X
বুধবার, ২৩ জুন ২০২১, ৯ আষাঢ় ১৪২৮

সেকশনস

৫০ বছরের অপেক্ষার পর!

আপডেট : ০৬ জুন ২০২১, ২১:০৭

জাপানের মিয়াজাকি এলাকায় একটি সিডার বনে কয়েক ধাপে বৃত্তাকারে ছড়িয়ে আছে কয়েকটি গাছ। স্বাভাবিকভাবেই ধরে নেওয়া যায় এগুলো প্রাকৃতিকভাবে গড়ে ওঠেনি।

এই অদ্ভুত নিদর্শন শুধু ওপর থেকে দেখা যায়। তিন বছর ইন্টারনেটে ছবিগুলো আলোড়ন তুলেছিল। ভিন গ্রহবাসী থেকে শুরু করে সরকারের গোপন পরীক্ষার ষড়যন্ত্র তত্ত্ব হাজির হয়েছিল। শেষ পর্যন্ত সরকারি পরীক্ষার তত্ত্বই সঠিক বলে জানা যাচ্ছে। তবে এটি কোনও গোপন বিষয় ছিল না। আর পরীক্ষাটি চালিয়েছে জাপানের কৃষি, বন ও মৎস্য মন্ত্রণালয়।

নিচিনান শহরের কাছের একটি এলাকাকে ১৯৭৩ সালে পরীক্ষামূলক বনাঞ্চল হিসেবে ঘোষণা করা হয়। আর সেই পরীক্ষার ফলাফলই এখন দৃশ্যমান হচ্ছে।

সেখানে যেসব পরীক্ষা চালানো হয় সেগুলোর একটি ছিল বেড়ে ওঠার সঙ্গে গাছের অবস্থানের দূরত্বের প্রভাব নির্ণয়। তারা সিডার গাছ একটি থেকে আরেকটির দূরত্ব দশ ডিগ্রি বাড়িয়ে সমকেন্দ্রিক বৃত্তাকারে রোপণ করে।

৫০ বছর পর দেখা গেছে, ঘনত্ব গাছের বেড়ে ওঠার ক্ষেত্রে প্রভাব ফেলে। যেখানে গাছের ঘনত্ব বেশি সেগুলো কম দীর্ঘ। বাইরের বৃত্তের গাছগুলোর ঘনত্ব কম, সেগুলো দীর্ঘ হয়েছে বেশি। এতে সব মিলিয়ে অবতলের মতো দেখতে হয়েছে গাছগুলো।

জাপানের কৃষি মন্ত্রণালয় জানায়, সমকেন্দ্রিক বৃত্তাকারের মাঝখানে সবচেয়ে ছোট ও বাইরের বৃত্তাকারের লম্বা গাছটির পার্থক্য ৫ মিটার।

 

/এএ/এমওএফ/

সম্পর্কিত

তালেবানের ক্রমবর্ধমান প্রভাব নিয়ে সতর্কতা জাতিসংঘ দূতের

তালেবানের ক্রমবর্ধমান প্রভাব নিয়ে সতর্কতা জাতিসংঘ দূতের

ইরানের নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্টকে নিয়ে যা বললো সৌদি আরব

ইরানের নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্টকে নিয়ে যা বললো সৌদি আরব

রাজতন্ত্র অবমাননায় অভিযুক্ত কম্বোডিয়ার ৩ অ্যাক্টিভিস্ট

রাজতন্ত্র অবমাননায় অভিযুক্ত কম্বোডিয়ার ৩ অ্যাক্টিভিস্ট

মিয়ানমারে সেনাবাহিনীর সঙ্গে জান্তাবিরোধীদের সংঘর্ষ, নিহত ৪

মিয়ানমারে সেনাবাহিনীর সঙ্গে জান্তাবিরোধীদের সংঘর্ষ, নিহত ৪

চার বছর পর কাতারে সৌদি রাষ্ট্রদূত

চার বছর পর কাতারে সৌদি রাষ্ট্রদূত

রায়িসির কারণে ভেস্তে যেতে পারে ইরানের পরমাণু আলোচনা?

রায়িসির কারণে ভেস্তে যেতে পারে ইরানের পরমাণু আলোচনা?

