X
রবিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ৪ আশ্বিন ১৪২৮

সেকশনস

তারিনের অন্তর্জাল আসক্তি!

আপডেট : ১৩ জুলাই ২০২১, ১৮:২৫

একাকিত্ব ঘোচাতে অন্তর্জালে আসক্তি, এরপর কিছু ভুল- এমনই এক গল্প নিয়ে নির্মিত হলো বিটিভির ঈদের নাটক ‘গৃহমায়া’। এর প্রধান চরিত্রে অভিনয় করলেন তারিন জাহান। 

বিটিভির মহাপরিচালক সোহরাব হোসেনের গল্প ভাবনায় নাটকটি রচনা করেছেন চয়নিকা চৌধুরী। নির্দেশনা ও প্রযোজনা মাহফুজা আক্তার।

নাটকটির গল্প প্রসঙ্গে মাহফুজা জানান, মোবাইল ফোন আর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম আমূল বদলে দিয়েছে মানুষের জীবন। জীবনে এখন যেমন প্রযুক্তির ছোঁয়া প্রতি পদে পদে তেমনি এর বিরূপ প্রভাব ডেকে আনে কালো মেঘের ছায়া। একই ছাদের নিচে থেকেও যেন অনেক দূরে হয়ে যায় পরস্পরের অবস্থান। সেই দূরত্বের সুযোগে নেমে আসে অশনির থাবা। যেমনটা হয়েছে মায়ার জীবনে। মায়া ঘর বেঁধেছে আসিফের সঙ্গে। আসিফ অফিস নিয়ে ব্যস্ত। এদিকে মায়ার সময় কাটে না। ধীরে ধীরে তার আসক্তি বাড়ে অন্তর্জালে। মায়ার সঙ্গে ফেসবুকে যোগাযোগ হয় এক যুবকের। সেই যুবক সুযোগ নেয় মায়ার অসহায়ত্বের। এগিয়ে যায় গল্প।

এতে অভিনয় প্রসঙ্গে তারিন বলেন, ‘নাটকের গল্পটি খুবই সুন্দর। একদম সময়োপযোগী। গল্পটি মানুষকে বিনোদিত করবে, আবার বোধোদয় ঘটাবে।’

নাটকের অন্যান্য চরিত্রে আরও অভিনয় করেছেন আল মামুন, মিলি বাশার, নাঈম, নাবিলা, ইভান প্রমুখ। প্রচার হবে ঈদের তৃতীয় দিন রাত ৯টায়।

/এমএম/এমওএফ/

সম্পর্কিত

২৮ জুলাই মুক্তি পাচ্ছে তাদের সিনেমা ‘‌সাহসিকা’

২৮ জুলাই মুক্তি পাচ্ছে তাদের সিনেমা ‘‌সাহসিকা’

মামলা করতে আদালতে জেমস

আপডেট : ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৪:৩৯

কপিরাইট আইন লঙ্ঘনের অভিযোগ নিয়ে নিজের গান সুরক্ষার জন্য মামলা দায়ের করতে আদালতে গেছেন নগরবাউল জেমস।

রবিবার (১৯ সেপ্টেম্বর) সকাল ১১টার দিকে ঢাকা মহানগর দায়রা জজ ইমরুল কায়েসের আদালতে জেমসের আইনজীবী তাপস কুমার এই মামলার আবেদন করেন। এসময় জেমস নিজেও সরাসরি উপস্থিত ছিলেন। এরপর আদালত মামলাটি ফিরিয়ে দিয়ে থানায় যাওয়ার নির্দেশ দেন জেমসকে। 

বিষয়টি বাংলা ট্রিবিউনকে নিশ্চিত করেছেন জেমসের আইনজীবী তাপস কুমার।

অন্যদিকে আদালতের রাষ্ট্রপক্ষের পাবলিক প্রসিকিউটর তাপস কুমার পাল বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘বাংলালিংকের বিরুদ্ধে কপিরাইট আইনে মামলার আবেদন করতে আসেন জেমস। কিন্তু আদালত মামলাটি ফিরিয়ে দিয়ে গুলশান থানায় গিয়ে মামলাটি করার জন্য নির্দেশ দিয়েছেন। এছাড়াও আদালত বলেছেন, থানায় যদি মামলাটি না নেয় তাহলে আবার আদালতে এসে মামলাটি আবেদন করার জন্য।’

