X
রবিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

সেকশনস

সংশোধন হচ্ছে আরপিও, কমিটিতে ৩৩ শতাংশ নারী নেতৃত্বের ক্ষেত্রে সময় বাড়ছে

আপডেট : ২৬ অক্টোবর ২০২১, ১৭:৫৯

ক্ষুদ্র ঋণ ও বিলখেলাপিদের জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রার্থিতার পথ কিছুটা সহজ করার উদ্যোগ নিয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। এক্ষেত্রে টেলিফোন, গ্যাস, বিদ্যুৎ, পানিসহ অন্যান্য সরকারি সেবা খাতের বিল এবং ক্ষুদ্র ঋণ খেলাপিদের প্রার্থী হওয়ার অযোগ্যতার বিধানে সংশোধনীর প্রস্তাব করা হয়েছে। মনোনয়নপত্র দাখিলের সাত দিন আগে খেলাপি ঋণ ও বিল পরিশোধের শর্ত পরিবর্তন করে দাখিলের আগের দিন পরিশোধ করলেই জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বৈধ প্রার্থী হওয়ার সুযোগ দেওয়া হচ্ছে।
এ ছাড়া রাজনৈতিক দলের প্রতিটি পর্যায়ের কমিটিতে ৩৩ শতাংশ নারী সদস্য রা খার সময় ১০ বছর বাড়িয়ে ২০৩০ সাল নির্ধারণের প্রস্তাব করা হয়েছে।
গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশ, ১৯৭২ (আরপিও) -এর এ সংক্রান্ত কয়েকটি ধারা সংশোধনের প্রাথমিক সিদ্ধান্ত নিয়েছেন কমিশনাররা। সোমবার (২৫ অক্টোবর) কমিশনের এক সভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে।

জানা গেছে, অনেকটা হঠাৎ করেই সোমবার কমিশন সভা অনুষ্ঠিত হয়। ওই সভায় আরপিও’তে কয়েকটি বিষয়ে সংশোধনী আনার প্রাথমিক সিদ্ধান্ত হয়। আগামী বৃহস্পতিবার আরেকটি কমিশন সভা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে। ওই সভায় আরপিও সংশোধনী চূড়ান্ত অনুমোদন করে তা পাশের জন্য আইন মন্ত্রণালয়ে পাঠানোর সিদ্ধান্ত  হয়েছে।
বর্তমান কমিশনের মেয়াদ শেষের সাড়ে তিন মাস আগে এ আইন সংস্কারের উদ্যোগ কতটা বাস্তবায়ন হয় তা নিয়ে প্রশ্ন রয়েছে। বর্তমান কমিশনের মেয়াদে নভেম্বর মাসের মাঝামাঝি এবং জানুয়ারি মাসে সংসদের অধিবেশন বসার কথা রয়েছে। এক্ষেত্রে এই কমিশনের সময়ে আইনটি পাস করতে হলে এ দুটি অধিবেশনের মধ্যেই করতে হবে। অবশ্য রাজনৈতিক দলের নারী নেতৃত্বের ৩৩% এর বিধানটির সময়সীমা গত ২০২০ সালে শেষ হয়েছে। ফলে আইনের এ বিধানটির সংশোধন অনেকটা বাধ্যবাধকতার পর্যায়ে পড়ে গেছে।
আইন সংস্কারের উদ্যোগের কথা জানিয়ে নির্বাচন কমিশনার রফিকুল ইসলাম বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, বড় ঋণ খেলাপিদের সুযোগের সঙ্গে ছোট ঋণ বা সেবা খাতের বিল খেলাপিদের সামঞ্জস্য রাখতে আরপিও সংশোধন করা হচ্ছে।

