X
রবিবার, ০১ আগস্ট ২০২১, ১৭ শ্রাবণ ১৪২৮

সেকশনস

‘প্রাঙ্গণেমোর’ ছাড়লো ২৭ সদস্য, আশীর্বাদ জানালেন অনন্ত!

আপডেট : ১৩ ডিসেম্বর ২০২০, ০২:১৭

২৭ সদস্যের স্বাক্ষর এবং মঞ্চে কবিগুরুকে নিয়ে অনন্ত-নূনা দম্পতি দেশের প্রথম সারির নাট্যদল প্রাঙ্গণেমোর থেকে একসঙ্গে ২৭ জন সদস্য দলত্যাগ করলেন! এটা নাট্যাঙ্গনের জন্য বেশ চাঞ্চল্যকর খবর বটে।
জানা গেছে, আজই (১২ ডিসেম্বর) দলপ্রধান অনন্ত হিরা বরাবর দলত্যাগের যৌথ চিঠি দিয়েছেন দলছুট হতে চাওয়া সদস্যরা।
দলত্যাগ প্রসঙ্গে প্রাঙ্গণেমোর-এর স্থায়ী সদস্য মাইনুল তাওহীদ লিখিত প্রেস নোটে বলেন, ‘ক্রমাগত অনিয়ম আর ভাবনাগত অমিলের কারণে শেষ পর্যন্ত আর এই দলে থাকা সম্ভব হলো না। যেমন, আমি নিজে এই দলের অর্থ বিভাগের দায়িত্বে থাকলেও আমাকে পাশ কাটিয়ে অর্থের সমস্ত হিসাব দলপ্রধান অনন্ত হিরা নিজে করেন। এভাবে তো আসলে চলে না।’
দলের আরেক স্থায়ী সদস্য জাহিদুল ইসলাম বলেন, ‘দলটি আসলে পারিবারিক থিয়েটারে পরিণত হয়েছে। এখানে সাধারণ সদস্যদের কোনও সম্মান ও মূল্য ছিলো না। এসব আর মেনে নিতে পারছি না বলেই দলের বেশিরভাগ সদস্য একসঙ্গে পদত্যাগের সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’
এদিকে থিয়েটারে এমন ঘটনার পর সবাই নড়েচড়ে বসলেও দল প্রধান অনন্ত হিরাকে পাওয়া গেল বরফ ঠাণ্ডা অবস্থায়। মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে প্রথমে বলেন, এই বিষয়ে তিনি কিছু জানেন না। বরং খানিক আগ্রহ নিয়ে বললেন, ‘কী ঘটেছে বলুন তো!’
এরপর ২৭ সদস্যের পদত্যাগের প্রতিক্রিয়া হিসেবে এই নাট্যজন বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘যারা দলত্যাগের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন, তাদের প্রতি আমার আশীর্বাদ থাকলো। তাদের কল্যাণ হোক। আর যারা দলে থাকবেন, তাদের সঙ্গে তো সকাল-বিকাল দেখা-সাক্ষাত হবেই।’
এদিকে দলটির স্থায়ী সদস্য সরোয়ার সৈকত বলেন, ‘একসঙ্গে ২৭ জন সদস্যের দলত্যাগই প্রমাণ করে দলটির অবক্ষয় কোন পর্যায়ে গিয়ে পৌঁছেছে। এটা আসলে সাধারণ সদস্যদের দীর্ঘদিনের পুঞ্জিভূত ক্ষোভের বহিঃপ্রকাশ। দলের ভেতরে যে অন্যায় আর অনিয়মের পাহাড় তৈরি হয়েছে সেই দায়ভার আসলে সাধারণ সদস্যরা টানতে চায় না।’
প্রাঙ্গণেমোর ছেড়ে যেতে যে ২৭ জন যৌথ বিবৃতিতে স্বাক্ষর করেছেন তারা হলেন- মাইনুল তাওহীদ, জাহিদুল ইসলাম, সরোয়ার সৈকত, ইউসুফ পলাশ, তৌফিক আজীম রবিন, রবি খান, মীর সালাউদ্দিন বাবু, আবু হায়াত মাহমুদ জসিম, সাইম সিদ্দিকী অপু, রিগ্যান সোহাগ রত্ন, শুভেচ্ছা রহমান, প্রবন বন্ধু নাথ তুহিন, সীমান্ত আমীন, আমিরুল মামুন, অনিন্দ্র কিশোর, ডালিম মিলাদ, তৌহিদ বিপ্লব, সাইদুর রহমান নয়ন, আহমেদ সুজন, লিটু রায়, রুহুল আমীন রাজা, মাহমুদুল হাসান, আব্দুল হাই, এম এম আর মিঠুন, ঊর্মিলা মজুমদার, রাকিব হাসান ও জয়নাল আবেদিন মনির।
প্রাঙ্গণেমোর মূলত অনন্ত হিরা ও নূনা আফরোজ দম্পতির দল বলেই সমধিক পরিচিত।