আদালত প্রাঙ্গণে জেমস তবে এই বিষয়ে জেমস কোনও মন্তব্য করেননি। তার ম্যানেজার রুবাইয়াৎ ঠাকুর রবিন বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘আমরা আদালতে গিয়েছি একটি কপিরাইট ইস্যু নিয়ে। আইনি আলাপ করেছি আইনজীবীদের সঙ্গে। কিছু দিকনির্দেশনা পেয়েছি। সে হিসেবে সামনের পরিকল্পনা করছি।’

জানা গেছে, জেমসের অসংখ্য গান এখনও বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান বিনা অনুমতিতে বাণিজ্যিক ব্যবহার করে আসছে। এসব বিষয়ে কোনও সুরাহা না পেয়েই এবার আইনের আশ্রয়ে যাচ্ছেন জেমস।

/এমএইচজে/এমএম/

সম্পর্কিত

নায়ককে নিয়ে শাবনূরের আবেগঘন স্মরণ

নায়ককে নিয়ে শাবনূরের আবেগঘন স্মরণ

নেটফ্লিক্সে দেখুন ক্লাসিক পাঁচ কমেডি

নেটফ্লিক্সে দেখুন ক্লাসিক পাঁচ কমেডি

তিনি ইতিহাসের অন্যতম শ্রেষ্ঠ নায়ক: শাকিব খান

তিনি ইতিহাসের অন্যতম শ্রেষ্ঠ নায়ক: শাকিব খান

গেয়েও মুগ্ধ করলেন জয়া আহসান (ভিডিও)

গেয়েও মুগ্ধ করলেন জয়া আহসান (ভিডিও)

৫০-এ সালমান শাহ

নায়ককে নিয়ে শাবনূরের আবেগঘন স্মরণ

আপডেট : ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৩:৪৬

সালমান শাহ- বলা হয় বাংলা চলচ্চিত্রের বরপুত্র। সিনেমায় সবচেয়ে রোমান্টিক নায়কদের অন্যতম তিনি। রূপালি পর্দায় শাবনূরকে নিয়ে জুটি বেঁধে দিয়েছিলেন একের পর এক ব্যবসাসফল ও নন্দিত ছবি। 

সফল জুটি হিসেবেও তারা সবার উপরেই থাকবেন। আজ (১৯ সেপ্টেম্বর) সালমান শাহর জন্মদিনে তাকে নিয়ে আবেগঘন শুভেচ্ছা জানালেন শাবনূর।

অস্ট্রেলিয়া থেকে এক ভিডিওবার্তায় নিজের সহকর্মীকে নানা বিশেষণে তুলে ধরার চেষ্টা করেন তিনি।

শাবনূর বলেন, ‌‘সালমান শাহ- এমন একটি নাম যার সঙ্গে জড়িয়ে আছে সোনালি সময়। অতি অল্প সময়ে অগণিত ভক্তের মাঝে নিজেকে বিলিয়ে দিয়ে গেছেন। প্রতিবছর এদিন কোটি ভক্তের হৃদয় আলোড়িত করে সালমান শাহ ফিরে আসেন ক্ষণিকের জন্য। অকাতর ভালোবাসা অঞ্জলি নিয়ে ফিরে যান অযুত নক্ষত্র ভিড়ে। ভালো থেকো সালমান শাহ, প্রতিদিন; যেখানেই আছো।’

আজ (১৯ সেপ্টেম্বর) ঢালিউডের ক্ষণজন্মা নক্ষত্র সালমান শাহের ৫০তম জন্মদিন। ১৯৭১ সালের এই দিনে নানার বাড়ি সিলেটের জকিগঞ্জে তার জন্ম। মৃত্যু ১৯৯৬ সালের ৬ সেপ্টেম্বর। মাত্র ২৫ বছরের জীবন।

