X
মঙ্গলবার, ০৩ অক্টোবর ২০২৩
১৮ আশ্বিন ১৪৩০

মিডিয়া পাড়ায় দেবীর পদধ্বনি

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
০২ অক্টোবর ২০২২, ১৪:৫৭আপডেট : ০২ অক্টোবর ২০২২, ১৫:৫৭

আবাহনের মধ্য দিয়ে মর্ত্যলোকে এসেছেন দেবী দুর্গা। মহাষষ্ঠী তিথিতে কল্পারম্ভ ও বিহিত পূজার মধ্য দিয়ে বাঙালির শারদীয় দুর্গোৎসবের মূল আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়। সনাতন শাস্ত্রমতে, দেবী দুর্গা অসুর বধ করে ভক্তদের মধ্যে শান্তি ছড়িয়ে দিতেই কৈলাস ছেড়ে মর্ত্যলোকে নেমে আসেন। আজ রবিবার (২ অক্টোবর) মহাসপ্তমী। উলুধ্বনি, ধূপের গন্ধ, শঙ্খের সুর, ঢাকের আওয়াজ জানান দেয় দেবীর পদধ্বনির। সেই ধ্বনি শোনা যায় মিডিয়া পাড়া নামে পরিচিত রাজধানীর কাওরান বাজারে।

প্রতিবছরের মতো এবারও কাওরানবাজার এটিএন নিউজ কার্যালয়ের সামনে তৈরি করা হয়েছে অস্থায়ী মণ্ডপ। মহাসপ্তমীর পূজা পরিচালনা করেছেন পুরোহিত। মহাসপ্তমীতে দেবীকে পুষ্পাঞ্জলি অর্পণ করা হয়। পূজা শেষে অঞ্জলি দেন দেবী ভক্তরা। দেবী এবার এসেছেন হাতিতে চড়ে এবং দশমীর দিন বিদায় নেবেন নৌকায় চড়ে।

পুরোহিতদের মতে, বিল্ববৃক্ষ (বেলগাছ) মহাদেবের ভীষণ প্রিয়, পদ্মযোনী ব্রহ্মাও বিল্ববৃক্ষে দেবীকে প্রথম দর্শন করেন। তাই দেবীকে বিল্ববৃক্ষ তলেই আবাহন করা হয়। বিল্ববৃক্ষ তলে দেবী আবাহনের মধ্যে সংকল্প করেন ভক্তরা, দশমী পর্যন্ত যথাবিধ উপায়ে মায়ের পূজা করা হবে।

শাস্ত্রমতে, সপ্তমী পূজায় বিশেষ রীতি মেনে স্নান করানো হয় দেবী দুর্গাকে। পরে ধর্মীয় রীতিতে নতুন বস্ত্র ও নানা উপাচারে তার পূজা অনুষ্ঠিত হয়। এদিন দেবীর তৃতীয় চক্ষুদান করা হয়। মহাসপ্তমীতে ষোড়শ উপাচারে অর্থাৎ ষোলটি উপাদানে পূজা হবে দেবীর। এরপর দেবীকে আসন, বস্ত্র, নৈবেদ্য, স্নানীয়, পুষ্পমাল্য, চন্দন, ধূপ ও দীপ দিয়ে পূজা করবেন ভক্তরা। কল্পনার মধ্য দিয়ে দেবী দুর্গাকে মনের আসনে বসানোর পর অনুষ্ঠিত হয় সপ্তমী বিহিত পূজা।

মিডিয়া পাড়ায় দেবীর পদধ্বনি

পুরোহিতরা জানান, এই দিন দেবী দুর্গার সবচেয়ে ভয়ানক রূপ অর্থাৎ কালরাত্রি রূপের পূজা করা হয়। এর ফলে অশুভ শক্তির বিনাশ ঘটিয়ে শুভ শক্তির কর্তৃত্ব প্রতিষ্ঠা করেন দেবী দুর্গা।   

মিডিয়া পাড়ার এই আয়োজনে সম্পৃক্ত হন নানা শ্রেণি-পেশার মানুষ। পূজা দেখতে ভিড় করেন তারা। অস্থায়ী মণ্ডপের ভেতরে ভক্তরা এবং বাইরে উৎসুক মানুষের ভিড়। সব শ্রেণি-পেশার মানুষ যাতে সহজে এখানে আসতে পারেন, সে জন্যই কাওরান বাজারে এই উদ্যোগ বলে জানান এই আয়োজনের কাণ্ডারি এটিএন নিউজের প্রধান নির্বাহী সম্পাদক ও জ্যেষ্ঠ সাংবাদিক মুন্নী সাহা।

তিনি বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, আমরা বলছি ‘সবাই মিলে বাংলাদেশ’। বাংলাদেশের মূল ধারণা হচ্ছে সব ধরনের, সব শ্রেণির মানুষের জন্য একটি জায়গা হবে। বঙ্গবন্ধু তো তাই চেয়েছিলেন। আমরা যারা মিডিয়ায় কাজ করি, তারা সবার অন্তর্ভুক্তিমূলক বার্তাটা কেন জানি পৌঁছাতে পারছি না। আমরা বলার মধ্যেও রাজনীতির ট্যাগ লাইন ব্যবহার করি। আমাদের যদি আরেকটু ভালোভাবে সুফিবাদের বাংলাদেশ, সব ধরনের বাংলাদেশ, বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ, নজরুলের বাংলাদেশ; সেই বোধ যদি আমাদের না হয় তাহলে সেটি পৌঁছাবো কীভাবে, আমরা মানুষকে বোঝাবো কীভাবে?’