/এমএম/

সম্পর্কিত

শ্রমিকদের ফ্যাক্টরিতে আসতে বলে তোপের মুখে অনন্ত!

শ্রমিকদের ফ্যাক্টরিতে আসতে বলে তোপের মুখে অনন্ত!

‘রঞ্জনা’র পর ‘বেলা বোস’: থাকছে না সেই টেলিফোন!

‘রঞ্জনা’র পর ‘বেলা বোস’: থাকছে না সেই টেলিফোন!

৬ ভক্তের কথায় হাবিব-ন্যানসির সেই গান (ভিডিও)

৬ ভক্তের কথায় হাবিব-ন্যানসির সেই গান (ভিডিও)

পুলিশ সদস্যদের নিয়ে স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র

পুলিশ সদস্যদের নিয়ে স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র

শ্রমিকদের ফ্যাক্টরিতে আসতে বলে তোপের মুখে অনন্ত!

আপডেট : ৩১ জুলাই ২০২১, ১৭:৩১

অভিনেতা-চিত্রনায়ক-প্রযোজক অনন্ত জলিলের বড় পরিচয় তিনি পোশাক ব্যবসায়ী। সিআইপিপ্রাপ্ত এই ব্যবসায়ী সম্প্রতি ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে নিজের গার্মেন্টকর্মীদের উদ্দেশে দিয়েছেন এক জরুরি নোটিশ। আর এতেই তোপের মুখে পড়েছেন তিনি। 

কী ছিল সেই নোটিশে? 

করোনাভাইরাস ঊর্ধ্বমুখী সংক্রমণের মধ্যেই আগামীকাল (১ আগস্ট) থেকে রফতানিমুখী শিল্পকারখানা খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত জানিয়েছে সরকার। এর প্রেক্ষিতে চিত্রনায়ক তার শিল্প-প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা এবং শ্রমিকদের আগামীকাল (রবিবার) থেকে কর্মস্থলে উপস্থিত থাকার অনুরোধ করেছেন। 

কিন্তু বাস্তবতা বেশ কঠিন। ঢাকায় ফেরার নেই কোনও যানবাহন। তাই অধিকাংশ নেটিজেনের ভাষ্য- গণপরিবহন বন্ধ থাকায় গ্রাম থেকে কীভাবে আসবে শ্রমিকরা?

অন্যদিকে, সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত হচ্ছে ঢাকামুখী কর্মীদের অসহায়ভাবে ফেরার চিত্র। 

অনন্তর এই স্ট্যাটাসে মাহবুব নামে একজন লিখেছেন, ‘শিল্পকারখানা খুলবে ১ তারিখে আর লকডাউন ৫ তারিখ পর্যন্ত। তবে গ্রামে আটকা পড়া শ্রমিকরা কি স্পেসশিপে করে ঢাকায় পৌঁছাবে?’

ফাতেমা নামের আরেকজনের ভাষ্য, ‘সবসময় বলেন আপনি শ্রমিক বান্ধব- এই তার নমুনা? আপনার সিনেমায় যেমন ক্ষমতা থাকে শ্রমিকদের তো তা নেই, একটাবার চিন্তা করলেন না, গণপরিবহন না চললে কীভাবে তারা ফিরবে? শ্রমিকদের কথা চিন্তা করে সিদ্ধান্ত বদলে ফেলুন, নয়তো গণপরিবহন চালুর ব্যবস্থা করুন।’ 

ফাহিম মোর্শেদ ইভান নামের অপরজনের লেখা, ‘‘স্যার, কারখানা ‘The Factory’তে আসার জন্য গাড়ি ‘The Car’ দেবেন না?’’

