বিশ বিশেষনিজেকে সিনেমার জন্য উৎসর্গ করলাম

Send
ইমরান, সংগীতশিল্পী
প্রকাশিত : ১৬:২৯, জানুয়ারি ০১, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ০০:২৫, জানুয়ারি ০২, ২০২০

নানা চড়াই-উতরাইয়ের মধ্য দিয়ে দশ-এর দশক শেষ হলো (২০১০-২০১৯)। সাংস্কৃতিক অঙ্গনের জন্য এটি মূলত শূন্যতার দশক। দশে ধ্স—এভাবেও বলছেন কেউ কেউ। তবে শুরু হওয়া নতুন বছর কিংবা বিশ দশক (২০২০-২০২৯) নিয়ে প্রত্যাশার গল্পও শোনাচ্ছেন অনেকে।
বিশে বিষক্ষয়—এভাবেও মূল্যায়ন করছেন কেউ কেউ। আবার এমনও অনেকে আছেন, যাদের কণ্ঠে হতাশার সুর। বলছেন—দশক কিংবা নতুন বছর বলে কথা নয়। ক্যালেন্ডার বদলালেও কাজের পার্থক্য ১৯/২০! মানে সামান্যই।

‘দশে ধ্স’ আর ‘বিশে বিষক্ষয়’ অথবা ‘১৯/২০’ বিষয়ে সংস্কৃতির বিভিন্ন বিভাগের উল্লেখযোগ্য শিল্পীরা নিজেদের পর্যালোচনা তুলে ধরলেন বাংলা ট্রিবিউন-এর বিশেষ এই আয়োজনে।

ইমরান মাহমুদুলএটা সত্যি, শেষ বছরে (২০১৯) অডিও গানের প্রভাব তেমন ছিল না। গানের বাজার থমকে ছিল অনেকটাই। আবার সিনেমার অবস্থাও ছিল বেশ খারাপ। মোট মিলিয়ে সংগীতাঙ্গনে এর প্রভাব পড়েছে।
তবে আমি যে গানগুলো করেছি, সেগুলো থেকে আশানুরূপ সাড়া পেয়েছি। ব্যক্তিগত হিসাবের জায়গায়, আমি সন্তুষ্ট। এটাও তো ঠিক, ইন্ডাস্ট্রি আরও স্থির থাকলে আমার কাজের সংখ্যা ও সফলতা নিশ্চয়ই আরও বাড়তো।
তবে বছরজুড়ে আমি আমার মতো চেষ্টা করেছি নানামাত্রিক গান তৈরির। নিজের জন্য গান করেছি, অন্যের জন্য করেছি। আবার অন্যদের সুরেও গেয়েছি। সঙ্গে দেশ-বিদেশের স্টেজ শো’র ব্যস্ততা তো ছিলোই। তাই বছর শেষে আমি হ্যাপি।
গেল বছর ‘আমার কাছে তুমি অন্যরকম’ গানটি খুবই হিট করেছে। অফট্র্যাকের কাজও করেছি। সেগুলোর জন্য প্রশংসা পেয়েছি। বাট মানুষের তো প্রত্যাশার শেষ নেই, ভালোরও শেষ নেই।
আমার কেন জানি বারবার মনে হয়, ২০২০ সাল হবে বাংলাদেশের ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির জন্য একটা বিপ্লবের বছর। অডিও ইন্ডাস্ট্রি কোনদিকে যাবে, সেটা এখনও অনুমান করতে পারছি না। তবে ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি বদলালে সংগীতেরও বদল হবে- এটুকু বিশ্বাস আমার আছে।
২০ সাল শুরুর আগে থেকেই অনেক ভালো ছবি নির্মাণের আভাস পাচ্ছিলাম। এরমধ্যে গেল বছর শেষে ‘বিশ্বসুন্দরী’র জন্য আমার ‘তুই কি আমার হবি রে’ গানটি থেকে অসাধারণ সাড়া পেয়েছি। বলতে পারেন ২০১৯ সালের শেষ শান্তিটুকু পাই এই গানটির মাধ্যমে। এ বছর (২০২০) ‘বিশ্বসুন্দরী’ ছাড়াও এমন অনেক ভালো মানের ছবি মুক্তি পাবে। আশায় বুক বাঁধলাম।
২০২০ সালে এসে নিজেকে সিনেমার জন্য উৎসর্গ করলাম। এই বছরে সিনেমায় প্রচুর কাজ করতে চাই।
শেষ কথা, ভালো-খারাপ সবসময়ই থাকবে। জানি, শেষ বিচারে ভালোটাই বেরিয়ে আসবে। সব সময় ভালোর কদর হোক, এটাই প্রত্যাশা করি।
শুভ নববর্ষ।
শ্রুতিলিখন: মাহমুদ মানজুর

/এমএম/এমওএফ/

লাইভ

টপ