আফগানিস্তান থেকে সামরিক উপস্থিতি প্রত্যাহার নিয়ে যা বললো পেন্টাগন

আফগানিস্তান থেকে সামরিক উপস্থিতি প্রত্যাহার নিয়ে যা বললো পেন্টাগন

টিকা না নিলে জেলে পাঠানোর হুমকি

টিকা না নিলে জেলে পাঠানোর হুমকি

৮৩ বছরের বৃদ্ধা যখন ফিটনেস আইকন

৮৩ বছরের বৃদ্ধা যখন ফিটনেস আইকন

আফগানিস্তানে যুক্তরাষ্ট্র ব্যর্থ হয়েছে: হামিদ কারজাই

আফগানিস্তানে যুক্তরাষ্ট্র ব্যর্থ হয়েছে: হামিদ কারজাই

৮০০ কেজি গোবর চুরি, তদন্তে পুলিশ

৮০০ কেজি গোবর চুরি, তদন্তে পুলিশ

মস্কোয় মিয়ানমারের জান্তাপ্রধান

মস্কোয় মিয়ানমারের জান্তাপ্রধান

সর্বশেষ

এই দেশে সন্ত্রাসীদের কোনও স্থান নেই: নওফেল

এই দেশে সন্ত্রাসীদের কোনও স্থান নেই: নওফেল

সমালোচক হয়েও বোর্ডের দায়িত্বে ড্যারেন স্যামি!

সমালোচক হয়েও বোর্ডের দায়িত্বে ড্যারেন স্যামি!

মিজান ও বাছিরের বিরুদ্ধে সাক্ষ্যগ্রহণ আগামী ২৯ জুন

মিজান ও বাছিরের বিরুদ্ধে সাক্ষ্যগ্রহণ আগামী ২৯ জুন

ভ্যাকসিন কিনতে ৯৪ কোটি ডলার ঋণ দিচ্ছে এডিবি

ভ্যাকসিন কিনতে ৯৪ কোটি ডলার ঋণ দিচ্ছে এডিবি

সৃজিতের ছবিতে তাপসী পান্নু

সৃজিতের ছবিতে তাপসী পান্নু

হিলিতে ফের বাড়লো পেঁয়াজের দাম

হিলিতে ফের বাড়লো পেঁয়াজের দাম

কিশোরের পিতৃপরিচয় নিশ্চিত করলো পুলিশ

কিশোরের পিতৃপরিচয় নিশ্চিত করলো পুলিশ

ফেঁসে যাচ্ছেন পরীমণি?

ফেঁসে যাচ্ছেন পরীমণি?

শিরোপা লড়াই থেকে ছিটকে গেলো সাকিবের মোহামেডান

শিরোপা লড়াই থেকে ছিটকে গেলো সাকিবের মোহামেডান

যশোরে আরও ৮ মৃত্যু, বেড়েছে লকডাউনের মেয়াদ

যশোরে আরও ৮ মৃত্যু, বেড়েছে লকডাউনের মেয়াদ

ডিউটিভ্যানেই মারা গেলেন পুলিশ কনস্টেবল

ডিউটিভ্যানেই মারা গেলেন পুলিশ কনস্টেবল

ফ্রান্স-পর্তুগাল ম্যাচ কখন, দেখবেন কোথায়  

ফ্রান্স-পর্তুগাল ম্যাচ কখন, দেখবেন কোথায়  

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

তালেবানের ক্রমবর্ধমান প্রভাব নিয়ে সতর্কতা জাতিসংঘ দূতের

তালেবানের ক্রমবর্ধমান প্রভাব নিয়ে সতর্কতা জাতিসংঘ দূতের

ইরানের নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্টকে নিয়ে যা বললো সৌদি আরব

ইরানের নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্টকে নিয়ে যা বললো সৌদি আরব

রাজতন্ত্র অবমাননায় অভিযুক্ত কম্বোডিয়ার ৩ অ্যাক্টিভিস্ট

রাজতন্ত্র অবমাননায় অভিযুক্ত কম্বোডিয়ার ৩ অ্যাক্টিভিস্ট

মিয়ানমারে সেনাবাহিনীর সঙ্গে জান্তাবিরোধীদের সংঘর্ষ, নিহত ৪

মিয়ানমারে সেনাবাহিনীর সঙ্গে জান্তাবিরোধীদের সংঘর্ষ, নিহত ৪

চার বছর পর কাতারে সৌদি রাষ্ট্রদূত

চার বছর পর কাতারে সৌদি রাষ্ট্রদূত

রায়িসির কারণে ভেস্তে যেতে পারে ইরানের পরমাণু আলোচনা?

রায়িসির কারণে ভেস্তে যেতে পারে ইরানের পরমাণু আলোচনা?

আফগানিস্তান থেকে সামরিক উপস্থিতি প্রত্যাহার নিয়ে যা বললো পেন্টাগন

আফগানিস্তান থেকে সামরিক উপস্থিতি প্রত্যাহার নিয়ে যা বললো পেন্টাগন

টিকা না নিলে জেলে পাঠানোর হুমকি

টিকা না নিলে জেলে পাঠানোর হুমকি

৮৩ বছরের বৃদ্ধা যখন ফিটনেস আইকন

৮৩ বছরের বৃদ্ধা যখন ফিটনেস আইকন

আফগানিস্তানে যুক্তরাষ্ট্র ব্যর্থ হয়েছে: হামিদ কারজাই

আফগানিস্তানে যুক্তরাষ্ট্র ব্যর্থ হয়েছে: হামিদ কারজাই

© 2021 Bangla Tribune