শামীম ওসমান নামের ক্ষুব্ধ একজন বলেছেন, ‘স্যার, বেয়াদবি মাফ করবেন। আপনারা ফ্যাক্টরি খোলার জন্য সরকারের বিভিন্ন মহলে দিনের পর দিন দৌড়া-দৌড়ী করেছেন। অথচ শ্রমিকদের যাতায়াত ব্যবস্থার ব্যাপারে কোনও ধরনের সুপারিশ করেননি। আপনারা নোটিশ দিচ্ছেন কেউ যেন অনুপস্থিত না থাকে।’

গাজী মোমিনা লিখেছেন, ‘অনন্ত সাহেব, সারাদেশে লকডাউন আপনার কি জানা নাই? লকডাউন উপেক্ষা করে শ্রমিকগণ কি করে কর্মস্থলে উপস্থিত থাকবে আপনার কি সেই সাধারণ জ্ঞানটুকুও নাই? শ্রমিকদের কি আপনার মানুষ বলে মনে হয় না? তাদের জীবন কি জীবন নয়? একটু বিবেচনাবোধ রাখা উচিত আপনাদের মতো মালিকদের।’ 

তবে এমন অসংখ্য প্রতিক্রিয়ার প্রেক্ষিতে অনন্ত জলিলের কোনও মন্তব্য পাওয়া যায়নি এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত।

/এম/এমএম/

‘রঞ্জনা’র পর ‘বেলা বোস’: থাকছে না সেই টেলিফোন!

আপডেট : ৩১ জুলাই ২০২১, ১৬:২৯

অঞ্জন দত্তের গানের সফল দুটি চরিত্র- রঞ্জনা ও বেলা বোস। প্রথম চরিত্র নিয়ে ১০ বছর আগে (২০১১) ‘রঞ্জনা আমি আর আসবো না’ নামের সিনেমা তৈরি করে গানের চেয়েও বড় সাফল্য ঘরে তুলেছেন নির্মাতা-অভিনেতা অঞ্জন। পেয়েছেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারও। 

বলা হয়ে থাকে, টলিউডের সেরা মিউজিক্যাল ফিল্মের মধ্যে প্রথম স্থানে থাকবে এই ছবিটি। 

সম্ভবত সেই রেশ ধরে এবার অন্য জনপ্রিয় চরিত্র বেলা বোসকে নিয়েও বড় পর্দায় হাজির হওয়ার ঘোষণা দিলেন দুই বাংলার অন্যতম এই জনপ্রিয়- কণ্ঠশিল্পী, গীতিকবি, সুরকার, অভিনেতা, নির্মাতা ও নাট্যকার। তবে এই গানের সুবাদে বাংলার প্রতিজন শ্রোতার মুখস্থ টেলিফোন নম্বর ‘হ্যালো এটা কি ২৪৪১১৩৯’ এর রেশ থাকছে না বলে জানান অঞ্জন দত্ত।

দুটো ছবির প্রযোজকই রানা সরকার।  

নিজের সৃষ্ট জনপ্রিয় এই চরিত্র নিয়ে সিনেমা নির্মাণকে বড় চ্যালেঞ্জ মনে করছেন অঞ্জন দত্ত। বললেন, ‘খুব কঠিন! তবে চ্যালেঞ্জটা আমি নিচ্ছি। ৬৬ বছর বয়সে এসেও যে এই চ্যালেঞ্জটা নিতে পারছি তার কারণ রানা (ছবির প্রযোজক) সঙ্গে আছে বলেই।’

বেলা বোস— ১৯৯৮ সালে মুক্তি পাওয়া গানটি এখন পর্যন্ত জনপ্রিয়তার শীর্ষে রয়েছে। বরাবরই অঞ্জন বলে আসছিলেন, এটি কোনও বাস্তব চরিত্র নয়। স্রেফ কল্পনা। এই সিনেমায় পুরনো গানটির কথা-সুরে খানিক রেশ থাকলেও গল্পটা একেবারে নতুন মেজাজের। এমনকি এই গানের সুবাদে বিখ্যাত হওয়া ২৪৪১১৩৯ নম্বরটিও থাকছে না এই ছবিতে! তৈরি হচ্ছে নতুন গানও। 

