X
বুধবার, ১৬ জুন ২০২১, ২ আষাঢ় ১৪২৮

সেকশনস

লংমার্চে হামলার প্রতিবাদে শাহবাগ মোড় অবরোধ

আপডেট : ২১ অক্টোবর ২০২০, ১৪:২০

লংমার্চে হামলার প্রতিবাদে শাহবাগ মোড় অবরোধ করেন বামপন্থী ছাত্র সংগঠনের নেতাকর্মীরা রাজধানীর শাহবাগ থেকে নোয়াখালী যাওয়ার পথে ফেনীতে ধর্ষণবিরোধী লংমার্চে হামলার প্রতিবাদে শাহবাগ মোড় অবরোধ করেছেন বামপন্থী ছাত্র সংগঠনের নেতাকর্মীরা৷ আজ বুধবার (২১ অক্টোবর) পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী এ অবরোধ কর্মসূচি সারাদেশে পালন করছেন তারা। এ সময় আন্দোলনকারীরা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর পদত্যাগ দাবিতে স্লোগান দিতে থাকেন।

অবরোধ কর্মসূচির আগে দুপুর পৌনে ১২টার দিকে শাহবাগ জাতীয় জাদুঘরের সামনে একটি সমাবেশ করেন অবরোধকারীরা। সমাবেশ শেষে কাঁটাবনের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে বেলা সাড়ে ১২টার দিকে রাস্তা অবরোধ করেন তারা। এতে শাহবাগ থেকে সায়েন্সল্যাব, বাংলামোটর ও মৎস‌্য ভবন এলাকার রাস্তায় যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। এ সময় শাহবাগে পুলিশের ২৫-৩০ জনের একটি টিমকে লাঠি-হেলমেট নিয়ে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা গেছে।

অবরোধ কর্মসূচিতে বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন, ছাত্র ফেডারেশন, সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টসহ আরও কয়েকটি সংগঠনের নেতাকর্মীরা রয়েছেন।

শাহবাগ মোড়ে পুলিশের অবস্থান গত ৫ অক্টোবর থেকে ‘ধর্ষণ ও বিচারহীনতার বিরুদ্ধে বাংলাদেশ’ ব্যানারে নয় দফা দাবিতে শাহবাগে গণজমায়েত কর্মসূচি শুরু করেন বিক্ষোভকারীরা। এরপর ১৬ অক্টোবর ঢাকা থেকে লংমার্চ নিয়ে নোয়াখালীতে গিয়ে সমাবেশ করে আবার ১৭ অক্টোবর ঢাকা ফেরেন তারা।

সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক নাসির উদ্দিন প্রিন্স বলেন, ‘ধর্ষণবিরোধী লংমার্চ নিয়ে ফেনীতে গেলে আমাদের ওপর হামলা করা হয়। সেই হামলার প্রতিবাদে সারাদেশে অবরোধ কর্মসূচি পালন করা হচ্ছে। ঢাকাতে শাহবাগ মোড় অবরোধ করে আন্দোলন চলমান থাকবে।’

ছাত্র ইউনিয়নের ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সাধারণ সম্পাদক রাগিব নাঈম বলেন, ‘যারা ধর্ষকদের লালন-পালন করে তারাই আমাদের ওপর হামলা চালিয়েছে। এর প্রতিবাদে আমাদের কর্মসূচি চলবে।’

ছাত্র ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় সভাপতি গোলাম মোস্তফা বলেন, ‘এ রাষ্ট্র ধর্ষকদের নিরাপত্তা দেয়। ধর্ষকদের পক্ষে কথা বলে৷ আর যারা ধর্ষণের প্রতিবাদ করে তাদের ওপর ছাত্রলীগ-যুবলীগ দিয়ে হামলা চালায়। আমরা রাষ্ট্রের এ ধরনের চরিত্রের তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি।’