তিনি বলেন, শিল্প, যৌথ কোম্পানির পরিচালক বা বড় ঋণ গ্রহীতারা মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার আগের দিন খেলাপি টাকা পরিশোধ করলে প্রার্থী হতে পারেন। অথচ ছোট ঋণ গ্রহীতা বা বিল খেলাপিদের মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার সাত দিন আগে তা পরিশোধের বিধান রয়েছে আরপিও’তে। এই অসঙ্গতি দূর করার উদ্যোগ নিয়েছি। এ সংশোধনীর প্রস্তাব আগেই আইন মন্ত্রণালয়ে পাঠিয়েছিলাম। তখন এসব সংশোধন না হওয়ায় আবারও পাঠানোর উদ্যোগ নিয়েছি। রাজনৈতিক দলের কমিটিতে ৩৩ শতাংশ নারী সদস্য রাখার সময় ১০ বছর বাড়ানোর প্রস্তাবের বিষয়ে তিনি বলেন, বাস্তবতার আলোকেই এ প্রস্তাব করা হচ্ছে।
২০০৮ সালে গণপ্রতিনিধিত্ব অধ্যাদেশে মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার আগের ছয় মাস মধ্যে কেউ ঋণ বা বিল খেলাপি হলে তিনি প্রার্থী হওয়ার অযোগ্য হতেন। পরে তা সংশোধন করে ছয় মাস থেকে কমিয়ে ১৫ দিন করা হয়। এরপর আবার সংশোধনী এনে সাত দিন। এখন আগের দিন পরিশোধ করলেই প্রার্থী হওয়ার সুযোগ দেওয়া হচ্ছে।

জানা গেছে, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে বড় অঙ্কের ঋণ খেলাপিদের প্রার্থী হওয়ার শর্ত শিথিল করা হয়। ওই সময় মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার সাত দিন আগে খেলাপি ঋণ পরিশোধ না করলে প্রার্থিতা বাতিল হবে বলে সংশোধন করা হয়। মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার আগের দিন খেলাপি ঋণ পরিশোধ করলেই প্রার্থী বৈধ হওয়ার সুযোগ দেওয়া হয়। তবে ক্ষুদ্র ঋণ এবং টেলিফোন, বিদ্যুৎ, পানি ও সেবা খাতের বিল খেলাপিদের মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার সাত দিন আগে তা পরিশোধ না করলে প্রার্থিতা বাতিল হওয়ার বিধান থেকে যায়। এবার তা সংশোধনের উদ্যোগ নেওয়া হলো।

জানা গেছে, আরপিও’র যোগ্যতা-অযোগ্যতা সংক্রান্ত ধারা ১২(১) এ এসব সংশোধনী আনা হচ্ছে। ১২(১) অনুচ্ছেদের ‘ঠ’ সংশোধন করে কৃষি খাতে নেওয়া খেলাপি ক্ষুদ্র ঋণ এবং ‘ড’ সংশোধন করে সরকারি সেবা খাতের খেলাপি বিল পরিশোধের পরদিনই মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার সুযোগ দেওয়া হচ্ছে। এ ছাড়া ১২(৩ক) (গ) অনুচ্ছেদে ১২ ডিজিটের টিআইএনের সনদের কপি প্রার্থী হওয়ার সময় জমা দেওয়া বাধ্যতামূলক করা হচ্ছে। ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) ছাড়া অন্য সব নির্বাচনের আইনে টিআইএনের সনদের কপি জমা দেওয়া বাধ্যতামূলক রয়েছে।

এ ছাড়া আরপিও’র ২৭(১) ধারায় প্রতিবন্ধী ও বয়সী ভোটারদের ভোট দেওয়ার সুবিধার্থে পোস্টাল ব্যালট ব্যবহারের সুযোগ দেওয়ার প্রস্তাব করা হয়েছে।

আরপিও’র ৯০(খ) (১) ধারা সংশোধন করে রাজনৈতিক দলের প্রতিটি কমিটিতে ৩৩ শতাংশ নারী সদস্য রাখার শর্ত পূরণের সময়সীমা ২০৩০ সাল করার প্রস্তাব করছে ইসি। কোনও নিবন্ধিত রাজনৈতিক দল এ শর্ত পূরণ করতে সক্ষম না হওয়ায় এ ধারা সংশোধনী প্রাথমিক অনুমোদন করেছে ইসি। এ ছাড়া আরও কয়েকটি ধারায় সংশোধনী আনছে ইসি।

