X
সোমবার, ১৯ এপ্রিল ২০২১, ৬ বৈশাখ ১৪২৮

সেকশনস

ছাত্র-শিক্ষক অনুপাতে আন্তর্জাতিক মান নেই জবিতে

আপডেট : ০২ মার্চ ২০২১, ০০:৩২

শিক্ষক-শিক্ষার্থী অনুপাতে আন্তর্জাতিক মান নেই জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে (জবি)। কিছু বিভাগে অনুপাত ঠিক থাকলেও সিংহভাগ বিভাগেই নেই শিক্ষার্থী অনুপাতে পর্যাপ্ত শিক্ষক।

এমন পরিস্থিতির জন্য আঙুল উঠছে শিক্ষক নিয়োগে গড়িমসির দিকে। তবে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন দুষছে ইউজিসিকে। কিন্তু অনেক বিভাগেরই নেই নতুন শিক্ষক নিয়োগে আগ্রহ কিংবা তোড়জোড়।

আন্তর্জাতিকভাবে উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-শিক্ষার্থী অনুপাতের ন্যূনতম মানদণ্ড ধরা হয় ১ঃ২০। অর্থাৎ প্রতি ২০ জন শিক্ষার্থীর বিপরীতে শিক্ষক থাকবেন অন্তত একজন। জাতীয় পর্যায়েও দেশের সবাই উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে মানদণ্ড অনুসরণে উৎসাহিত করে আসছে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি)।

ইউজিসির সর্বশেষ বার্ষিক প্রতিবেদনে দেখা যায়, জবিতে শিক্ষক-শিক্ষার্থী অনুপাত ১ঃ২৪। প্রতিবেদন অনুযায়ী আপাতদৃষ্টিতে এই অনুপাত সম্ভাবনাময় মনে হয়। তবে প্রদীবের নিচেই অন্ধকার। কেননা কিছু বিভাগে পর্যাপ্ত শিক্ষক থাকলেও বেশকিছু বিভাগে গুটিকয়েক শিক্ষকই ভরসা। বছরের পর শিক্ষক নিয়োগ হচ্ছে না বিভাগগুলোতে। ফলে ব্যহত হচ্ছে ক্লাস-পরীক্ষা ও গবেষণা।

ইউজিসি প্রতিবেদন থেকে দেখা যায়, জবির ৩৮টি বিভাগের মধ্যে আন্তর্জাতিক মান আছে মাত্র ১১টি বিভাগে। যা বিশ্ববিদ্যালয়ের মোট বিভাগের এক-তৃতীয়াংশেরও অনেক কম। এছাড়াও প্রতিবেদনে প্রকাশিত জবির শিক্ষক-শিক্ষার্থী অনুপাত ১ঃ২৪ এর মধ্যে আছে সর্বমোট ১৮ টি বিভাগ। যা জবির বিভাগগুলোর অর্ধেকেরও কম। এছাড়াও এরমধ্যে আছে অনেকগুলো নতুন বিভাগও। এই বিভাগগুলো ছাড়া ১ঃ২৫ থেকে ৩০ এর মধ্যে রয়েছে ১০ টি বিভাগ।

বাকি ১০ টি বিভাগের মধ্যে একজন শিক্ষকের বিপরীতে শিক্ষার্থীর সংখ্যা, শিক্ষা ও গবেষণা ইন্সটিটিউটে ৩৯, আইন বিভাগে ৩৬, ভূমি ব্যবস্থাপনা ও আইন বিভাগে ৩৫, লোক প্রশাসন বিভাগে ৩৩, ফিল্ম অ্যান্ড টেলিভিশন বিভাগে ৩৩, মার্কেটিং বিভাগে ৩৫, ফিন্যান্স বিভাগে ৪১ , ম্যানেজমেন্ট বিভাগে ৪৪, অ্যাকাউন্টিং ৩৯, ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগে ৩১।

এ বিষয়ে ফিন্যান্স বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ মঞ্জুর মুর্শেদ ভূঁইয়া বলেন, 'আমাদের বিভাগের সবগুলো পোস্ট পূর্ণ হয়ে গেছে, ফলে আমরা শিক্ষক নিয়োগ দিতে পারছি না। তবে আমরা নতুন পোস্টের জন্য প্রশাসনকে জানাইনি। আমরা কোর্স অনুযায়ী ক্লাস ভাগ করে নেওয়ায় ফলে আমাদের একজন টিচারকে দুইটার বেশি কোর্স পড়াতে হচ্ছে না, ফলে আমাদের সপ্তাহে ৬ ঘন্টা ক্লাস নিতে হচ্ছে। এমতাবস্থায় আমরা প্রশাসনের কাছে আবেদন করলে তারা মনে করতে পারে এটা অপ্রয়োজনীয়।'

আইন বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ড. সরকার আলী আক্কাস বলেন, 'আমাদের সাফার অনেক বেশি হওয়ায় আগে ১০০ হলেও এখন ৮০ জন ভর্তি নিচ্ছি। সমস্যা হলো আমাদের পোস্ট নেই। গত সিন্ডিকেটেও আমাদের ১ জন লেকচারার খালি হয়েছে, আগামী সিন্ডিকেটে দুজন খালি হবে তখন আমরা আবার নিয়োগ দিতে পারবো।'

ভূমি ব্যবস্থাপনা ও আইন বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ড. খ্রীষ্টিন রিচার্ডসন বলেন, 'ইউজিসি থেকে আমাদের শিক্ষক সংখ্যা অনুমোদন করা আছে, এরবাইরে শিক্ষক নেওয়া সুযোগ আমাদের নেই। বিভাগের শিক্ষক বাড়াতে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে চিঠি দেওয়া হয়েছে।'

শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. নূর আলম আবদুল্লাহ বলেন, 'আমরা চাই আরও শিক্ষক নিয়োগ হোক, আরও শিক্ষক নিয়োগের পরিবেশ তৈরি হোক। কিন্ত অধিকাংশ বিভাগেই পোস্ট খালি নেই। বিভাগগুলোকেই এক্ষেত্রে পোস্টের জন্য আবেদন করতে হবে প্রশাসনের কাছে।'

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপচার্য অধ্যাপক ড. মীজানুর রহমান বলেন, 'আমাদের পোস্ট বেশি বাকি নেই। বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার সময় আমাদের যে অর্গানোগ্রাম ছিলো সেটার মেয়াদ গত বছর শেষ হয়ে গেছে। কিন্তু অর্গানোগ্রাম অনুযায়ী আমরা শিক্ষক নিয়োগ দিতে পারিনি। ইউজিসি সেভাবে ছাড় দেয়নি, যেহেতু তারা তাদের আর্থিক বিষয়গুলো দেখে ছাড় দেয়। অর্গানোগ্রাম অনুযায়ী শিক্ষক নিয়োগ দিতে পারলে অনুপাতটা নিয়ন্ত্রণে আসতো।' 
/এনএ/

সর্বশেষ

করোনায় আক্রান্ত ও মৃতের নতুন রেকর্ড ভারতের

করোনায় আক্রান্ত ও মৃতের নতুন রেকর্ড ভারতের

করোনায় স্বাস্থ্য সমস্যায় বিটিভির অনুষ্ঠান

করোনায় স্বাস্থ্য সমস্যায় বিটিভির অনুষ্ঠান

আরও ৭ দিন বাড়লো লকডাউন

আরও ৭ দিন বাড়লো লকডাউন

৩০টি কবর আগে থেকেই খুঁড়ে রাখা

৩০টি কবর আগে থেকেই খুঁড়ে রাখা

ইবাদত করার উপযোগী জায়গায় রাখার আবেদন মামুনুলের 

ইবাদত করার উপযোগী জায়গায় রাখার আবেদন মামুনুলের 

সুপার লিগ নিয়ে ইউরোপে তোলপাড়

সুপার লিগ নিয়ে ইউরোপে তোলপাড়

লকডাউন এক সপ্তাহ বাড়ানোর কথা ভাবা হচ্ছে: কাদের

লকডাউন এক সপ্তাহ বাড়ানোর কথা ভাবা হচ্ছে: কাদের

মুগ্ধতা ছড়াচ্ছে দুষ্প্রাপ্য মণিরাজ ফুল

মুগ্ধতা ছড়াচ্ছে দুষ্প্রাপ্য মণিরাজ ফুল

৭ দিনের রিমান্ডে মামুনুল

৭ দিনের রিমান্ডে মামুনুল

বাস ছাড়া সবই চলে!

বাস ছাড়া সবই চলে!

সৌদিতে ১৭ মে থেকে আন্তর্জাতিক ফ্লাইট চলাচল শুরু

সৌদিতে ১৭ মে থেকে আন্তর্জাতিক ফ্লাইট চলাচল শুরু

হাসপাতালে হৃদরোগে আক্রান্ত মুরালিধরন  

হাসপাতালে হৃদরোগে আক্রান্ত মুরালিধরন  

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ইউজিসির অভিন্ন নীতিমালা প্রত্যাখ্যান কুবি শিক্ষক সমিতির

ইউজিসির অভিন্ন নীতিমালা প্রত্যাখ্যান কুবি শিক্ষক সমিতির

চিকিৎসায় সহযোগিতার আহ্বান শাবির সাবেক শিক্ষার্থী সুব্রতর

চিকিৎসায় সহযোগিতার আহ্বান শাবির সাবেক শিক্ষার্থী সুব্রতর

দশম বর্ষে পা রাখলো থিয়েটার কুবি

দশম বর্ষে পা রাখলো থিয়েটার কুবি

হাজী দানেশ প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীর আন্তর্জাতিক পুরস্কার অর্জন

হাজী দানেশ প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীর আন্তর্জাতিক পুরস্কার অর্জন

ভার্চুয়াল উদযাপনে নতুন বছরকে বরণ করলো জবি

ভার্চুয়াল উদযাপনে নতুন বছরকে বরণ করলো জবি

কুবি ইনজিনিয়াস প্ল্যাটফর্মের নেতৃত্বে সিফাত-মামুন

কুবি ইনজিনিয়াস প্ল্যাটফর্মের নেতৃত্বে সিফাত-মামুন

রাবিতে ড্রাগ ডিজাইন বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত

রাবিতে ড্রাগ ডিজাইন বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত

ভর্তির কার্যক্রম শুরু করলো চবি

ভর্তির কার্যক্রম শুরু করলো চবি

কুবিতে উত্তরপত্র হারিয়ে ফেলার তদন্ত শেষ হয়নি দুই মাসেও

কুবিতে উত্তরপত্র হারিয়ে ফেলার তদন্ত শেষ হয়নি দুই মাসেও

৩০ কোটি টাকার টেন্ডার নিয়ে জবি ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের হাতাহাতি

৩০ কোটি টাকার টেন্ডার নিয়ে জবি ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের হাতাহাতি

Bangla Tribune is one of the most revered online newspapers in Bangladesh, due to its reputation of neutral coverage and incisive analysis.
© 2021 Bangla Tribune