করোনা মোকাবিলা নিয়ে বিপরীত মেরুতে ট্রাম্প-বাইডেন

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ১০:২৩, অক্টোবর ৩১, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১০:২৬, অক্টোবর ৩১, ২০২০

প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ও ডেমোক্র্যাটিক প্রার্থী জো বাইডেন শুক্রবার মধ্যপশ্চিমাঞ্চলীয় প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ অঙ্গরাজ্যে নির্বাচনি প্রচার চালিয়েছেন। কিন্তু করোনাভাইরাস সংকট নিয়ে উভয়ে একে অন্যের চেয়ে বিপরীত অবস্থান নিয়েছেন। মিশিগানের সমাবেশে ট্রাম্প ফক্স নিউজের উপস্থাপক লরা ইনগ্রাহামকে ব্যঙ্গ করেছেন মাস্ক পরার জন্য। আইওয়াতে জীবন রক্ষার জন্য আমেরিকানদের প্রতি মাস্ক পরার আহ্বান জানিয়েছেন বাইডেন। মার্কিন সংবাদমাধ্যম এনবিসি নিউজ এ্খবর জানিয়েছে।

মঙ্গলবার মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ভোট অনুষ্ঠিত হবে। জাতীয় পর্যায়ে জনমত জরিপে ট্রাম্পের চেয়ে সামান্য ব্যবধানে এগিয়ে রয়েছেন বাইডেন। তবে এই সামান্য পার্থক্য চার দিনের সময়ে ঘুচে যেতে পারে। ফলে কে নির্বাচনে জয়ী হবেন তা জরিপে আভাস পাওয়া কঠিন হয়ে পড়েছে। এরই মধ্যে ৮ কোটি ৫০ লাখ মানুষ ভোট দিয়েছেন। এর মধ্যে ৫ কোটি ৫০ লাখ দিয়েছেন ডাক ভোট। ধারণা করা হচ্ছে, এবার এক শতাব্দীর মধ্যে সবচেয়ে বেশি ভোটের রেকর্ড হতে পারে।

নির্বাচনের মাত্র চার দিন বাকি থাকতে শুক্রবার ট্রাম্প ও বাইডেন মধ্যপশ্চিমের অঙ্গরাজ্যগুলোতে তিনটি করে সমাবেশ করেছেন। মিশিগানের আগে ট্রাম্প উইসকনসিন ও মিনেসোটায় সমাবেশ করেন। আর বাইডেন আইওয়াতে যাওয়ার আগে সমাবেশ করেন মিনেসোটা ও উইসকনসিনে।

মিশিগানে ওয়াটারফোর্ড একটি বিমানবন্দরের টারমাকে দেওয়া বক্তব্যে ট্রাম্প করোনাভাইরাসের ভয়াবহতা ও সংক্রমণ ঠেকাতে পদক্ষেপের প্রয়োজনীয়তাকে হালকা করে তুলে ধরেন। এমন সময় তিনি এই মন্তব্য করলেন যখন দেশটিতে রেকর্ড সংখ্যক ৯০ হাজার নতুন সংক্রমিত হয়েছেন এবং প্রায় ১ হাজার মানুষের মৃত্যু হয়েছে।

ট্রাম্প বলেন, আপনারা যদি আক্রান্ত হন, আপনারা সুস্থ হয়ে যাবেন। এরপর আপনাদের দেহ ভাইরাস প্রতিরোধী হয়ে উঠবে। এটিই হলো পুরো বিষয় এবং তা চলে যাবে। তবে ভ্যাকসিন সহযোগিতা করবে।

ভাষণের এক পর্যায়ে ফক্স নিউজের উপস্থাপক ইনগ্রাহামকে ব্যঙ্গ করেন মাস্ক পরার জন্য। তিনি বলেন, সত্যিই নাকি! আপনি মাস্ক পরেছেন? আমি তাকে কখনও মাস্ক পরতে দেখিনি, নিজেকে দেখুন। আহা!, তিনি রাজনৈতিকভাবে খুব সঠিক।

ট্রাম্প মিশিগানে আরও বলেছেন যে, যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় মৃতের সংখ্যা অন্য দেশের তুলনায় বেশি কারণ হচ্ছে চিকিৎসকদের একটি কেলেঙ্কারির জন্য। বিমা কোম্পানির কাছ থেকে টাকা কামাতে এই কেলেঙ্কারি বাস্তবায়ন করা হচ্ছে।

আইওয়াতে বিপরীত অবস্থান নেন বাইডেন। সমাবেশে তিনি স্বাস্থ্যসেবা অ্যাক্টিভিস্ট রস ড্যানিয়েলকে পরিচয় করিয়ে দেন। যার বাবা করোনায় মারা গেছেন।

করোনাভাইরাস নিয়ে ট্রাম্পের মন্তব্যের ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন বাইডেন। তিনি বলেন, ট্রাম্প হার মেনে সাদা পতাকা তলে ধরেছেন। এর ফলে আমেরিকানদের জীবনহানি ও আইওয়ার অর্থনীতি ধ্বংসের দিকে নিয়ে যাচ্ছেন।

বাইডেন বলেন, ডোনাল্ড ট্রাম্প বিজ্ঞানের কথা মানতে নারাজ। ট্রাম্প প্রশাসনের বিজ্ঞানীরাই বলেছেন যে মাস্ক পরার কারণে এই বছর ১ লাখ মানুষের জীবন বাঁচতে পারে।

ডেমোক্র্যাটিক প্রার্থী জীবন বাঁচানোর সবাইকে মাস্ক পরার আহ্বান জানান। তিনি আরও বলেন, আমি দেশের অর্থনীতি বন্ধ করব না। আমি ভাইরাসকে থামাব। 

/এএ/

লাইভ

টপ