদ আসিফুল ইসলাম ও বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় ইউল্যাবের মিডিয়া স্ট্যাডিজ অ্যান্ড জার্নালিজম বিভাগের অধ্যাপক ড. দীন এম সুমন রহমান।

অধ্যাপক সুমন বলেন, ‘কোনও তথ্য ইন্টারনেটে প্রকাশ হলে সেই ওয়েবসাইট যদি কোনও প্রতিষ্ঠিত বা মূল ধারার সংবাদ মাধ্যম হয়, তাহলে সেটি সাধারণত ভুল তথ্য দেবে না। এছাড়া যেকোনও ওয়েবসাইটের অ্যাড্রেসবারে ওয়েব ঠিকানার শুরুতে https:// থাকলে সেটি নিরাপদ মনে করা যায়, আর শুধু http:// থাকলে সেই ওয়েবসাইট নিরাপদ নয়।-বিজ্ঞপ্তি

 

/এইচএএইচ/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

‘অস্থিরতা সৃষ্টির কারণে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম এখন বড় চ্যালেঞ্জ’

‘অস্থিরতা সৃষ্টির কারণে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম এখন বড় চ্যালেঞ্জ’

‘ঘুরে দাঁড়াচ্ছে বিজনেস প্রসেস আউটসোর্সিং’

‘ঘুরে দাঁড়াচ্ছে বিজনেস প্রসেস আউটসোর্সিং’

শিগগিরই ডাকসেবা কাঙ্ক্ষিত মানে উন্নীত হবে: মোস্তাফা জব্বার  

শিগগিরই ডাকসেবা কাঙ্ক্ষিত মানে উন্নীত হবে: মোস্তাফা জব্বার  

৯ মাসে কটূক্তি কমেছে অর্ধেক, দাবি ফেসবুকের

৯ মাসে কটূক্তি কমেছে অর্ধেক, দাবি ফেসবুকের

১৬ লাখ ফিশিং ই-মেইল বন্ধ করলো গুগল

আপডেট : ২৪ অক্টোবর ২০২১, ২০:৩৪

গত ৬ মাসে ১৬ লাখ ফিশিং বা প্রতারণামূলক ই-মেইল বন্ধ করেছে টেক জায়ান্ট গুগল। সাইবার অপরাধীরা তাদের ম্যালওয়ার ক্যাম্পেইনের অংশ হিসেবে এই ই-মেইলগুলো ব্যবহার করতো। এসব ই-মেইলের উদ্দেশ্য ছিল ইউটিউব অ্যাকাউন্ট চুরি করা এবং ক্রিপ্টোকারেন্সির ব্যবহার বাড়ানো।

ইউটিউব, জিমেইল, ট্রাস্ট অ্যান্ড সেফটি, সাইবারক্রাইম ইনভেস্টিগেশন গ্রুপ ও সেফ ব্রাউজিং টিমের পূর্ণ সহযোগিতায় প্রতিষ্ঠানটি জি-মেইল থেকে ৯৯ দশমিক ৬ শতাংশ পর্যন্ত ফিশিং ই-মেইল অপসারণ করতে সক্ষম হয়েছে বলে জানিয়েছে গুগলের থ্রেট অ্যানালাইসিস গ্রুপ।

এক ব্লগপোস্টে প্রতিষ্ঠানটি বলেছে, আমরা ১৬ লাখ ফিশিং মেসেজ ব্লক করার পাশাপাশি ৬২ হাজার সেফ ব্রাউজিং ফিশিং পেজের জন্য সতর্কবার্তা পাঠিয়েছি। এছাড়া আমরা ২ হাজার ৪০০ ফাইল ব্লক করেছি এবং ৪ হাজার অ্যাকাউন্ট সফলভাবে পুনরুদ্ধার করেছি। এছাড়া আমরা লক্ষ্য করেছি, আমাদের তৎপরতার কারণে অপরাধী গ্রুপটির মনোযোগ জিমেইল থেকে অন্যান্য ই-মেইল সেবাদাতা প্রতিষ্ঠানগুলোর দিকে ঘুরে গেছে।

