X
সোমবার, ২৭ জুন ২০২২
১৩ আষাঢ় ১৪২৯

আরবি বিশ্ববিদ্যালয়ে দুর্নীতি, তদন্ত প্রতিবেদন আগামী সপ্তাহে

আপডেট : ২২ জুন ২০২২, ১৮:৫৩

ইসলামি আরবি বিশ্ববিদ্যালয়ে উপাচার্য অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ আহসান উল্লাহ’র বিরুদ্ধে নানা অনিয়ম-দুর্নীতির তদন্ত প্রতিবেদন আগামী সপ্তাহে মন্ত্রণালয়ে জমা দেওয়া হবে। ইউজিসি সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

জানতে চাইলে  বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের (ইউজিসি) সদস্য তদন্ত কমিটির আহ্বায়ক অধ্যাপক ড. বিশ্বজিৎ চন্দ বলেন, তদন্ত শেষ পর্যায়ে। খুব শিগগিরই প্রতিবেদন জমা দেওয়া হবে। আগামী সপ্তাহের মধ্যে জমা দেওয়া হতে পারে বলেও জানান তিনি।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে,  ইসলামি আরবি বিশ্ববিদ্যালয়ে উপাচার্য অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ আহসান উল্লাহ’র বিরুদ্ধে অভিযোগ জমা হয় শিক্ষা মন্ত্রণালয় ও ইউজিসিতে। এসব অভিযোগ আমলে নিয়ে মন্ত্রণালয়ের নির্দেশে কিছুদিন আগে তদন্ত শুরু করে ইউজিসি।

২০১৫ সালের ৪ জানুয়ারি ইসলামী আরবি বিশ্ববিদ্যালয়ে উপাচার্য পদে যোগদান করেন অধ্যাপক মুহাম্মদ আহসান উল্লাহ। ২০১৯ সালের জানুয়ারিতে মেয়াদ শেষ হলে সরকার দ্বিতীয় দফায় তাকে উপাচার্য হিসেবে নিয়োগ দেয়। দ্বিতীয় মেয়াদে নিয়োগ পাওয়ার পর ড. মুহাম্মদ আহসান উল্লাহ’র বিরুদ্ধে একের পর এক অনিয়মের অভিযোগ ওঠে।

নিয়োগ বাণিজ্য, নিয়োগে মেধাতালিকা ম্যানিপুলেট করা, সিন্ডিকেট সদস্যদের সন্তানদের চাকরি দিয়ে যোগসাজশ করে বিভিন্ন অবৈধ সিদ্ধান্ত নেওয়াসহ অনেক অভিযোগ রয়েছে তার বিরুদ্ধে।

আরবি বিশ্ববিদ্যালয়ের অনিয়মের বিষয় তুলে ধরে গত বছরের নভেম্বরে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের সচিবের কাছে চিঠি দেন শিক্ষা মন্ত্রণালয় মনোনীত আরবি বিশ্ববিদ্যালয়ের সিন্ডিকেট সদস্য মো. হাসানুল ইসলাম।

চিঠিতে আরেক সিন্ডিকেট সদস্যের বরাত দিয়ে মো. হাসানুল ইসলাম বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক, কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের নিয়োগ ও চাকরি স্থায়ী করার বিষয়টি সভায় এজেন্ডাভুক্ত করা হয়। কিন্তু এ নিয়োগ নিয়ে বিভিন্ন অনিয়মের অভিযোগ রয়েছে। নিয়োগে কোনও মেধা তালিকা মানা হয়নি। মেধা তালিকায় প্রথমদিকে থাকা অনেকের নাম তালিকায় নিচের দিকে রাখা হয়েছে।

মেধাতালিকা অবৈধভাবে ম্যানিপুলেট করার অভিযোগ আনেন এ সদস্য। চিঠিতে তিনি আরও জানান, বেশ কয়েক সিন্ডিকেট সদস্যের সন্তান এ বিশ্ববিদ্যালয়ে চাকরি পেয়েছেন। কারও কারও ছেলে, মেয়েসহ আত্মীয়-স্বজনও চাকরি পেয়েছেন।

হাসানুল ইসলাম মন্ত্রণালয়ে পাঠানো চিঠিতে বলেন, সিন্ডিকেটের কতিপয় সদস্যের যোগসাজশে উপাচার্য নিয়োগ ও চাকরি স্থায়ীকরণ সংক্রান্ত বিভিন্ন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন, যা অবৈধ।

/এসএমএ/এমআর/
বাংলা ট্রিবিউনের সর্বশেষ
বিদ্যালয়ের আবাসিক ভবনে ছাত্রের লাশ: ২ শিক্ষক আটক
বিদ্যালয়ের আবাসিক ভবনে ছাত্রের লাশ: ২ শিক্ষক আটক
কেকের মৃত্যুর পর নজরুল মঞ্চে গাইলেন সনু
কেকের মৃত্যুর পর নজরুল মঞ্চে গাইলেন সনু
ঈদের পোশাক নিয়ে এসেছে ‘সারা’
ঈদের পোশাক নিয়ে এসেছে ‘সারা’
টিভিতে আজ
টিভিতে আজ
এ বিভাগের সর্বশেষ
ঢাবি খ ইউনিটে ভর্তি পরীক্ষার ফল সোমবার
ঢাবি খ ইউনিটে ভর্তি পরীক্ষার ফল সোমবার
বছরে ২ সেমিস্টার, উদ্বেগে শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা
বছরে ২ সেমিস্টার, উদ্বেগে শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা
শিক্ষা মন্ত্রণালয় ও ইউজিসি’র মধ্যে এপিএ চুক্তি সই
শিক্ষা মন্ত্রণালয় ও ইউজিসি’র মধ্যে এপিএ চুক্তি সই
সেবা নিতে এসে একজনও যেন বিমুখ না হন: শিক্ষামন্ত্রী
সেবা নিতে এসে একজনও যেন বিমুখ না হন: শিক্ষামন্ত্রী
করোনায় স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার পরামর্শ ইউজিসির
করোনায় স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার পরামর্শ ইউজিসির