জানতে চাইলে শাহবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মামুন অর রশীদ বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘আন্দোলনকারীদের আমরা রাস্তা থেকে সরে যেতে অনুরোধ করেছি। তারা আমাদের কথা শোনেননি। তাদের অবরোধের জন্য যানচলাচল বন্ধ রয়েছে। সাধারণ মানুষের ভোগান্তি হচ্ছে।’

 

/এসআইআর/এমএএ/এমএমজে/

সম্পর্কিত

অনিয়মের কারণে প্রাথমিক শিক্ষকদের বেতন বন্ধ করা যাবে না

অনিয়মের কারণে প্রাথমিক শিক্ষকদের বেতন বন্ধ করা যাবে না

ঋণখেলাপি শনাক্ত আরও সহজ হলো

ঋণখেলাপি শনাক্ত আরও সহজ হলো

লকডাউন দিয়েও ঠেকানো যাচ্ছে না ১২ জেলার করোনার ঊর্ধ্বগতি

লকডাউন দিয়েও ঠেকানো যাচ্ছে না ১২ জেলার করোনার ঊর্ধ্বগতি

‘কোভিশিল্ড’ টিকা এক কোটি ৮১ হাজার ডোজ শেষ

‘কোভিশিল্ড’ টিকা এক কোটি ৮১ হাজার ডোজ শেষ

শেয়ার বাজারে বুধবারও বড় উত্থান

শেয়ার বাজারে বুধবারও বড় উত্থান

তিনটি যাত্রীবাহী নৌযান কিনছে সরকার

তিনটি যাত্রীবাহী নৌযান কিনছে সরকার

ফিলিস্তিনের পাশে দাঁড়াতে ওআইসিভুক্ত দেশগুলোর প্রতি আহ্বান রাষ্ট্রপতির

ফিলিস্তিনের পাশে দাঁড়াতে ওআইসিভুক্ত দেশগুলোর প্রতি আহ্বান রাষ্ট্রপতির

২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৬০, শনাক্ত প্রায় ৪ হাজার

২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৬০, শনাক্ত প্রায় ৪ হাজার

‘ত্রাণ চাই না, বাঁধ চাই’, গলায় প্ল্যাকার্ড ঝুলিয়ে সংসদে এমপি শাহজাদা

‘ত্রাণ চাই না, বাঁধ চাই’, গলায় প্ল্যাকার্ড ঝুলিয়ে সংসদে এমপি শাহজাদা

শর্তসাপেক্ষে প্রমোশন পাচ্ছেন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ৩ লাখ শিক্ষার্থী

শর্তসাপেক্ষে প্রমোশন পাচ্ছেন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ৩ লাখ শিক্ষার্থী

গত ১০ বছরে এডিপির বাস্তবায়ন গড়ে ৮৫ শতাংশ

গত ১০ বছরে এডিপির বাস্তবায়ন গড়ে ৮৫ শতাংশ

শর্ত পূরণ করলেই মিলবে বঙ্গভ্যাক্সের ট্রায়ালের অনুমতি

শর্ত পূরণ করলেই মিলবে বঙ্গভ্যাক্সের ট্রায়ালের অনুমতি

সর্বশেষ

ওয়ারীতে লেগুনা উল্টে চালকের স্ত্রীর মৃত্যু

ওয়ারীতে লেগুনা উল্টে চালকের স্ত্রীর মৃত্যু

আকস্মিক বন্যায় ভুটানে নিহত ১০, নেপালে নিখোঁজ ৭

আকস্মিক বন্যায় ভুটানে নিহত ১০, নেপালে নিখোঁজ ৭

অনিয়মের কারণে প্রাথমিক শিক্ষকদের বেতন বন্ধ করা যাবে না

অনিয়মের কারণে প্রাথমিক শিক্ষকদের বেতন বন্ধ করা যাবে না

ভারতে এবার গ্রিন ফাঙ্গাস আতঙ্ক

ভারতে এবার গ্রিন ফাঙ্গাস আতঙ্ক

স্কুলশিক্ষার্থীকে অপহরণ করে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের অভিযোগ