অঞ্জন বলছেন, ‘এখন তো আর ল্যান্ডফোনের যুগ নেই। সুতরাং, এটি একটি নতুন গল্প যা বর্তমান সামাজিক-রাজনৈতিক প্রেক্ষাপট নিয়ে কথা বলবে। আমি এখনও চিত্রনাট্যটি লিখছি।’ 

ছবিটির নাম হচ্ছে ‘বেলা বোসের জন্য’।

প্রধান চরিত্রের অভিনেত্রীর নাম জানায়নি অঞ্জন দত্ত। এ বিষয়ে তিনি খানিকটা রহস্য জাগিয়ে রাখলেন। তবে জানালেন, ছবির সংগীত পরিচালনার দায়িত্বে থাকবেন তারই পুত্র নীল দত্ত। যিনি ‘রঞ্জনা আমি আর আসবো না’তেও ছিলেন।

সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া

/এমএম/

সম্পর্কিত

শ্রমিকদের ফ্যাক্টরিতে আসতে বলে তোপের মুখে অনন্ত!

শ্রমিকদের ফ্যাক্টরিতে আসতে বলে তোপের মুখে অনন্ত!

৬ ভক্তের কথায় হাবিব-ন্যানসির সেই গান (ভিডিও)

৬ ভক্তের কথায় হাবিব-ন্যানসির সেই গান (ভিডিও)

পুলিশ সদস্যদের নিয়ে স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র

পুলিশ সদস্যদের নিয়ে স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র

বন্ধু দিবসে কলকাতার রূপঙ্কর ও ঢাকার আফরোজা

বন্ধু দিবসে কলকাতার রূপঙ্কর ও ঢাকার আফরোজা

৬ ভক্তের কথায় হাবিব-ন্যানসির সেই গান (ভিডিও)

আপডেট : ৩১ জুলাই ২০২১, ১৫:১৬

ঈদের আগে সংগীতশিল্পী হাবিব ওয়াহিদ আচমকা ঘোষণা দেন, ভক্তরা হবেন তার গানের গীতিকার। তবে প্রক্রিয়াটা একটু আলাদা।

হাবিব নিজে তার ভেরিফায়েড পেজে একটি বাক্য লেখেন। বাকিটা শেষ করতে হবে ভক্তদের। আর সেখান থেকেই তৈরি হয় ছয় নবীন গীতিকারের লেখা একটি গান। নাম ‘বৃষ্টি যদি আর না থামে আজ’।

গানটি গতকাল ইউটিউবে মুক্ত করেছেন হাবিব। এতে চমক আকারে রেখেছেন তার বহু জনপ্রিয় গানের সহশিল্পী ন্যানসিকে।
  
যে ছয়জন গানটি লিখেছেন তারা হলেন- এবরিয়াদ হাসান, ক্যাথরিন আলো, সুফিয়ান খান, সাহাদাত হোসাইন, মুকুল রায় ও জাহিদ হাসান রাকিব।

এদের মধ্যে এবরিয়াদ হাসান, সুফিয়ান খান ও মুকুল রায়ের লেখায় কণ্ঠ দিয়েছেন হাবিব এবং ক্যাথরিন আলো, শাহাদাৎ হোসাইন ও জাহিদ হাসান রাকিবের লেখায় কণ্ঠ দিয়েছেন ন্যানসি। গানের সুর ও সংগীতায়োজন করেছেন হাবিব নিজেই।

হাবিব বলেন, ‌‘এই গান তৈরির প্রক্রিয়া পুরোপুরি ইউনিক এবং নতুন অভিজ্ঞতা আমার জন্য। সবাই এত এত লাইন পোস্ট করেছেন যে আমি আপ্লুত। সবই সুন্দর লাইন। আমি যদি পারতাম, অনেকের লেখা গান নিতাম।’

ন্যানসি বলেন, ‘হাবিব ভাইয়ের সঙ্গে গান গাওয়া সব সময় আনন্দের। এই গান আমার গাওয়ার কথা ছিল না। আর গানের কথা ও গান তৈরির ভাবনাটা আমার খুব ভালো লেগেছে। ছয় জন ছয় প্রান্তে বসে একটি গান লিখেছেন এবং তাদের অনুভূতি এক। দারুণ!’