মিডিয়া পাড়ায় দেবীর পদধ্বনি

তিনি আরও বলেন, আমরা যখন সব মিডিয়া কর্মীরা এই আয়োজনের মধ্যে সম্পৃক্ত হয়ে যাই, এই প্রক্রিয়ার মধ্যে গল্পগুলোর আদান প্রদান হয়। এটি আমার কাছে মনে হয় একটি প্রশিক্ষণের অংশ।

আয়োজন প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এই কাওরান বাজার একটি হাব। হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের মধ্যেও একটু সংকোচবোধ কাজ করে। সবাই আসতে পারবে, পূজামণ্ডপে সবাই আসতে পারবে। কিন্তু দুর্গাপূজার যে মহত্ত্ব, এটি ভালো করে কেউ পড়লে জানতে পারবে যে মন্ত্রের মধ্যেই আমরা বলি যেন পৃথিবীর সব স্রোতধারা শুদ্ধ থাকে, জল শুদ্ধ থাকে, মানুষ শুদ্ধ থাকে। এই মিডিয়া পাড়া একটি হাব, অনেকেই সংকোচ করে অনেককে ঢুকতে দেয় না মণ্ডপে, আবার অন্য ধর্মের মানুষও একটু অস্বস্তিবোধ করে। এখানে সবাই কোনও সংকোচ কিংবা অস্বস্তি ছাড়াই আসতে পারে, মণ্ডপে ঢুকতে পারে। একটা অন্তর্ভুক্তিমূলক ব্যবস্থা এখানে আছে। এই কাওরান বাজার এলাকায় নিম্ন আয়ের, বিভিন্ন শ্রেণির মানুষ আছে। দুর্গাপূজায় সবার অন্তর্ভুক্তি থাকতে হবে।

/এসও/ইউএস/এমওএফ/
সম্পর্কিত
রাজধানীতে ট্রেনে কাটা পড়ে যুবকের মৃত্যু
‘ভিসানীতি গণমাধ্যমের স্বাধীনতার ওপর অযাচিত হস্তক্ষেপের শামিল’
শত খ্যাপাটে যুবক প্রমাণ করে দিলো ‘খালে হবে’
সর্বশেষ খবর
নিউইয়র্কে ‘আইএফআইসি ব্যাংক রেমিট্যান্স রোডশো’
নিউইয়র্কে ‘আইএফআইসি ব্যাংক রেমিট্যান্স রোডশো’
সফট স্কিলের ঘাটতির কারণে চাকরি পাচ্ছেন না গ্র্যাজুয়েটরা
সফট স্কিলের ঘাটতির কারণে চাকরি পাচ্ছেন না গ্র্যাজুয়েটরা
কবি নজরুল কলেজে দুই সাংবাদিককে পেটালো ছাত্রলীগ
কবি নজরুল কলেজে দুই সাংবাদিককে পেটালো ছাত্রলীগ
খালেদা জিয়ার প্রতি প্রধানমন্ত্রীর মহানুভবতা নজিরবিহীন: তথ্যমন্ত্রী
খালেদা জিয়ার প্রতি প্রধানমন্ত্রীর মহানুভবতা নজিরবিহীন: তথ্যমন্ত্রী
সর্বাধিক পঠিত
শত খ্যাপাটে যুবক প্রমাণ করে দিলো ‘খালে হবে’
শত খ্যাপাটে যুবক প্রমাণ করে দিলো ‘খালে হবে’
আইএমএফের ঋণের দ্বিতীয় কিস্তি পেতে বাধা যেখানে
আইএমএফের ঋণের দ্বিতীয় কিস্তি পেতে বাধা যেখানে
গাড়ি দুর্ঘটনার পর লুকোচুরি পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তার
গাড়ি দুর্ঘটনার পর লুকোচুরি পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তার
‘তখন আমার আবেগ কাজ করেছে বিবেক কাজ করেনি’
‘তখন আমার আবেগ কাজ করেছে বিবেক কাজ করেনি’
দুদকের মামলায় সাবেক বিমানবালার তিন বছরের কারাদণ্ড
দুদকের মামলায় সাবেক বিমানবালার তিন বছরের কারাদণ্ড