স্কুলশিক্ষার্থীকে অপহরণ করে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের অভিযোগ

ঋণখেলাপি শনাক্ত আরও সহজ হলো

ঋণখেলাপি শনাক্ত আরও সহজ হলো

লকডাউন দিয়েও ঠেকানো যাচ্ছে না ১২ জেলার করোনার ঊর্ধ্বগতি

লকডাউন দিয়েও ঠেকানো যাচ্ছে না ১২ জেলার করোনার ঊর্ধ্বগতি

এটিএম কার্ড জালিয়াতি করে আড়াই কোটি টাকা আত্মসাৎ

পালিয়েছে ব্যাংক কর্মকর্তা, চক্রের চার সদস্য গ্রেফতার

ময়মনসিংহ মেডিক্যালের আইসিইউতে ২৪ ঘণ্টায় ৬ জনের মৃত্যু

ময়মনসিংহ মেডিক্যালের আইসিইউতে ২৪ ঘণ্টায় ৬ জনের মৃত্যু

ইলিয়াস সানিকে ইট ছুড়ে মারলেন সাব্বির

ইলিয়াস সানিকে ইট ছুড়ে মারলেন সাব্বির

‘কোভিশিল্ড’ টিকা এক কোটি ৮১ হাজার ডোজ শেষ

‘কোভিশিল্ড’ টিকা এক কোটি ৮১ হাজার ডোজ শেষ

মাকড়সার জালে বদলে যাচ্ছে অস্ট্রেলিয়ার ভূমিচিত্র

মাকড়সার জালে বদলে যাচ্ছে অস্ট্রেলিয়ার ভূমিচিত্র

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

অনিয়মের কারণে প্রাথমিক শিক্ষকদের বেতন বন্ধ করা যাবে না

অনিয়মের কারণে প্রাথমিক শিক্ষকদের বেতন বন্ধ করা যাবে না

তিনটি যাত্রীবাহী নৌযান কিনছে সরকার

তিনটি যাত্রীবাহী নৌযান কিনছে সরকার

শর্তসাপেক্ষে প্রমোশন পাচ্ছেন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ৩ লাখ শিক্ষার্থী

শর্তসাপেক্ষে প্রমোশন পাচ্ছেন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ৩ লাখ শিক্ষার্থী

শর্ত পূরণ করলেই মিলবে বঙ্গভ্যাক্সের ট্রায়ালের অনুমতি

শর্ত পূরণ করলেই মিলবে বঙ্গভ্যাক্সের ট্রায়ালের অনুমতি

ভারী বৃষ্টি হতে পারে আজও, সমুদ্রে ৩ নম্বর সংকেত

ভারী বৃষ্টি হতে পারে আজও, সমুদ্রে ৩ নম্বর সংকেত

প্রতিনিয়ত হটস্পট বদলাচ্ছে করোনা, এরপর কোথায়?

প্রতিনিয়ত হটস্পট বদলাচ্ছে করোনা, এরপর কোথায়?

‘করোনাকালীন কাজের স্বীকৃতি, আইএলও’র নির্বাচনে সর্বোচ্চ ভোট’

‘করোনাকালীন কাজের স্বীকৃতি, আইএলও’র নির্বাচনে সর্বোচ্চ ভোট’

বান্দরবানে কলেরা আক্রান্তদের চিকিৎসায় সেনাবাহিনী

বান্দরবানে কলেরা আক্রান্তদের চিকিৎসায় সেনাবাহিনী

শেখ হাসিনা গণমাধ্যমবান্ধব: প্রাণিসম্পদমন্ত্রী

শেখ হাসিনা গণমাধ্যমবান্ধব: প্রাণিসম্পদমন্ত্রী

মাদকের মামলায় নাসিরসহ ৫ জনের বিরুদ্ধে প্রতিবেদন ১৮ আগস্ট

মাদকের মামলায় নাসিরসহ ৫ জনের বিরুদ্ধে প্রতিবেদন ১৮ আগস্ট

© 2021 Bangla Tribune