হাবিব জানান, লিরিকটি তৈরির পর তার মনে হয়েছে, এ গানটি দ্বৈত হওয়া উচিত। তাই ন্যানসিকে যুক্ত করেন। আর গত লকডাউনে গানটির আইডিয়া মাথায় আসে তার। তাই পরিকল্পনা করেছিলেন, লকডাউন থাকা অবস্থায় এটি রিলিজ করার।

সে অনুযায়ী শুক্রবার (৩০ জুলাই) হাবিব ওয়াহিদ নিজের ইউটিউব চ্যানেলে এটি অবমুক্ত হয়। প্রকাশের পর পাচ্ছেন ভালোই সাড়া। যদিও গানের কথার মান নিয়ে প্রশ্ন তুলছেন কেউ কেউ।

/এম/এমএম/

সম্পর্কিত

পুলিশ সদস্যদের নিয়ে স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র

পুলিশ সদস্যদের নিয়ে স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র

আমার সেই কাঙ্ক্ষিত গান এটি: টিনা রাসেল

আমার সেই কাঙ্ক্ষিত গান এটি: টিনা রাসেল

করোনায় অসহায় মানুষের পাশে মৌসুমী ও সুমি  (ভিডিও)

করোনায় অসহায় মানুষের পাশে মৌসুমী ও সুমি  (ভিডিও)

সেই লাকী আক্তারের কণ্ঠে কন্যা ও কান্নার গল্প (ভিডিও)

সেই লাকী আক্তারের কণ্ঠে কন্যা ও কান্নার গল্প (ভিডিও)

পুলিশ সদস্যদের নিয়ে স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র

আপডেট : ৩১ জুলাই ২০২১, ১৭:২৬

চলমান মহামারিতে অন্যতম ফ্রন্টলাইনার হিসেবে দিন-রাত কাজ করছে পুলিশ সদস্যরা। তারা যেমন অতন্দ্র প্রহরী হয়ে মানুষকে জীবনের নিরাপত্তা দিচ্ছেন, তেমনি সচেতন করছেন করোনাভাইরাস থেকে রক্ষার বিষয়ে।

মূলত এমন বিষয়কে উপজীব্য করে সম্প্রতি নির্মিত হলো স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র ‘পাশে আছি’। অপূর্ণ রুবেলের চিত্রনাট্যে এটি নির্মাণ করেছেন বোরহান খান। এতে মূল চরিত্রে অভিনয় করেছেন এলিনা শাম্মী। তারসঙ্গে আরও আছেন বেশ ক’জন পুলিশ সদস্য। 

নাট্যকার অপূর্ণ রুবেল জানান, বাংলাদেশ পুলিশের প্রচেষ্টা ও কিছু জনগণের অসচেতনতার চিত্র ফুটে উঠবে এতে। এটি নির্মাণে সার্বিক সহযোগিতা করেছেন ঢাকা রেঞ্জের ডিআইজি হাবিবুর রহমান। 

নির্মাতা বোরহান বলেন, ‘সম্প্রতি আগার গাঁওয়ের বিভিন্ন লোকেশনে শুটিং হয়েছে চলচ্চিত্রটির। সম্পাদনাও শেষের দিকে। বাংলাদেশ পুলিশের এ কাজটি আশা করি জনগণকে সচেতন হতে ও আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল হতে উৎসাহিত করবে। পুলিশ যে জনগণের প্রকৃত বন্ধু সেটা আবারও মানুষ উপলব্ধি করবে।’

‘জানোয়ার’-খ্যাত ওয়েব ফিল্মের অভিনেত্রী এলিনা শাম্মী বলেন, ‘স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রটিতে সমাজ সচেতনতার জন্য একটা বার্তা আছে। তাই কাজটি খুব আগ্রহের সাথে করেছি। আর এ কাজটি করতে গিয়ে আমি প্রথমবারের মতো গাড়ি চালানো শিখেছি!’

