উইকেটরক্ষক মুশফিকের পাশে সাকিব

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট, হায়দরাবাদ থেকে
প্রকাশিত : ২১:১২, ফেব্রুয়ারি ১১, ২০১৭ | সর্বশেষ আপডেট : ২১:৩০, ফেব্রুয়ারি ১১, ২০১৭

গত কিছুদিন ধরেই মুশফিকের কিপিং নিয়ে সমালোচনা চলছে। ভারতের বিপক্ষে একমাত্র টেস্টে সমালোচনার মাত্রাটা এক ধাপ বেড়েছে। গুরুত্বপূর্ণ সময়ে দুটি স্টাম্পিং মিসই ম্যাচের গতিপথ পাল্টে দিয়েছে। তাই তাকে নিয়ে শুরু হয়েছে নতুন সমালোচনা। কিন্তু সাকিব মনে করেন, দলের স্বার্থে মুশফিককেই গ্ল্যাভস হাতে উইকেটের পেছনে দাঁড়ানো উচিত।

বেশ কয়েক বছর ধরেই তিনটি দায়িত্ব (কিপিং, অধিনায়কত্ব ও ব্যাটিং) একসঙ্গে পালন করতে হচ্ছে মুশফিককে। তিনটি দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে প্রধানতম দায়িত্বটি বাধাগ্রস্ত হচ্ছে। কিন্তু মুশফিক সব সময়ই বলার চেষ্টা করে আসছেন, তিনটি দায়িত্বই তিনি একসঙ্গে পালন করতে আগ্রহী। ব্যাটিংয়ের মতো কিপিংটাও উপভোগ করেন। টিম ম্যানেজমেন্ট যদি কখনও চায় সেক্ষেত্রে যে কোনও দায়িত্ব ছেড়ে দিতে প্রস্তুত তিনি।

মুশফিকের চাওয়াকে গুরুত্ব দিচ্ছেন বিশ্বের অন্যতম সেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। তিনি মনে করেন দলের স্বার্থে তার কিপিং ছাড়া কখনোই উচিত নয়, ‘তিনি যদি গ্লাভস রেখে শুধু ব্যাটসম্যান হিসেবে খেলে আমার মনে হয় না সেটা দল এবং তার জন্য সঠিক সিদ্ধান্ত হবে। যদিও একই সময়ে ব্যাটিং, কিপিং ও অধিনায়কত্ব করাটা কঠিন। কিন্তু তিনি এটা করতেই পছন্দ করে।’

মুশফিকের মতো গুরুত্বপূর্ণ একজন ব্যাটসম্যানকে কিভাবে পেছনে খেলানো হচ্ছে, ভারতীয় এক সাংবাদিকের করা এই প্রশ্নের জবাবে সাকিব বলেছেন, ‘উনি চ্যালেঞ্জ গ্রহণ করার মতো একজন ক্রিকেটার। আমি আগেও যেটা বলেছি, তিনি এমন কেউ নয় যাকে উপরে ব্যাট করতে বলা হলে সরে দাঁড়াবে। উপরে ব্যাটিং করতে হলেও তিনি করবেন।’

সব সময় চাপের মধ্যে থেকে বড় ইনিংস খেলেন মুশফিক। শনিবার সেটাই করেছেন আরেকবার। দিনশেষে ৮১ রানের ইনিংস খেলে অপরাজিত আছে। কি এই রহস্য সাকিবের কাছে জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেছেন, ‘সত্যি বলতে আমি জানি না কি সেই কারণ। তবে আমার মনে হয় কঠিন সময়ই তার পছন্দ। এগিয়ে এসে দলের জন্য কঠোর পরিশ্রম করতে ভালবাসেন। তার এমন চরিত্র বাংলাদেশের হয়ে অনেকদিন তাকে খেলতে সাহায্য করবে।’

/আরআই/কেআর/

লাইভ

টপ