অভিশসংন প্রক্রিয়া সংবিধানবিরোধী: ট্রাম্প

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ০৩:৫৭, জানুয়ারি ২১, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ০৪:০০, জানুয়ারি ২১, ২০২০

নিজের অভিশসংন প্রক্রিয়াকে সংবিধানবিরোধী বলে আখ্যায়িত করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। মঙ্গলবার থেকে মার্কিন কংগ্রেসের উচ্চকক্ষ সিনেটে ট্রাম্পের বিরুদ্ধে এ সংক্রান্ত অভিযোগের শুনানি শুরুর কথা রয়েছে। তার একদিন আগে সোমবার এক ব্রিফিংয়ে পুরো বিষয়টির সাংবিধানিক বৈধতা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন তিনি। এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে যুক্তরাজ্যভিত্তিক সংবাদমাধ্যম রয়টার্স।
এর আগে মার্কিন পার্লামেন্টের নিম্নকক্ষ প্রতিনিধি পরিষদ ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিশংসন বিল পাস করে। সেখানে ২২৮-১৯৩ ভোটে বিলটি পাস হওয়ার পর মঙ্গলবার এটি সিনেটে উঠতে যাচ্ছে। তবে ট্রাম্পের দাবি, বিরোধী দল ডেমোক্র্যাটিক পার্টি নিয়ন্ত্রিত প্রতিনিধি পরিষদে পাস হওয়া বিলটি অসাংবিধানিক। তাকে ক্ষমতাচ্যুত করতে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত হয়ে তারা পার্লামেন্টে এ সংক্রান্ত বিল উত্থাপন করেছে।

সিনেটে অবশ্য ট্রাম্পের বিপাকে পড়ার আশঙ্কা খুবই কম। কারণ সেখানে ক্ষমতাসীন দল রিপাবলিকান পার্টি সংখ্যাগরিষ্ঠ। তারা ইতোমধ্যেই অভিশংসনের বিপক্ষে দাঁড়ানোর ইঙ্গিত দিয়েছে।

এদিকে ট্রাম্পের বিরুদ্ধে উত্থাপিত অভিশংসনের অভিযোগগুলোকে গণতন্ত্রের ওপর ‘বিপজ্জনক আক্রমণ’ বলে অভিহিত করেছেন তার আইনজীবীরা। তাদের দাবি, মামলায় বাদীপক্ষ প্রেসিডেন্টের বিরুদ্ধে অপরাধের সুস্পষ্ট অভিযোগ আনতে ব্যর্থ হয়েছে। অভিশংসন প্রক্রিয়াকে এ বছরের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে হস্তক্ষেপের ‘নির্লজ্জ’ প্রচেষ্টা হিসেবে আখ্যা দিয়েছে তারা।

যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে ট্রাম্প হচ্ছেন তৃতীয় প্রেসিডেন্ট, যাকে অভিশংসন নিয়ে সিনেটে বিচারের মুখোমুখি হতে হচ্ছে। তার বিরুদ্ধে ক্ষমতার অপব্যবহার ও কংগ্রেসের কাজে বাধা দেওয়ার অভিযোগ এনেছে ডেমোক্র্যাট নিয়ন্ত্রিত প্রতিনিধি পরিষদ। ট্রাম্প অবশ্য শুরু থেকেই কোনও ধরনের অন্যায়ে জড়িত থাকার কথা অস্বীকার করে আসছেন। অভিশংসন মামলাকে ‘ধাপ্পাবাজি’ অ্যাখ্যা দিয়েছেন তিনি।

/এমপি/

লাইভ

টপ