গুগল আরও বলেছে, ২০১৯ সাল থেকে আমাদের টিম আর্থিক উদ্দেশ্যমূলক ফিশিং ক্যাম্পেইনের বিরুদ্ধে কাজ করছে। হ্যাকাররা কুকি থেফট ম্যালওয়ারের মাধ্যমে ইউটিউব ব্যবহারকারীদের টার্গেট করতো।

হ্যাকাররা ব্যবহারকারীদের কাছে ফ্রি অ্যান্টিভাইরাস, ভিপিএন, মিউজিক প্লেয়ার ও ফটো এডিটিং সফটওয়্যার এবং অনলাইন গেমসের মতো বিভিন্ন প্রলোভনমূলক ই-মেইল পাঠায়। এসব ই-মেইলে ক্লিক করার ফলে তাদের ইউটিউব চ্যানেলের দখল নেয় হ্যাকাররা। পরবর্তীতে সেগুলো তারা বিক্রি করে দেয়, অথবা ক্রিপ্টোকারেন্সি-কেন্দ্রিক প্রতারণার জন্য ব্যবহার করে।

অ্যাকাউন্ট সুরক্ষার জন্য কিছু পরামর্শ দিয়েছে গুগল। অপরিচিত কোনও ই-মেইলে ক্লিক না করার পাশাপাশি ‘মাল্টি-ফ্যাক্টর অথেনটিকেশন’ ফিচারটি চালু করলে অ্যাকাউন্ট নিরাপদ থাকার সম্ভাবনা অনেক বেশি।

সূত্র: গ্যাজেটস নাও

 

/এইচএএইচ/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

ভিডিও মিউট করা যাবে গুগল মিটে

ভিডিও মিউট করা যাবে গুগল মিটে

পরিবেশবান্ধব রাস্তা দেখাবে গুগল ম্যাপস

পরিবেশবান্ধব রাস্তা দেখাবে গুগল ম্যাপস

গুগল ফটোজে নতুন ফিচার

গুগল ফটোজে নতুন ফিচার

২০০ কোটি ক্রোম ব্যবহারকারীকে যে কারণে সতর্ক করলো গুগল

২০০ কোটি ক্রোম ব্যবহারকারীকে যে কারণে সতর্ক করলো গুগল

আইফোন ১৩ সিরিজের প্রি-বুকিং নিচ্ছে সেলেক্সট্রা

আপডেট : ২৪ অক্টোবর ২০২১, ১৯:১০

শক্তিশালী ব্যাটারি লাইফ নিয়ে বাজারে এসেছে আইফোন ১৩ সিরিজের ফোন। দেশের গ্রাহকদের হাতে ফোনটি তুলে দিতে প্রি-বুকিং অফার নিয়ে এসেছে অনলাইন শপ সেলেক্সট্রা ডট কম ডট বিডি। মাত্র ১০ হাজার টাকা দিয়েই প্রি-বুক করা যাবে সেলেক্সট্রায়।

যেকোনও ব্যাংকের ক্রেডিট কার্ড দিয়েও প্রি-বুকিং দেওয়া যাবে। রয়েছে ৩৬ মাস পর্যন্ত ইএমআই সুবিধা।

প্রি-বুকিং দিলে সেলেক্সট্রা শপ গ্রাহকদের উপহার হিসেবে দিচ্ছে ‑ একটি টি-শার্ট, একটি মগ ও একটি চার্জিং অ্যাডাপ্টর।

আইফোন-১৩-তে উন্নত ব্যাটারি পারফর্মেন্স ছাড়াও থাকছে অ্যাপলের ডিজাইন করা ফাইভ-কোর জিপিইউ এ১৫ বায়োনিক চিপ। এছাড়া আইফোন-১৩ প্রো এবং আইফোন-১৩ প্রো ম্যাক্সে থাকছে প্রো-মোশন সমৃদ্ধ সুপার রেটিনা এক্সডিআর ডিসপ্লে। আইফোন-১৩ ও আইফোন-১৩ মিনিতে রয়েছে ডুয়াল ক্যামেরা সিস্টেম। চার জিবি র‌্যামের প্রতিটি মডেলে থাকছে ১২৮ ও ২৫৬ গিগা মেমরি। এছাড়া রয়েছে এক টেরাবাইট স্টোরেজ সুবিধা।

