হিলিতে জলাবদ্ধতা, ভোগান্তিতে এলাকাবাসী

Send
হিলি প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১১:৫১, জুলাই ০৪, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ০১:২৪, জুলাই ০৬, ২০২০

হিলি পাবলিক স্কুল মাঠে পানি জমেছেদিনাজপুরের হিলিতে টানা বৃষ্টিপাত এবং ভারত থেকে নেমে আসা ঢলে স্কুল, কলেজসহ নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে। এতে করে চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন ওইসব এলাকার বাসিন্দারা।

গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টা থেকে রাত ১১টা পর্যন্ত টানা বৃষ্টিপাত হয়। এর পরও থেমে থেমে বৃষ্টিপাত অব্যাহত থাকে। এতে করে হাকিমপুর সরকারি ডিগ্রি কলেজসহ ওই এলাকায় হাঁটুপানি জমে যায়। একইভাবে চণ্ডিপুরের কিছু এলাকার সড়কে পানি জমে যান চলাচল বিঘ্নিত হচ্ছে।

হিলির প্লাবিত এলাকাকলেজ এলাকার বাসিন্দা রানা মুন্সি ও চন্দনা বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, 'আমরা চরম বিপদের মধ্যে রয়েছি। ড্রেন না থাকার কারণে সামান্য বৃষ্টি হলেই পানিতে বাড়ির আশপাশের এলাকা তলিয়ে যায়। এক রাতের বৃষ্টিতেই একেবারে বন্যার মতো অবস্থা তৈরি হয়েছে। কলেজসহ আমাদের বাড়িঘরের এসব এলাকায় হাঁটু পানি জমে গেছে। বাড়ির সামনে পানি জমে পুকুরের মতো অবস্থা হয়ে গেছে। বাড়িতে যাওয়ার কোনও উপায় নেই। পানিতে কাপড় চোপড় সব নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। কাজেও যেতে পারি না। এই দুর্বিষহ যন্ত্রণা থেকে মুক্তি চাই।'

পানিতে তলিয়ে আছে রাস্তাহাকিমপুর (হিলি) পৌরসভার মেয়র জামিল হোসেন চলন্ত বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘জলাবদ্ধতা নিরসনের জন্য বর্ষা মৌসুমের আগেই হিলির বিভিন্ন এলাকার ড্রেন পরিষ্কার করা হয়েছে। তবে ওই অঞ্চলে জলাবদ্ধতা সৃষ্টির মূল কারণ—ভারত থেকে নেমে আসা পানি। এ বিষয়ে জনগণের ভোগান্তি নিরসনে প্রকল্পের আবেদন করা হয়েছে। প্রকল্প পাশ হলে কাজ শুরু হবে, তবে বর্তমানে  ড্রেনগুলো পরিষ্কার করে যতটা জলাবদ্ধতা কমানো যায়, সেই চষ্টা করছি। হিলি স্থলবন্দরের চারমাথা থেকে শুরু করে যে ড্রেনটি নির্মাণ করা হয়েছে, তার কিছু অংশ এখনও বাকি রয়েছে। বাকি অংশটুকু নির্মাণ না হওয়া পর্যন্ত দুর্ভোগ পোহাতে হবে।’

/আইএ/

লাইভ

টপ