জায়েদকে কারণ দর্শানোর চিঠি, খোয়াতে পারেন সদস্যপদ

Send
বিনোদন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ২০:৩৯, জুলাই ১৩, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ২০:১৬, জুলাই ১৪, ২০২০

জায়েদ খানচিত্রনায়ক জায়েদ খান বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির সাধারণ সম্পাদক। পাশাপাশি ছবি প্রযোজনা করায় সদস্য হিসেবে আছেন বাংলাদেশ চলচ্চিত্র প্রযোজক পরিবেশক সমিতিতেও।
প্রযোজক পরিবেশক সমিতি জায়েদ খানের বিরুদ্ধে ‘সংগঠনের স্বার্থবিরোধী কর্মকাণ্ডের’ অভিযোগ পেয়েছে। বিষয়টি একাধিকবার সামনে আসায় সমিতির পক্ষ থেকে তার বিরুদ্ধে পাঠানো হয়েছে কারণ দর্শানোর নোটিশ। অন্যদিকে প্রযোজক সমিতি জানাচ্ছে, আশানুরূপ বক্তব্য না পেলে, অভিযোগ প্রমাণিত হিসেবে ধরা হবে। যার ফলে সংগঠন বিরোধী অপরাধে খোয়াতে পারেন সদস্যপদও।
জানা যায়, আজ (১৩ জুলাই) জায়েদ খানকে কারণ দর্শানোর নোটিশ পাঠানো হয়েছে।

এতে উল্লেখ করা হয়, ‌‘চলচ্চিত্র নির্মাণে শৃঙ্খলা আনতে ও নির্মাণ ব্যয় কমাতে গত অক্টোবরে একটি নীতিমালা প্রণয়ন করেছে সমিতি। এটি বাস্তবায়ন হলে চলচ্চিত্র নির্মাণে ন্যূনতম ১৫ লাখ টাকা কমে যাবে। কিন্তু এই কাজে অসহযোগিতা করতে জায়েদ বিভিন্ন শিল্পীকে উৎসাহিত করছেন। এমনকী ‍মুঠোফোনে এসএমএস পাঠিয়ে তিনি এটা করছেন।’

এদিকে নোটিশ পাঠানোর বিষয়টি নিশ্চিত করে প্রযোজক পরিবেশক সমিতির সভাপতি খোরশেদ আলম খসরু বলেন, ‘গত ৭ মার্চ কার্যনির্বাহী পরিষদের ৭ম সভায় তাকে কারণ দর্শানো নোটিশ পাঠানোর সিদ্ধান্ত সর্বসম্মতিক্রমে গৃহীত হয়েছে। তার বিরুদ্ধে সংগঠনের স্বার্থের বিপক্ষে অবস্থান নেওয়ার অভিযোগ এসেছে।’নোটিশ
বিষয়টি নিয়ে আগামীকালও বেশ কয়েকটি সমিতি বৈঠক করবে বলে জানা গেছে। তবে এতে থাকছে না শিল্পী সমিতির কেউ।

উল্লেখ্য, ২০০৮ সালে মোহাম্মদ হান্নানের ‘ভালোবাসা ভালোবাসা’ চলচ্চিত্রের মধ্য দিয়ে অভিষেক হয় জায়েদের। ২০১৭ সালে তিনি নিজেই প্রযোজনায় আসেন। তৈরি করেন ‘অন্তরজ্বালা’ ছবি। পাশাপাশি টানা দুই মেয়াদে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন জায়েদ।

/এম/

লাইভ

টপ