শুটিংয়ের ফাঁকে সংশ্লিটদের ফটোশুট চলচ্চিত্রটিতে পুলিশ সদস্যদের সরব উপস্থিতি রয়েছে। দায়িত্বশীল পুলিশ অফিসার চরিত্রে অভিনয় করেছেন রাজধানীর শের-এ বাংলা থানার ইনস্পেক্টর আবুল কালাম আজাদ। তিনি বলেন, ‘জনগণকে সুরক্ষিত রাখতে আমরা পুলিশ বাহিনী সদা তৎপর। কিন্তু একটু এদিক-সেদিক হলে দিন শেষে সমস্ত দায়ভার আমাদেরই নিতে হয়। তবুও চাই দেশের জনগণ সুস্থ থাকুক, নিরাপদ থাকুক, ভাল থাকুক। তাই তাদের জন্যই এ কাজে অংশ নেওয়া।’ 

শিগগিরই পুলিশের উদ্যোগে বিভিন্ন ডিজিটাল মাধ্যমে এটি প্রচার করা হবে বলে জানা যায়।

/এমএম/

সম্পর্কিত

৬ ভক্তের কথায় হাবিব-ন্যানসির সেই গান (ভিডিও)

৬ ভক্তের কথায় হাবিব-ন্যানসির সেই গান (ভিডিও)

আমার সেই কাঙ্ক্ষিত গান এটি: টিনা রাসেল

আমার সেই কাঙ্ক্ষিত গান এটি: টিনা রাসেল

করোনায় অসহায় মানুষের পাশে মৌসুমী ও সুমি  (ভিডিও)

করোনায় অসহায় মানুষের পাশে মৌসুমী ও সুমি  (ভিডিও)

সেই লাকী আক্তারের কণ্ঠে কন্যা ও কান্নার গল্প (ভিডিও)

সেই লাকী আক্তারের কণ্ঠে কন্যা ও কান্নার গল্প (ভিডিও)

বন্ধু দিবসে কলকাতার রূপঙ্কর ও ঢাকার আফরোজা

আপডেট : ৩১ জুলাই ২০২১, ১৪:৩৪

প্রথমবারের মতো কলকাতার রূপঙ্কর বাগচির সঙ্গে গাইলেন ঢাকার কণ্ঠশিল্পী আফরোজা মোমেন। 

‘তোমায় ছাড়া’ শিরোনামের এই গানে কণ্ঠ দেয়ার পাশাপাশি গানটির ভিডিওচিত্রেও দু’জনে অংশ নিয়েছেন। ভিডিওটি চিত্রায়িত হয়েছে কলকাতা, গাজীপুর ও কক্সবাজারে। ওয়ালিদ আহমেদের কথা ও ভিডিও পরিচালনায় গানটির সুর ও সংগীত পরিচালনা করেছেন রূপঙ্কর বাগচী। 

সাদামাটা প্রোডাকশনের ব্যানারে গানটি মুক্তি পাচ্ছে ১ আগস্ট, বন্ধু দিবসে।

কলকাতা থেকে রূপঙ্কর বাগচী বলেন, ‘বন্ধু দিবস উপলক্ষে বাংলাদেশে আমার দ্বৈত গানটি মুক্তি পাচ্ছে জেনে ভালো লাগছে। আশা করছি, শ্রোতারা গানটি পছন্দ করবেন।’

আফরোজা মোমেন বলেন, ‘পারিবারিকভাবে আমাদের বাসায় গানের চর্চা ছিল। গানের মাঝেই আমার বেড়ে ওঠা। রূপঙ্কর বাগচীর মতো গুণী ও মেধাবী শিল্পীর সঙ্গে কাজ করতে পেরে আমি আনন্দিত।’

প্রসঙ্গত, কর্মজীবনে চিকিৎসক হলেও আফরোজা মোমেন সংগীত চর্চা করছেন প্রায় একযুগ ধরে। ইতিমধ্যে তার বেশ কয়েকটি গান ও মিউজিক ভিডিও দর্শকপ্রিয়তা পেয়েছে। 

/এমএম/

সম্পর্কিত

শ্রমিকদের ফ্যাক্টরিতে আসতে বলে তোপের মুখে অনন্ত!

শ্রমিকদের ফ্যাক্টরিতে আসতে বলে তোপের মুখে অনন্ত!

‘রঞ্জনা’র পর ‘বেলা বোস’: থাকছে না সেই টেলিফোন!

‘রঞ্জনা’র পর ‘বেলা বোস’: থাকছে না সেই টেলিফোন!

