হু হু করে বাড়ছে ভারতে আক্রান্তের সংখ্যা

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ২০:৫০, আগস্ট ১০, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ২২:৪৯, আগস্ট ১০, ২০২০

করোনাভাইরাসে ভারতে গত দুই দিন ধরেই ৬০ হাজারের বেশি আক্রান্ত হয়েছেন। সোমবার দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছেন ৬২ হাজার ৬৪ জন। এতে করে দেশটিতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২২ লাখ ১৫ হাজার ৭৪ জন।

ভারতীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুসারে, সংক্রমণ বৃদ্ধির হার আগে থেকে কমেছে। করোনা অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা ৬ লাখ ৩৪ হাজারের কাছাকাছি। অ্যাকটিভ কেস ২৯ দশমিক ২০ শতাংশ। আগস্টে করোনা অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা ১০ লাখ পার হতে পারে এমন আশঙ্কার কথা বলা হয়েছিল। কারণ দেশের এফেক্টিভ রিপ্রোডাকশন রেট  বা ‘আর’ নম্বর ১ দশমিক ১৭ পয়েন্টে স্থিতিশীল ছিল। এখন তা ১ দশমিক ১৬। দিল্লি, চেন্নাই, মুম্বাইতে আর নম্বর একের নিচে নেমে গেছে। সেখানে সংক্রমণ ছড়ানোর হারও কম।  

করোনায় মৃত্যু হার কমছে ভারতে। গত ২৪ ঘণ্টায় ভাইরাসের সংক্রমণে মৃত্যু হয়েছে ১ হাজার ৭ জনের। দেশটিতে করোনায় মৃতের সংখ্যা ৪৪ হাজার ৩৮৬ জন। করোনাভাইরাসের সংক্রমণজনিত কারণে মৃত্যু হার কমে দাঁড়িয়েছে ২ দশমিক শূন্য এক শতাংশে। বিশ্বের অন্যান্য দেশের তুলনায় যা সবচেয়ে কম। সোমবার মৃত্যু হার কমে ২ শতাংশের কাছাকাছি চলে এসেছে।

সোমবার গত ২৪ ঘণ্টায় ৫৪ হাজার করোনা রোগী সংক্রমণ সারিয়ে সুস্থ হয়েছেন। ভারতে করোনা জয়ীদের সংখ্যা ১৫ লাখ ৩৫ হাজার ৭৪৩ জন। সুস্থতার হার ৬৮ দশমিক ৭৮ শতাংশ।

ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অব মেডিক্যাল রিসার্চ (আইসিএমআর) জানাচ্ছে, কোভিড টেস্ট, কনট্যাক্ট ট্রেসিং ও ট্রিটমেন্ট এই তিন ‘টি’ ফর্মুলায় সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা চলছে। এখন পর্যন্ত আড়াই কোটির কাছাকাছি কোভিড টেস্ট হয়েছে। রবিবার দেশজুড়ে করোনা পরীক্ষা হয়েছে ৪ লাখ ৭৭ হাজার ২৩টি।

আইসিএমআর জানাচ্ছে, আগে দেশে মাত্র ৫২টি ল্যাবরেটরিতে করোনা পরীক্ষা শুরু হয়েছিল। এখন সরকারি ও বেসরকারি মিলিয়ে ১ হাজার ৪০৬টি ল্যাবরেটরিতে কোভিড টেস্ট করা হচ্ছে। যার মধ্যে ৯৪১টি সরকারি ও ৪৬৫টি বেসরকারি ল্যাবরেটরি রয়েছে।

/এএ/

লাইভ

টপ