X
বুধবার, ০৬ জুলাই ২০২২
২২ আষাঢ় ১৪২৯

বেগমগঞ্জে গৃহবধূকে নির্যাতন: বাদীর জবানবন্দি গ্রহণ শেষ

আপডেট : ২৩ আগস্ট ২০২১, ১৯:৩১

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে রাতের আঁধারে বসতঘরে ঢুকে গৃহবধূকে (৩৫) ধর্ষণচেষ্টা চালিয়ে ব্যর্থ হয়ে বিবস্ত্র করে নির্যাতন এবং সেই দৃশ্য ভিডিও করার ঘটনায় আদালতে বাদীর জবানবন্দি শেষ হয়েছে। সোমবার (২৩ আগস্ট) বেলা ১১টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত এ মামলার বাদী ওই গৃহবধূর জবানবন্দি গ্রহণ করা হয়। নোয়াখালীর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-১-এর বিচারক জয়নাল আবেদীন জবানবন্দি গ্রহণ করেন।

এর আগে গত বৃহস্পতিবার একই আদালতে বাদীর সাক্ষ্য গ্রহণ করা হয়।

রাষ্ট্রপক্ষের পিপি মামুনুর রশিদ লাবলু জবানবন্দি গ্রহণ শেষ হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ‘বাদীর জবানবন্দি গ্রহণকালে আদালতে মামলার চার্জশিটভুক্ত ১৩ আসামির মধ্যে নয় জন উপস্থিত ছিলেন।’

মামলায় তদন্তকারী সংস্থা পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) ১৩ জন আসামির বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে। তাদের মধ্যে নয় জন গ্রেফতার ও চার জন পলাতক রয়েছে।

উল্লেখ্য, ২০২০ সালের ২ সেপ্টেম্বর রাতে বাদীর স্বামীকে বেঁধে রেখে তাকে ধর্ষণচেষ্টা চালিয়ে ব্যর্থ হয়ে বিবস্ত্র করে নির্যাতন এবং সেই দৃশ্য ভিডিও করে দেলোয়ার বাহিনীর প্রধান দেলোয়ার হোসেন ও তার লোকজন। পরে ওই ভিডিও ফেসবুকে ছড়িয়ে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে ওই নারীকে কুপ্রস্তাব দেয় তারা। এতে ওই গৃহবধূ রাজি না হওয়ায় অভিযুক্তরা ৪ অক্টোবর ওই ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে দেয় এবং মুহূর্তের মধ্যে তা ভাইরাল হয়ে পড়ে। ভিডিও ভাইরাল হওয়ার পর দেশব্যাপী সমালোচনার ঝড় বয়ে যায়। ৪ অক্টোবর রাতে ওই গৃহবধূ বাদী হয়ে বেগমগঞ্জ মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন।

শুনানিকালে আদালতে উপস্থিত ছিলেন– জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের নৃ-বিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ও লেখিকা রেহনুমা আহমেদ, নারীনেত্রী তাসলিমা আক্তার ও আফসানা নীলা।

/এমএএ/
বাংলা ট্রিবিউনের সর্বশেষ
গোপনে সিল মারা টিকিয়ে রাখতে ইভিএমে বিএনপির ভয়: তথ্যমন্ত্রী
গোপনে সিল মারা টিকিয়ে রাখতে ইভিএমে বিএনপির ভয়: তথ্যমন্ত্রী
পায়ুপথে বাতাস দেওয়ায় কিশোর শ্রমিক আহত
পায়ুপথে বাতাস দেওয়ায় কিশোর শ্রমিক আহত
লুইপার অভিষেক, এবারও সঙ্গী জীবন
লুইপার অভিষেক, এবারও সঙ্গী জীবন
সুপ্রিম কোর্টে কর্মরতদের হাজিরা ইলেক্ট্রনিক পদ্ধতিতে
সুপ্রিম কোর্টে কর্মরতদের হাজিরা ইলেক্ট্রনিক পদ্ধতিতে
এ বিভাগের সর্বশেষ
সীতাকুণ্ডে অগ্নিকাণ্ডের জন্য মালিকপক্ষ দায়ী
সীতাকুণ্ডে অগ্নিকাণ্ডের জন্য মালিকপক্ষ দায়ী
একটি পুরনো মোবাইলের জন্য যুবককে হত্যা, মায়ের কান্না
একটি পুরনো মোবাইলের জন্য যুবককে হত্যা, মায়ের কান্না
পদ্মা সেতুর আদলে হবে নতুন কালুরঘাট সেতু
পদ্মা সেতুর আদলে হবে নতুন কালুরঘাট সেতু
সীতাকুণ্ডে আগুন: মিললো আরও এক দেহাবশেষ
সীতাকুণ্ডে আগুন: মিললো আরও এক দেহাবশেষ
কোরবানির পশুতে পূর্ণ চাঁদপুরের হাট
কোরবানির পশুতে পূর্ণ চাঁদপুরের হাট