X
মঙ্গলবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২১, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

সেকশনস

খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে ১১ মামলার শুনানি ২২ নভেম্বর

আপডেট : ২১ অক্টোবর ২০২১, ২০:১৫

বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে দায়ের করা হত্যা ও রাষ্ট্রদ্রোহের মামলাসহ ১১টি মামলার শুনানির জন্য আগামী ২২ নভেম্বর দিন ধার্য করেছেন আদালত।

বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) ঢাকা মহানগর সিনিয়র স্পেশাল জজ কে এম ইমরুল কায়েশের আদালতে মামলাগুলোর শুনানির জন্য দিন ধার্য ছিল। কিন্তু হাইকোর্ট খালেদা জিয়ার পক্ষে অধিকাংশ মামলার কার্যক্রম স্থগিত করেছেন জানিয়ে আদালতের কাছে সময় আবেদন করেন খালেদার আইনজীবী। আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে আদালত সময় আবেদন মঞ্জুর করে পরবর্তী শুনানির জন্য ২২ নভেম্বর তারিখ ধার্য করেন।

মামলাগুলোর মধ্যে রয়েছে রাজধানীর দারুস সালাম থানায় করা নাশকতার আটটি, যাত্রাবাড়ী থানার দুটি ও রাষ্ট্রদ্রোহের একটি। যাত্রাবাড়ী থানার একটি হত্যা মামলার চার্জশিট গ্রহণের বিষয়ে শুনানি রয়েছে। অপর ১০ মামলা ছিল অভিযোগ গঠন শুনানির জন্য।

মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের সংখ্যা নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করার অভিযোগে ২০১৬ সালের ২৫ জানুয়ারি আদালতে রাষ্ট্রদ্রোহের মামলাটি দায়ের করা হয়।

এদিকে, যাত্রাবাড়ী থানার মামলার অভিযোগ থেকে জানা যায়, ২০১৫ সালের ২৩ জানুয়ারি রাতে যাত্রাবাড়ীর কাঠেরপুল এলাকায় গ্লোরি পরিবহনের যাত্রীবাহী একটি বাসে পেট্রল বোমা হামলা হয়। এতে বাসের ২৯ যাত্রী দগ্ধ হন। পরে তাদের ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হলে ১ ফেব্রুয়ারি চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান নূর আলম (৬০) নামের এক যাত্রী।

ওই ঘটনায় ২০১৫ সালের ২৪ জানুয়ারি খালেদা জিয়াকে হুকুমের আসামি করে যাত্রাবাড়ী থানায় মামলা করেন থানার উপপরিদর্শক (এসআই) কে এম নুরুজ্জামান। ওই বছরের ৬ মে খালেদা জিয়াসহ ৩৮ জনের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন ডিবি পুলিশের পরিদর্শক বশির আহমেদ।

অন্যদিকে, ২০১৫ সালে দারুস সালাম থানা এলাকায় নাশকতার অভিযোগে আটটি মামলা দায়ের করা হয়। এই আট মামলায় বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে আসামি করা হয়। ২০১৭ সালের বিভিন্ন সময়ে মামলাগুলোয় চার্জশিট দাখিল করে পুলিশ।

/এমএইচজে/এমএস/

সম্পর্কিত

র‍্যাব হেফাজতে চিত্রনায়ক ইমন

র‍্যাব হেফাজতে চিত্রনায়ক ইমন

মুক্তিযোদ্ধা কোটা বাতিলের পরিপত্র কেন অবৈধ নয়: হাইকোর্ট

মুক্তিযোদ্ধা কোটা বাতিলের পরিপত্র কেন অবৈধ নয়: হাইকোর্ট

ডেসটিনির প্রতিবেদন গ্রহণে নিষ্ক্রিয়তা নিয়ে হাইকোর্টের রুল

ডেসটিনির প্রতিবেদন গ্রহণে নিষ্ক্রিয়তা নিয়ে হাইকোর্টের রুল

পাঁচ মামলায় আরজে নীরবের জামিন 

পাঁচ মামলায় আরজে নীরবের জামিন 

‘সংবাদপত্র রুগ্ন হয়ে পড়েছে’

আপডেট : ০৭ ডিসেম্বর ২০২১, ২০:৪১

সংবাদপত্র মালিকদের সংগঠন নিউজপেপার্স ওনার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (নোয়াব) সভাপতি এ কে আজাদ বলেছেন, সংবাদপত্র শিল্প এখন রুগ্ন হয়ে পড়েছে। এর অন্যতম কারণ কাগজের উচ্চমূল্য। এ ছাড়া বেতন-ভাতাসহ অন্য খরচও বেড়েছে। এমন পরিস্থিতিতে সংবাদপত্র শিল্পে সহযোগিতা দরকার।

