X
বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০২৪
৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

অস্কার কোয়ালিফাইং উৎসবে বাংলাদেশের পতাকা এবং...

বিনোদন রিপোর্ট
১১ মার্চ ২০২৪, ২০:২৪আপডেট : ১১ মার্চ ২০২৪, ২০:৪৮

কানাডার হ্যামিল্টন ও সিলভার ওয়েভের পর হলিউডের অস্কার কোয়ালিফাইং উৎসব ‘সিনেকুয়েস্ট ফিল্ম অ্যান্ড ভিআর ফেস্টিভ্যাল’-এ একমাত্র বাংলাদেশী স্বল্পদৈর্ঘ্য হিসেবে অফিসিয়াল সিলেকশন পেয়েছে শাহনেওয়াজ খান সিজু নির্মিত ওয়ান শট ফিল্ম ‘নট আ ফিকশন’।

গত ৮ মার্চ স্থানীয় সময় বিকাল ৪টা ৪৫ মিনিটে ক্যালিফোর্নিয়া রাজ্যের স্যান হোসে শহরের হ্যামার থিয়েটার সেন্টারে ইউএস প্রিমিয়ার হলো ছবিটির।
 
এ উৎসবে নিজের প্রথম স্বল্পদৈর্ঘ্য সিনেমার প্রদর্শনী শেষে সঞ্চালকের আমন্ত্রণে মঞ্চে ওঠেন নির্মাতা সিজু। এরপর প্রশ্নের জবাবে সিনেমা নিয়ে কথা বলা শেষে পুরো হল ভর্তি দর্শকদের সামনে বাংলাদেশের লাল সবুজ পতাকা মেলে ধরেন তিনি। এসময় উপস্থিত সিনে-দুনিয়ার দর্শকদের করতালিতে মুখর হয়ে ওঠে পুরো থিয়েটার।
 
নিজের সিনেমার ইউএস প্রিমিয়ার প্রসঙ্গে নির্মাতা সিজু বলেন, ‘‘হলিউডের অস্কার কোয়ালিফাইং এই উৎসবের ২য় দিনে আয়োজিত ‘শর্টস প্রোগ্রাম ওয়ান’-এ জায়গা করে নিয়েছে আমাদের সিনেমাটি। প্রিমিয়ার শেষে নানান দেশের নির্মাতা, কলাকুশলী এবং দর্শকেরা প্রশংসা করেছেন। মাত্র ১০০ ডলারেরও কম বাজেটে নির্মিত ওয়ান শট এই সিনেমাটি নিয়ে দর্শক-সমালোচকদের এমন আগ্রহ আমাকে মুগ্ধ করেছে।’’ 

বলা দরকার, সিনেকুয়েস্টের এবারের আসরে একমাত্র ওয়ান শট ফিল্ম হিসেবে জায়গা করে নিয়েছে বাংলাদেশের এই স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রটি।

এবারের উৎসবে অংশ নিয়েছেন ৪৫টি দেশের নির্মাতা ও কলাকুশলীরা। শুধুমাত্র স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র শাখায় অস্কার কোয়ালিফাইং এই উৎসবের প্রথম স্লটে সিজুর সিনেমা জায়গা করে নেওয়ার পরে প্রশ্নোত্তর পর্বে সঞ্চালক তাকে জিজ্ঞেস করেন, পুরো সিনেমাটি ঠিক কী কারণে গাছের দৃষ্টিভঙ্গিতে নির্মাণ করলেন তিনি? জবাবে নির্মাতা জানান, বাজেটের অভাবে এমনটা করেছেন তিনি। কেননা মূল সিনেমায় একটা জিপ গাড়ির প্রয়োজন ছিলো, কিন্তু শুটিং এর সময়ে এই গাড়ির বাজেট ছিলো না তার কাছে। তাই তিনি পুরো ব্যাপারটা ভিজ্যুয়ালি না দেখিয়ে শুধুমাত্র সাউন্ড ডিজাইনের মাধ্যমে বাস্তবায়নের পরিকল্পনা করেন।

বাংলাদেশের পতাকা হাতে সিজু আরও জানান, বাজেট ও যোগাযোগের অভাবে প্রায় ২ বছর রাশ ফুটেজ নিজের ল্যাপটপেই ফেলে রাখেন নির্মাতা। এরপর সহযোগিতা পান সাউন্ড ডিজাইনার রিপন নাথ এবং রনি সাজ্জাদের। তারা বিনামূল্যেই শেষ করে দেন বাকি কাজটি। এছাড়া এডিট এর কাজ করেন লিওন রোজারিও এবং কালার করেন রাশেদুজ্জামান সোহাগ।
 
সিলিকন ভ্যালির প্রাণকেন্দ্রে চলমান এই উৎসবের ‘বেস্ট ড্রামাটিক শর্টস’ বিভাগে ‘নট আ ফিকশন’-এর প্রিমিয়ার শোয়ের পর সবাই বেশ আগ্রহী হয়ে উঠেছেন ছবিটি নিয়ে। 

আগামী ১৭ মার্চ রাত ৯টায় শহরের প্রাণকেন্দ্রে অবস্থিত ক্যালিফোর্নিয়া থিয়েটার সেন্টারে উৎসবের পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান আয়োজিত হতে যাচ্ছে। এতে বাংলাদেশের সিনেমাটি পুরস্কৃত হলে সরাসরি কোয়ালিফাই করবে পৃথিবীর সবচাইতে বড় উৎসব অস্কারের সামনের আসরে।

বলা দরকার, সিজুর সঙ্গে এই ছবির সহ-প্রযোজক হিসেবে কাজ করছেন চিত্রনাট্যকার, সাংবাদিক এবং গোল্ডেন গ্লোবসের ভোটার সাদিয়া খালিদ রীতি।

/এমএম/
সম্পর্কিত
বিনোদন বিভাগের সর্বশেষ
শাহরুখ খানের অসুস্থতা নিয়ে যা জানা গেলো
শাহরুখ খানের অসুস্থতা নিয়ে যা জানা গেলো
‘বরযাত্রী’ নিয়ে আসছেন তৌসিফ-তিশা
‘বরযাত্রী’ নিয়ে আসছেন তৌসিফ-তিশা
নিপুণের ‘শাস্তি চেয়ে’ এফডিসিতে মিছিল
নিপুণের ‘শাস্তি চেয়ে’ এফডিসিতে মিছিল
কান সৈকতে জয়ার প্রশংসায় টলিউডের মুমতাজ
কান সৈকতে জয়ার প্রশংসায় টলিউডের মুমতাজ
‘ভুল বোঝাবুঝি’তে শেষ কাশ্যপ-মনোজের সম্পর্ক!
‘ভুল বোঝাবুঝি’তে শেষ কাশ্যপ-মনোজের সম্পর্ক!