বিজ্ঞপ্তি

/এইচএএইচ/এমএস/

সম্পর্কিত

‘ইন্টারনেটে ভুয়া তথ্য ছড়ানো ঠেকাতে তৃণমূল পর্যায়ে সচেতনতা জরুরি’

‘ইন্টারনেটে ভুয়া তথ্য ছড়ানো ঠেকাতে তৃণমূল পর্যায়ে সচেতনতা জরুরি’

১৬ লাখ ফিশিং ই-মেইল বন্ধ করলো গুগল

১৬ লাখ ফিশিং ই-মেইল বন্ধ করলো গুগল

টুইটারের স্পেসেস এখন সবার জন্য উন্মুক্ত

টুইটারের স্পেসেস এখন সবার জন্য উন্মুক্ত

‘অস্থিরতা সৃষ্টির কারণে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম এখন বড় চ্যালেঞ্জ’

‘অস্থিরতা সৃষ্টির কারণে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম এখন বড় চ্যালেঞ্জ’

টুইটারের স্পেসেস এখন সবার জন্য উন্মুক্ত

আপডেট : ২৪ অক্টোবর ২০২১, ১৪:৫২

মাইক্রো ব্লগিং সাইট টুইটার নিজেদের ক্লাব হাউজে অডিওকেন্দ্রিক চ্যাটরুম সফল করতে গত বছরের নভেম্বরে উন্মোচন করে ‘স্পেসেস’। কিন্তু হোস্টের ক্ষেত্রে যাদের ফলোয়ার ৬০০ বা ততোধিক, তাদের মধ্যে শুধু সীমাবদ্ধ ছিল এই সুযোগ। প্রায় একবছর পর এবার ফিচারটি ব্যবহারকারীদের জন্য উন্মুক্ত করে দেওয়া হলো।

সংবাদমাধ্যম ভার্জ জানায়, টুইটার মূলত শিডিউলের তুলনায় একটু পিছিয়ে। কেননা প্রতিষ্ঠানটি প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল চলতি বছরের এপ্রিলেই সবার জন্য উন্মুক্ত করে দেওয়া হবে ‘স্পেসেস’।

সম্প্রতি স্পেসেস টিম ফিচারটি সবার জন্য উন্মোচনের ঘোষণা দিয়ে টুইটার জানায়, এখন থেকে অ্যান্ড্রয়েড এবং আইওএস ব্যবহারকারীরা এটি ব্যবহার করতে পারবেন। একইসঙ্গে তারা একটি জিআইএফ অফার করেছে যেখানে এর ব্যবহারবিধি বোঝানো আছে।

ভার্জ আরও জানায়, স্পেসেস-এ টুইটার কর্তৃপক্ষ নতুন কিছু ফিচার এনেছে। ফলে এতে ১০ জন বক্তাকে কো-হোস্ট বানানো যাবে। স্পার্ক প্রোগ্রাম এবং টিকেটেড স্পেসেস নামে একটি পরীক্ষামূলক ফান্ড তৈরির ব্যবস্থা রয়েছে। এটি এমন একটি অডিও রুম হিসেবে পরিচিত থাকবে যেখানে অংশ নিতে মূল্য পরিশোধ করতে হবে। এর বিশেষ অপশনগুলো নিয়ন্ত্রণের সুযোগ সবাইকে না দিয়ে শুধু হোস্টকে দেওয়া হবে।

/জেএইচ/

সম্পর্কিত

স্বয়ংক্রিয়ভাবে ‌‌‌‌‌‘আর্কাইভ’ হয়ে যাবে টুইটার পোস্ট

স্বয়ংক্রিয়ভাবে ‌‌‌‌‌‘আর্কাইভ’ হয়ে যাবে টুইটার পোস্ট

ইনস্টাগ্রামে ১৬ বছরের নিচে হলেই ‘বাই ডিফল্ট প্রাইভেট’

ইনস্টাগ্রামে ১৬ বছরের নিচে হলেই ‘বাই ডিফল্ট প্রাইভেট’

‘অস্থিরতা সৃষ্টির কারণে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম এখন বড় চ্যালেঞ্জ’