৬ ভক্তের কথায় হাবিব-ন্যানসির সেই গান (ভিডিও)

৬ ভক্তের কথায় হাবিব-ন্যানসির সেই গান (ভিডিও)

পুলিশ সদস্যদের নিয়ে স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র

পুলিশ সদস্যদের নিয়ে স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র

সর্বশেষ

এখনও শেষ হয়নি বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডের বিচার

এখনও শেষ হয়নি বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডের বিচার

মানবতাবিরোধী অপরাধ করছে মিয়ানমার জান্তা

মানবতাবিরোধী অপরাধ করছে মিয়ানমার জান্তা

উচ্ছেদ হবেন লাখ লাখ মার্কিনি!

উচ্ছেদ হবেন লাখ লাখ মার্কিনি!

আগস্টের প্রথম প্রহরে শত আলো জ্বললো

আগস্টের প্রথম প্রহরে শত আলো জ্বললো

বিক্ষোভে উত্তাল ফ্রান্স

বিক্ষোভে উত্তাল ফ্রান্স

‘দূরপাল্লার বাসে শ্রমিকরা আসতে চাইলে, সেই বাস পুলিশ ধরবে না’

‘দূরপাল্লার বাসে শ্রমিকরা আসতে চাইলে, সেই বাস পুলিশ ধরবে না’

কর্মস্থলে ফেরা হলো না ২ পোশাকশ্রমিকের

কর্মস্থলে ফেরা হলো না ২ পোশাকশ্রমিকের

ফের বাবা হচ্ছেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী

ফের বাবা হচ্ছেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী

শিক্ষার্থীদের স্কুলে এনে সশরীরে পরীক্ষা নেওয়ার অভিযোগ

শিক্ষার্থীদের স্কুলে এনে সশরীরে পরীক্ষা নেওয়ার অভিযোগ

কারখানা খুলতে মানতে হবে ১৫ শর্ত

কারখানা খুলতে মানতে হবে ১৫ শর্ত

শিবচরে ট্রাক খাদে পড়ে নিহত ৪

শিবচরে ট্রাক খাদে পড়ে নিহত ৪

আরেক মামলায় হেলেনা জাহাঙ্গীরের ৭ দিনের রিমান্ড চায় পুলিশ

আরেক মামলায় হেলেনা জাহাঙ্গীরের ৭ দিনের রিমান্ড চায় পুলিশ

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

শ্রমিকদের ফ্যাক্টরিতে আসতে বলে তোপের মুখে অনন্ত!

শ্রমিকদের ফ্যাক্টরিতে আসতে বলে তোপের মুখে অনন্ত!

‘রঞ্জনা’র পর ‘বেলা বোস’: থাকছে না সেই টেলিফোন!

‘রঞ্জনা’র পর ‘বেলা বোস’: থাকছে না সেই টেলিফোন!

৬ ভক্তের কথায় হাবিব-ন্যানসির সেই গান (ভিডিও)

৬ ভক্তের কথায় হাবিব-ন্যানসির সেই গান (ভিডিও)

পুলিশ সদস্যদের নিয়ে স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র

পুলিশ সদস্যদের নিয়ে স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র

বন্ধু দিবসে কলকাতার রূপঙ্কর ও ঢাকার আফরোজা

বন্ধু দিবসে কলকাতার রূপঙ্কর ও ঢাকার আফরোজা

পজিটিভ ফারুকী, নেগেটিভ তিশা

পজিটিভ ফারুকী, নেগেটিভ তিশা

প্রসূন-ফারহানের বিয়ে হলো মসজিদ ও বাসায়

প্রসূন-ফারহানের বিয়ে হলো মসজিদ ও বাসায়

উন্মুক্ত হলো ফিরোজা বেগম আর্কাইভ

উন্মুক্ত হলো ফিরোজা বেগম আর্কাইভ

আমার সেই কাঙ্ক্ষিত গান এটি: টিনা রাসেল

আমার সেই কাঙ্ক্ষিত গান এটি: টিনা রাসেল

বন্ধু দিবসে নকশীকাঁথার নতুন গান

বন্ধু দিবসে নকশীকাঁথার নতুন গান

© 2021 Bangla Tribune