/এমএস/

সম্পর্কিত

মেয়র হানিফের পঞ্চদশ মৃত্যুবার্ষিকী আজ

মেয়র হানিফের পঞ্চদশ মৃত্যুবার্ষিকী আজ

‘নারীর ক্ষমতায়ন হয়েছে, সম-অবস্থান হয়নি’

‘নারীর ক্ষমতায়ন হয়েছে, সম-অবস্থান হয়নি’

‘চেষ্টা করলে বুড়িগঙ্গাকেও বাঁচাতে পারবো’

‘চেষ্টা করলে বুড়িগঙ্গাকেও বাঁচাতে পারবো’

‘অবৈধ দখল উচ্ছেদ করে নদী-খাল-জলাধার ফিরিয়ে আনা হবে’

‘অবৈধ দখল উচ্ছেদ করে নদী-খাল-জলাধার ফিরিয়ে আনা হবে’

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

মেয়র হানিফের পঞ্চদশ মৃত্যুবার্ষিকী আজ

মেয়র হানিফের পঞ্চদশ মৃত্যুবার্ষিকী আজ

‘নারীর ক্ষমতায়ন হয়েছে, সম-অবস্থান হয়নি’

‘নারীর ক্ষমতায়ন হয়েছে, সম-অবস্থান হয়নি’

‘চেষ্টা করলে বুড়িগঙ্গাকেও বাঁচাতে পারবো’

নদী উৎসব ২০২১‘চেষ্টা করলে বুড়িগঙ্গাকেও বাঁচাতে পারবো’

‘অবৈধ দখল উচ্ছেদ করে নদী-খাল-জলাধার ফিরিয়ে আনা হবে’

‘অবৈধ দখল উচ্ছেদ করে নদী-খাল-জলাধার ফিরিয়ে আনা হবে’

ইউএস-বাংলার বিমান বহরে যুক্ত হলো আরও দুটি বোয়িং ৭৩৭-৮০০

ইউএস-বাংলার বিমান বহরে যুক্ত হলো আরও দুটি বোয়িং ৭৩৭-৮০০

একটি ভালো কাজ করলেই বিনামূল্যে খাবার

একটি ভালো কাজ করলেই বিনামূল্যে খাবার

প্রাণী ও বন রক্ষায় একজোট ২৭ পরিবেশবাদী সংগঠন

প্রাণী ও বন রক্ষায় একজোট ২৭ পরিবেশবাদী সংগঠন

ছুড়ে ফেললেও বেঁচে আছে নবজাতকটি!

ছুড়ে ফেললেও বেঁচে আছে নবজাতকটি!

আহসান কবিরকে চাপা দেওয়া ডিএনসিসির গাড়িচালক গ্রেফতার

আহসান কবিরকে চাপা দেওয়া ডিএনসিসির গাড়িচালক গ্রেফতার

শহীদ ডা. মিলন দিবস শনিবার

শহীদ ডা. মিলন দিবস শনিবার

সর্বশেষ

তৃতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচনে ভোটগ্রহণ শুরু

তৃতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচনে ভোটগ্রহণ শুরু

বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে দেশ পুনর্গঠনে অগ্রগতির প্রশংসা ব্রিটিশ সংসদীয় দলের

বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে দেশ পুনর্গঠনে অগ্রগতির প্রশংসা ব্রিটিশ সংসদীয় দলের

মেয়র হানিফের পঞ্চদশ মৃত্যুবার্ষিকী আজ

মেয়র হানিফের পঞ্চদশ মৃত্যুবার্ষিকী আজ

নারায়ণগঞ্জে আগুনের ঘটনায় আরও একজনের মৃত্যু

নারায়ণগঞ্জে আগুনের ঘটনায় আরও একজনের মৃত্যু

শেষ মুহূর্তের দুই গোলে ভিয়ারিয়ালকে হারালো বার্সেলোনা

শেষ মুহূর্তের দুই গোলে ভিয়ারিয়ালকে হারালো বার্সেলোনা

© 2021 Bangla Tribune