মঙ্গলবার (৭ ডিসেম্বর) রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন ফেডারেশন অব বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিজ (এফবিসিসিআই) আয়োজিত দেশের সার্বিক অর্থনৈতিক উন্নয়ন ও অগ্রযাত্রায় গণমাধ্যমের ভূমিকা, সমস্যা ও সম্ভাবনা নিয়ে নোয়াবের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

এ কে আজাদ বলেন, সংবাদপত্রের আয় বাড়েনি, বিজ্ঞাপন কমে গেছে। এখন বিজ্ঞাপনে ডিসকাউন্টও দিতে হচ্ছে অনেক। পত্রিকা বিক্রি ও বিজ্ঞাপন বাবদ অনেক টাকা অনাদায়ী থাকছে।

তিনি বলেন, করোনার সময় সরকার বিভিন্ন খাতে প্রণোদনা দিলেও সংবাদপত্র শিল্পে দেওয়া হয়নি। প্রণোদনার জন্য বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর, প্রধানমন্ত্রীর মুখ্যসচিব, মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের সচিবের কাছে নোয়াবের পক্ষ থেকে আবেদন করা হয়েছে। হকারদের জন্য সিটি করপোরেশন ও পৌরসভার মেয়রদের কাছে জায়গা চাওয়া হয়েছে।

মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন এফবিসিসিআইয়ের সভাপতি মো. জসিম উদ্দিন। এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন ডেইলি স্টারের সম্পাদক মাহফুজ আনাম, প্রথম আলোর সম্পাদক মতিউর রহমান, বণিক বার্তার সম্পাদক দেওয়ান হানিফ মাহমুদ, দ্য ফাইন্যান্সিয়াল হেরাল্ডের সম্পাদক রিয়াজ উদ্দিন আহমেদসহ এফবিসিসিআইয়ের কর্মকর্তারা।

/জিএম/এফএ/
সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

র‍্যাব হেফাজতে চিত্রনায়ক ইমন

র‍্যাব হেফাজতে চিত্রনায়ক ইমন

মুক্তিযোদ্ধা কোটা বাতিলের পরিপত্র কেন অবৈধ নয়: হাইকোর্ট

মুক্তিযোদ্ধা কোটা বাতিলের পরিপত্র কেন অবৈধ নয়: হাইকোর্ট

ডেসটিনির প্রতিবেদন গ্রহণে নিষ্ক্রিয়তা নিয়ে হাইকোর্টের রুল

ডেসটিনির প্রতিবেদন গ্রহণে নিষ্ক্রিয়তা নিয়ে হাইকোর্টের রুল

পাঁচ মামলায় আরজে নীরবের জামিন 

পাঁচ মামলায় আরজে নীরবের জামিন 

শিশুসহ পলাতক বাবাকে দেশে ফিরিয়ে আনার নির্দেশ

শিশুসহ পলাতক বাবাকে দেশে ফিরিয়ে আনার নির্দেশ

জাপানি দুই শিশুকে নিয়ে আপিল শুনানি ১২ ডিসেম্বর

জাপানি দুই শিশুকে নিয়ে আপিল শুনানি ১২ ডিসেম্বর

প্রয়োজনে ডা. মুরাদ ও চিত্রনায়িকা মাহিকেও ডাকা হবে: ডিবি

প্রয়োজনে ডা. মুরাদ ও চিত্রনায়িকা মাহিকেও ডাকা হবে: ডিবি

এবি ব্যাংকের ১৫ কর্মকর্তাকে গ্রেফতারের নির্দেশ, দেশ ত্যাগে নিষেধাজ্ঞা

এবি ব্যাংকের ১৫ কর্মকর্তাকে গ্রেফতারের নির্দেশ, দেশ ত্যাগে নিষেধাজ্ঞা

নাইকো দুর্নীতি মামলার অভিযোগ গঠন শুনানি পেছালো

নাইকো দুর্নীতি মামলার অভিযোগ গঠন শুনানি পেছালো

সর্বশেষ

ওমিক্রণের সংক্রমণ ও ভয়াবহতা নিয়ে যা বলছেন বিশেষজ্ঞরা

ওমিক্রণের সংক্রমণ ও ভয়াবহতা নিয়ে যা বলছেন বিশেষজ্ঞরা

‘সংবাদপত্র রুগ্ন হয়ে পড়েছে’

‘সংবাদপত্র রুগ্ন হয়ে পড়েছে’

প্যান্ডোরা পেপার্সে ৮ বাংলাদেশির নাম

প্যান্ডোরা পেপার্সে ৮ বাংলাদেশির নাম

গ্রামপুলিশকে যৌন হয়রানি, ইউপি সচিবের ১ বছর কারাদণ্ড

গ্রামপুলিশকে যৌন হয়রানি, ইউপি সচিবের ১ বছর কারাদণ্ড

সৌদিতে কর্মীদের সমস্যা সমাধানে প্রতি মাসে যৌথসভা করার সিদ্ধান্ত

সৌদিতে কর্মীদের সমস্যা সমাধানে প্রতি মাসে যৌথসভা করার সিদ্ধান্ত

© 2021 Bangla Tribune