আপডেট : ২৩ অক্টোবর ২০২১, ১৫:৩৯

ডাক ও টেলিযোগাযোগমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বলেছেন, ‘ডিজিটাইজেশনের প্রসারের পাশাপাশি ডিজিটাল নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে সরকার বদ্ধপরিকর। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম এখন সাম্প্রদায়িক দাঙ্গাসহ সামাজিক-রাজনৈতিক অস্থিরতা সৃষ্টির কারণে বড় একটি চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়িয়েছে। সেই সংকট অতিক্রমের জন্য আমরা কাজ করছি।’ গতকাল শুক্রবার (২২ অক্টোবর) রাতে অনলাইনে ডিজিটাল সিকিউরিটি সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন তিনি। অনুষ্ঠানটি আয়োজন করে যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী বাংলাদেশি ডিজিটাল প্রযুক্তি উদ্যোক্তারা।

মোস্তাফা জব্বার উল্লেখ করেন, ২০১৮ সালের পর থেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম কর্তৃপক্ষের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় আলোচনাসহ সরকারের সুসম্পর্ক গড়ে উঠেছে। ফলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম কর্তৃপক্ষ এখন সরকারের যেকোনও পরামর্শ গুরুত্বের সঙ্গে আমলে নিচ্ছে। ভবিষ্যতে তা আরও কার্যকর হবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

ডিজিটাল নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে প্রযুক্তিগত সক্ষমতা অর্জন এবং ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন প্রণয়নসহ সরকারের গৃহীত বিভিন্ন কর্মসূচি তুলে ধরেন মন্ত্রী। তার মন্তব্য, ‘ডিজিটাল নিরাপত্তা চ্যালেঞ্জিং হলেও আমরা এটি মোকাবিলায় পিছিয়ে নেই। অতীতের তিনটি শিল্প-বিপ্লব হাতছাড়া করায় সৃষ্ট পশ্চাদপদতা অতিক্রম করে বাংলাদেশ ডিজিটাল প্রযুক্তি বিকাশে বৈশ্বিক নেতৃত্বের জায়গায় উপনীত হয়েছে।’

টেলিযোগাযোগমন্ত্রী জানান, সৌদি আরবে আইওটি ডিভাইস রফতানি হচ্ছে। বিশ্বের ৮০টি দেশে বাংলাদেশ সফটওয়্যার রফতানি করছে।

সামিটে বক্তারা ডিজিটাল নিরাপত্তা নিশ্চিতের প্রয়োজনীয়তার ওপর গুরুত্বারোপ করেন। ডিজিটাল নিরাপত্তার জন্য প্রযুক্তিগত সক্ষমতা গড়ে তোলার পাশাপাশি ব্যাপক জনসচেতনতা তৈরির প্রয়োজনীয়তা তুলে ধরেন তারা।

যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী উদ্যোক্তা মোস্তাফিজুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তৃতা দেন বাংলাদেশ স্যাটেলাইট কোম্পানি লিমিটেডের চেয়ারম্যান ড. শাহজাহান মাহমুদ এবং টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রক সংস্থার (বিটিআরসি) স্পেক্ট্রাম ব্যবস্খাপনা বিভাগের মহাপরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. নাসিম পারভেজ।

অর্ধশতাধিক আন্তর্জাতিক বক্তা অংশ নিচ্ছেন টানা ২৮ ঘণ্টার এই আয়োজনে। ২০টির বেশি দেশ থেকে পাঁচ হাজারের বেশি অংশগ্রহণকারী অনলাইনে যুক্ত হচ্ছেন। বৈশ্বিক সাইবার হুমকির সুরক্ষা, শনাক্তকরণ ও প্রতিক্রিয়া জানতে বাংলাদেশে সরকার ও ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানগুলো এই সামিটে অংশ নিচ্ছে।

/এইচএএইচ/জেএইচ/

সম্পর্কিত

‘ইন্টারনেটে ভুয়া তথ্য ছড়ানো ঠেকাতে তৃণমূল পর্যায়ে সচেতনতা জরুরি’

‘ইন্টারনেটে ভুয়া তথ্য ছড়ানো ঠেকাতে তৃণমূল পর্যায়ে সচেতনতা জরুরি’

