X
রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪
১ বৈশাখ ১৪৩১
ওয়ালটনের চিফ বিজনেস অফিসার মোস্তফা নাহিদ হোসেন

‘দেশের টেলিভিশন বাজারের ৩০ শতাংশ ওয়ালটন টিভির দখলে’

হিটলার এ. হালিম
০৬ অক্টোবর ২০২৩, ১৪:০০আপডেট : ০৬ অক্টোবর ২০২৩, ১৪:০০

শুধু বিনোদনের জন্য নয়, শিক্ষামূলক ও পেশাগত বিভিন্ন কাজেও এখন ব্যবহার করা হচ্ছে টেলিভিশন। প্রায় প্রতিটি পরিবারে টেলিভিশন এখনও অন্যতম অনুষঙ্গ। আর দেশের টেলিভিশন বাজারের ৩০ শতাংশই ওয়ালটনের দখলে বলে জানিয়েছেন দেশীয় এই ব্র্যান্ডটির চিফ বিজনেস অফিসার (সিবিও) মোস্তফা নাহিদ হোসেন।

সম্প্রতি বাংলা ট্রিবিউনকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি জানান, ওয়ালটন টিভির সফলতা গ্রাহক আস্থার কারণে। গ্রাহক আস্থা রাখতে পারছেন বলেই সর্বাধুনিক প্রযুক্তির নতুন নতুন টেলিভিশন নিয়ে আসছে ওয়ালটন। বাংলা ট্রিবিউনের পাঠকদের জন্য সম্প্রতি নেওয়া ইন্টারভিউয়ের চুম্বকাংশ তুলে ধরা হলো। 

বাংলা ট্রিবিউন: দেশে টেলিভিশনের বর্তমান বাজার কেমন?

মোস্তফা নাহিদ হোসেন: দেশের করোনার সংক্রমণ ও ডলার সংকটের মাঝেও টেলিভিশনের বাজার ভালোই ছিল। বিশেষ করে ফুটবল বিশ্বকাপের পর থেকে বাজার ভালো ছিল। নির্দিষ্ট করে বললে, গত ডিসেম্বর পর্যন্ত বাজার ভালো ছিল। চলতি বছরের জানুয়ারি মাসের দিকে বাজার পড়ে যায়। ফেব্রুয়ারি-মার্চ পর্যন্ত বাজার খারাপ গেছে। এখন আবার কিছুটা ভালো হচ্ছে। আসন্ন ক্রিকেট বিশ্বকাপ উপলক্ষে বাজার ভালো যাবে বলে আমরা আশাবাদী।

বিশ্বকাপ উপলক্ষে ওয়ালটন দিচ্ছে টিভি কেনায় নানা অফার

বাংলা ট্রিবিউন: এই বাজারে ওয়ালটনের অবস্থা কেমন?

মোস্তফা নাহিদ হোসেন: বর্তমানে প্রতি মাসে ওয়ালটন টেলিভিশনের বাজার প্রবৃদ্ধি প্রায় ১০ থেকে ১৫ শতাংশ। সবশেষ আগস্ট মাসে তা মোট বাজারের ৩০ শতাংশে পৌঁছেছে। ওয়ালটন টেলিভিশনের মোট বিক্রির ৭০ ভাগ স্মার্ট টিভি, বাকি ৩০ ভাগ বেসিক টিভি।

তবে আমি মনে করে মূল্যবৃদ্ধির এই সময়ে বিনোদনমূলক পণ্য মানুষের প্রায়োরিটি লিস্টে ছিল না। এই সময়ে মানুষ তার প্রয়োজনীয় জিনিসপত্রই বেশি কিনেছেন। ফলে টেলিভিশনসহ অন্যান্য পণ্যের বিক্রি বা বাজার ভালো যায়নি। সময় বদলেছে, ক্রিকেট বিশ্বকাপ আসছে। বাজার আবার শক্তিশালী হবে।

বাংলা ট্রিবিউন: দেশি-বিদেশি ব্র্যান্ডের টিভির সঙ্গে ওয়ালটন টিভির প্রতিযোগিতা কেমন?

মোস্তফা নাহিদ হোসেন: প্রতিযোগিতা তেমন বেশি ছিল না। আমাদের মূল প্রতিযোগিতা হলো গ্রে মার্কেটের (অবৈধ পথে দেশে আসা টিভির বাজার) সঙ্গে। বর্তমানে গ্রে মার্কেটের আকার মোট টিভি বিক্রির ৪০ শতাংশের মতো। এটা ৫০ শতাংশের মতো ছিল। এখন কিছুটা কমেছে। ওয়ালটন টিভির এখন মূল প্রতিযোগিতা গ্রে মার্কেট আর নন-ব্র্যান্ডের টিভির সঙ্গে।

বাংলা ট্রিবিউন: এতো এতো ব্র্যান্ড থাকতে ক্রেতা কেন ওয়ালটন টিভি কিনবে?

