X
বৃহস্পতিবার, ০৭ জুলাই ২০২২
২৩ আষাঢ় ১৪২৯

‌‘আধুনিক চিকিৎসায় বিনিয়োগ করবে পুলিশ কল্যাণ ট্রাস্ট’

আপডেট : ০৭ অক্টোবর ২০২১, ১৬:০১

আধুনিক চিকিৎসার উন্নয়নের ওপর গুরুত্বারোপ করেছেন পুলিশ মহাপরিদর্শক (আইজিপি) বেনজীর আহমেদ। তিনি বলেন, ‘দেশের চিকিৎসা ব্যবস্থা আধুনিকায়নে ৫০ ভাগ বিদেশি এক্সপার্ট প্রয়োজন।

দেশে আধুনিক চিকিৎসা ব্যবস্থা থাকলে মানুষ অন্যদেশে যাবে না। চিকিৎসার জন্য বিভিন্ন দেশে যাওয়ায় বিপুল পরিমাণ মেডিক্যাল ট্যুরিজমের মাধ্যমে দেশের টাকা বিদেশে চলে যাচ্ছে। আধুনিক চিকিৎসা হলে দেশের টাকা দেশেই থাকবে। আধুনিক হাসপাতাল তৈরিতে সম্ভব হলে পুলিশ কল্যাণ ট্রাস্ট বিনিয়োগ করবে।’

বৃহস্পতিবার (৭ অক্টোবর) দুপুরে রাজধানীর দক্ষিণ কেরানীগঞ্জে মাদকাসক্তি নিরাময় ও মানসিক স্বাস্থ্য পরামর্শ কেন্দ্র (ওয়েসিস) এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

বেনজীর আহমেদ বলেন, ‘আমরা চিকিৎসার জন্য ব্যাংকক-সিঙ্গাপুর-মালয়েশিয়া যাই। আধুনিক চিকিৎসা ব্যবস্থা আমাদের দেশে গড়ে তোলা যেতে পারে। এর জন্য বেস্ট ইকুইপমেন্ট জোগাড় করা কঠিন ব্যাপার নয়। সমস্যা হয় বেস্ট পারসন জোগাড় করা। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী ও মহাপরিচালক মহোদয় যদি ৫০ ভাগ বিদেশি এক্সপার্ট জোগাড় করতে পারেন তবেই হবে।’

তিনি বলেন, ‘পুলিশ সদস্যদের মধ্যে কিডনিজনিত, হার্ট ও ক্যানসারে আক্রান্ত রোগী রয়েছে। ক্যানসার চিকিৎসা অনেক ব্যয়বহুল, সেজন্য আমরা রাজারবাগ হাসপাতালে একটি ক্যানসার ইউনিট করতে চাই।’

পুলিশ প্রধান বলেন, ‘মাদকে যারা আসক্ত হয়, তাদের পরিবারের যে দুর্দশা হয় তা দেখার দুর্ভাগ্য হয়েছে অনেকবার। এই সমাজের অনেক সম্মানীয় ব্যক্তির গোপন কান্না দেখতে হয়েছে আমাদের। সেগুলো ছিল এত কষ্টের যা কারও সঙ্গে শেয়ার করতে পারছিলেন না। কিন্তু আমাদের সঙ্গে শেয়ার করেছেন। এনজিও সংস্থাসহ মাদক নিয়ে যারা কাজ করেন, তারা বলছেন দেশে মাদকাসক্তের সংখ্যা ৫০ লাখ, আবার অনেকে বলছেন এক কোটি ছাড়িয়ে গেছে। ২০১৮ সালে জনস্বাস্থ্য ইনস্টিটিউটের এক পরিসংখ্যান বলেছিল ৩৬ লাখ। এই মাদকাসক্তদের চিকিৎসার জন্য সরকারি ও বেসরকারিভাবে প্রচলিত চিকিৎসা কেন্দ্রগুলোতে ৭ হাজার বেড দিয়ে আমরা কীভাবে চিকিৎসা করবো।’

বেনজীর আহমেদ বলেন, ‘কোনও মাদকই কিন্তু দেশে তৈরি হয় না। ফেনসিডিল, ইয়াবা প্রতিবেশী দেশ থেকে বাংলাদেশে ঢোকে। আইসও প্রতিবেশী দেশ থেকে ঢোকে। পশ্চিমাদেশগুলো থেকে কুরিয়ার সার্ভিসের মাধ্যমে বিভিন্নভাবে আমাদের দেশে আসে। মাদক নিয়ন্ত্রণে বা প্রতিরোধ করতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পাশাপাশি আরও অনেকেই কাজ করে যাচ্ছে। ডিমান্ড থাকলে কোনও না কোনোভাবে সাপ্লাই হবেই। মাদকসেবীদের সংখ্যার ওপর তার সাপ্লাই ডিপেন্ড করে। ডিমান্ড কাট করতে হলে মাদকাসক্তদের পুনর্বাসন করতে হবে।’

 

/আরটি/আইএ/
বাংলা ট্রিবিউনের সর্বশেষ
ট্রাক-পিকআপে বাড়ির পথে
ট্রাক-পিকআপে বাড়ির পথে
পশুর হাটে দাম বেশি, বেচাকেনা কম
পশুর হাটে দাম বেশি, বেচাকেনা কম
সীতাকুণ্ডে আগুন: পরিচয় মিলেছে আরও ৮ লাশের
সীতাকুণ্ডে আগুন: পরিচয় মিলেছে আরও ৮ লাশের
চার প্রযুক্তির ওপর নজর দিতে চায় সরকার: সজীব ওয়াজেদ
চার প্রযুক্তির ওপর নজর দিতে চায় সরকার: সজীব ওয়াজেদ
এ বিভাগের সর্বশেষ
সামাজিক অবক্ষয়ের কারণে শিক্ষককে পিটিয়ে মারছে ছাত্র: আইজিপি
সামাজিক অবক্ষয়ের কারণে শিক্ষককে পিটিয়ে মারছে ছাত্র: আইজিপি
শুদ্ধাচার পুরস্কার পেয়ে যে ঘোষণা আইজিপির
শুদ্ধাচার পুরস্কার পেয়ে যে ঘোষণা আইজিপির
বন্যাদুর্গতদের মাঝে খাবার ও ত্রাণসামগ্রী বিতরণ আইজিপির
বন্যাদুর্গতদের মাঝে খাবার ও ত্রাণসামগ্রী বিতরণ আইজিপির
আইজিপির সঙ্গে ইউনিট প্রধানদের চুক্তি সই
আইজিপির সঙ্গে ইউনিট প্রধানদের চুক্তি সই
দেশ ও জনগণের কল্যাণে কাজ করুন: বেনজীর আহমেদ
দেশ ও জনগণের কল্যাণে কাজ করুন: বেনজীর আহমেদ