‘ঘুরে দাঁড়াচ্ছে বিজনেস প্রসেস আউটসোর্সিং’

‘ঘুরে দাঁড়াচ্ছে বিজনেস প্রসেস আউটসোর্সিং’

দেশে ১৭ কোটি মোবাইল, ইন্টারনেট ব্যবহারকারী ১১ কোটি: মোস্তাফা জব্বার

দেশে ১৭ কোটি মোবাইল, ইন্টারনেট ব্যবহারকারী ১১ কোটি: মোস্তাফা জব্বার

শিগগিরই ডাকসেবা কাঙ্ক্ষিত মানে উন্নীত হবে: মোস্তাফা জব্বার  

শিগগিরই ডাকসেবা কাঙ্ক্ষিত মানে উন্নীত হবে: মোস্তাফা জব্বার  

সর্বশেষসর্বাধিক
quiz

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

‘ইন্টারনেটে ভুয়া তথ্য ছড়ানো ঠেকাতে তৃণমূল পর্যায়ে সচেতনতা জরুরি’

‘ইন্টারনেটে ভুয়া তথ্য ছড়ানো ঠেকাতে তৃণমূল পর্যায়ে সচেতনতা জরুরি’

১৬ লাখ ফিশিং ই-মেইল বন্ধ করলো গুগল

১৬ লাখ ফিশিং ই-মেইল বন্ধ করলো গুগল

আইফোন ১৩ সিরিজের প্রি-বুকিং নিচ্ছে সেলেক্সট্রা

আইফোন ১৩ সিরিজের প্রি-বুকিং নিচ্ছে সেলেক্সট্রা

টুইটারের স্পেসেস এখন সবার জন্য উন্মুক্ত

টুইটারের স্পেসেস এখন সবার জন্য উন্মুক্ত

‘অস্থিরতা সৃষ্টির কারণে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম এখন বড় চ্যালেঞ্জ’

‘অস্থিরতা সৃষ্টির কারণে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম এখন বড় চ্যালেঞ্জ’

‘ঘুরে দাঁড়াচ্ছে বিজনেস প্রসেস আউটসোর্সিং’

সাক্ষাৎকার‘ঘুরে দাঁড়াচ্ছে বিজনেস প্রসেস আউটসোর্সিং’

দেশে ১৭ কোটি মোবাইল, ইন্টারনেট ব্যবহারকারী ১১ কোটি: মোস্তাফা জব্বার

দেশে ১৭ কোটি মোবাইল, ইন্টারনেট ব্যবহারকারী ১১ কোটি: মোস্তাফা জব্বার

ভিডিও মিউট করা যাবে গুগল মিটে

ভিডিও মিউট করা যাবে গুগল মিটে

প্লে-স্টোরের সাবস্ক্রিপশন ফি অর্ধেক করছে গুগল

প্লে-স্টোরের সাবস্ক্রিপশন ফি অর্ধেক করছে গুগল

ওটিটি অ্যাপস নিয়ন্ত্রণ নিয়ে কী হচ্ছে?

ওটিটি অ্যাপস নিয়ন্ত্রণ নিয়ে কী হচ্ছে?

সর্বশেষ

ইসরায়েলের সঙ্গে আরব দেশের সম্পর্ক ছিন্ন করা উচিত: খামেনি

ইসরায়েলের সঙ্গে আরব দেশের সম্পর্ক ছিন্ন করা উচিত: খামেনি

ম্যানইউকে গোল বন্যায় ভাসালো লিভারপুল

ম্যানইউকে গোল বন্যায় ভাসালো লিভারপুল

রাজধানীতে দুই শিশু যৌন নির্যাতনের শিকার, অভিযুক্তরা গ্রেফতার

রাজধানীতে দুই শিশু যৌন নির্যাতনের শিকার, অভিযুক্তরা গ্রেফতার

প্রস্তুত জেলেরা, মধ্যরাত থেকে ইলিশ ধরা শুরু

প্রস্তুত জেলেরা, মধ্যরাত থেকে ইলিশ ধরা শুরু

ভারতকে হারিয়ে ভাগ্য বদলালো পাকিস্তান

ভারতকে হারিয়ে ভাগ্য বদলালো পাকিস্তান

© 2021 Bangla Tribune