মোস্তফা নাহিদ হোসেন: ওয়ালটন টিভির বিশেষত্ব হলো স্পেশাল কিছু ফিচার। আমরা কিছু ফিচার কাস্টমাইজ করে দিচ্ছি। স্মার্ট টিভির (একইমানের বিভিন্ন ব্র্যান্ডের টিভির) ফিচার সব টিভিরই প্রায় একই। ফিচার কাস্টমাইজ করে অন্যদের থেকে আমরা টিভিকে আলাদা রূপ দিয়েছি। ফলে ক্রেতাদের ওয়ালটন টিভির ওপর আস্থা তৈরি হয়েছে। বিশ্বকাপ ক্রিকেট উপলক্ষে আমরা নতুন নতুন অফার নিয়ে আসছি। অক্টোবর-নভেম্বর নাগাদ ওয়ালটনের নতুন মডেলের আরও টিভি বাজারে আসবে।

বিশ্বকাপ ক্রিকেট উপলক্ষে ওয়ালটনের টিভি কেনায় দেওয়া হচ্ছে নানা অফার

বাংলা ট্রিবিউন: বর্তমানে ওয়ালটন টিভি রফতানিও হচ্ছে। রফতানির জার্নিটা যদি বলতেন।

মোস্তফা নাহিদ হোসেন: ২০১৭ সাল থেকে ওয়ালটন টিভি রফতানি শুরু হয়েছে। বিশ্বের ৩০টি দেশে ওয়ালটন পণ্য রফতানি হয়। এরমধ্যে ইউরোপের প্রায় ১০-১২টি দেশ রয়েছে। রফতানি ভালোই হচ্ছিল। কিন্তু গোল বাঁধিয়েছে রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ। যুদ্ধের কারণে আমরা বড় ধরনের ধাক্কা খেয়েছি। ফলে রফতানিতে এখন ডিগ্রোথ হচ্ছে।

বাংলা ট্রিবিউন: ওয়ালটন টিভি নিয়ে আপনাদের ভবিষ্যত পরিকল্পনা কী?

মোস্তফা নাহিদ হোসেন:  আমরা হোটেল মোড টিভি তৈরি করছি। এর উদ্দেশ্য হলো— হোটেলে যেসব টিভি ব্যবহার হবে, সেই টিভি যেন হোটেলের গেস্টের তথ্য পেতেও কাজ লাগে। টিভি পর্দাতেই যেন হোটেলের যাবতীয় তথ্য দেখা যায়। আমরা টেলিভিশনকে শিক্ষা ও বিনোদনের অনুষঙ্গ হিসেবে তৈরি করতে চাই। এজন্য অত্যাধুনিক প্রযুক্তি নিয়ে কাজ করছি। ভ্যালু অ্যাড করা হচ্ছে নিয়মিত। টেলিভিশনকে মাল্টিটাস্কিং করাই হচ্ছে আমাদের মূল উদ্দেশ্য।

বাংলা ট্রিবিউন: আপনারা কত ধরনের টিভি তৈরি করছেন?

মোস্তফা নাহিদ হোসেন: আমরা বেসিক টিভির একটা ধরন, অ্যান্ড্রয়েড টিভির একটা ধরন এবং স্মার্ট টিভির দুটো ধরন (অ্যান্ড্রয়েড ও গুগল টিভি) তৈরি করছি। শিগগিরই ওএলইডি টিভি নিয়ে আসছি। আগামী বছর আসবে ওয়ালটনের ৭৫ ইঞ্চির টিভি। বিশ্বকাপ উপলক্ষে আমাদের একাধিক অফার আসছে সামনে। এরই মধ্যে একটা দুটো অফার চলেও এসেছে।

বাংলা ট্রিবিউন: মূল্যবাদ সময় দেওয়ার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ।

মোস্তফা নাহিদ হোসেন: ধন্যবাদ আপনাকেও।

/ইউএস/
সম্পর্কিত
করারোপ নীতি শিক্ষা সম্প্রসারণকে বাধাগ্রস্ত করবে: সলিমুল্লাহ খান
আইসিটির ‘ট্যাক্স হলিডে’ নিয়ে কাজ করতে হবে: নিয়াজ মোর্শেদ এলিট
বাংলা ট্রিবিউনকে ওয়াসিকা আয়শা খান‘নারীরা যে শ্রেষ্ঠত্বের প্রমাণ দিয়ে চলেছেন, এর নেপথ্যে শেখ হাসিনা’
সর্বশেষ খবর
গাজায় যুদ্ধবিরতির প্রধান দাবিতে অটল হামাস
গাজায় যুদ্ধবিরতির প্রধান দাবিতে অটল হামাস
‘সাম্প্রদায়িকতা, ষড়যন্ত্র ও সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে ঘৃণা ছড়িয়ে দিতে হবে’
‘সাম্প্রদায়িকতা, ষড়যন্ত্র ও সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে ঘৃণা ছড়িয়ে দিতে হবে’
চেনা বটমূলে রবি-নজরুলের গান আর বাঙালিয়ানার বার্তা
নববর্ষ ১৪৩১চেনা বটমূলে রবি-নজরুলের গান আর বাঙালিয়ানার বার্তা
প্রচণ্ড গরমে ঘোরাঘুরির আগে মনে রাখতে হবে এই ১০ বিষয়
প্রচণ্ড গরমে ঘোরাঘুরির আগে মনে রাখতে হবে এই ১০ বিষয়
সর্বাধিক পঠিত
নৌযান আটকের পর ইরানকে ইসরায়েলের হুমকি
নৌযান আটকের পর ইরানকে ইসরায়েলের হুমকি
আজ পহেলা বৈশাখ
আজ পহেলা বৈশাখ
ভরা মৌসুমে অস্থির কেন পেঁয়াজের বাজার?
ভরা মৌসুমে অস্থির কেন পেঁয়াজের বাজার?
ইসরায়েলে ইরানি হামলার নিন্দা ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীর
ইসরায়েলে ইরানি হামলার নিন্দা ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীর
ইসরায়েলে ড্রোন ও ক্ষেপণাস্ত্র হামলা শুরু করেছে ইরান: ইসরায়েলি সেনাবাহিনী
ইসরায়েলে ড্রোন ও ক্ষেপণাস্ত্র হামলা শুরু করেছে ইরান: ইসরায়েলি সেনাবাহিনী