মাত্র চার বছরে ২৭টি ছবিতে অভিনয় করেছেন। সব শ্রেণির দর্শক-সমালোচকদের মন জয় করে তারকা হওয়ার জন্য সময়টা যথেষ্ট নয়। এরমধ্যে প্রায় দশটি অসমাপ্ত ছবি। প্রথম ছবি ‘কেয়ামত থেকে কেয়ামত’ থেকেই দর্শকদের মনে জায়গা করে নিয়েছিলেন।

১৯৮৫/৮৬ সালের দিকে হানিফ সংকেতের গ্রন্থনায় ‘কথার কথা’ নামে একটি ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান প্রচার হতো। এর কোনও একটি পর্বে ‘নামটি ছিল তার অপূর্ব’ নামের একটি গানের মিউজিক ভিডিও পরিবেশিত হয়। হানিফ সংকেতের কণ্ঠে গাওয়া এই মিউজিক ভিডিওতে মডেল হওয়ার মাধ্যমেই সালমান শাহ মিডিয়ায় প্রথম সবার নজর কাড়েন। তখন অবশ্য তিনি ইমন নামেই পরিচিত ছিলেন।

আরও কয়েক বছর পর প্রয়াত নাট্যজন আব্দুল্লাহ আল মামুনের প্রযোজনায় ‘পাথর সময়’ ধারাবাহিক নাটকে একটি ছোট চরিত্র এবং কয়েকটি বিজ্ঞাপনচিত্রেও কাজ করেছিলেন। তবে রুপালি পর্দায় সালমান সাম্রাজ্যের সূচনা হয় ৯০ দশকের শুরুর দিকে সোহানুর রহমান সোহানের ‘কেয়ামত থেকে কেয়ামত’ ছবির মধ্য দিয়ে। বাকিটা ইতিহাস।

গায়ক হিসেবেও সালমানের পরিচিতি ছিল। ছোটবেলা থেকেই শিল্প-সংস্কৃতির প্রতি দারুণ আগ্রহ ছিল তার। বন্ধুমহলে সবাই তাকে কণ্ঠশিল্পী হিসেবে চিনতেন। ১৯৮৬ সালে ছায়ানট থেকে পল্লীগীতিতে উত্তীর্ণ হয়েছিলেন তিনি।

/এম/

সম্পর্কিত

তিনি ইতিহাসের অন্যতম শ্রেষ্ঠ নায়ক: শাকিব খান

তিনি ইতিহাসের অন্যতম শ্রেষ্ঠ নায়ক: শাকিব খান

‘এলেন, দেখলেন, জয় করলেন আবার চলেও গেলেন’

‘এলেন, দেখলেন, জয় করলেন আবার চলেও গেলেন’

পর্দায় সালমান শাহকে দেখেই নায়ক হওয়ার ইচ্ছে জেগেছিল: নিরব 

পর্দায় সালমান শাহকে দেখেই নায়ক হওয়ার ইচ্ছে জেগেছিল: নিরব 

সালমান শাহ ভাটির আগে উজানের ঢেউ: শাকিব খান

সালমান শাহ ভাটির আগে উজানের ঢেউ: শাকিব খান

নেটফ্লিক্সে দেখুন ক্লাসিক পাঁচ কমেডি

আপডেট : ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০:১১

প্রাণখুলে হাসাও ব্যায়ামের একটা অংশ। আর সেটা করতে ঢুঁ মারতে পারেন নেটফ্লিক্সের ‘ব্যায়ামাগারে’। জনপ্রিয় এ ওটিটি প্ল্যাটফর্মের কমেডি সিনেমার সুবিশাল আর্কাইভ থেকে আজ রইলো পাঁচটি ছবির কাহিনি সংক্ষেপ।

আন্দাজ আপনা আপনা

ভারতীয় কমেডির কিংবদন্তিতুল্য এই সিনেমা কিন্তু প্রথমে ফ্লপই হয়েছিল। তবে সময় যতো বেড়েছে আমির-সালমানের এ সিনেমার আয় ও কদর দুটোই ততো বেড়েছে। অনেকের মতে গত ৫০ বছরের সেরা হিন্দি কমেডি সিনেমা মনে করা হয় এটাকেই।

ছবির প্রধান চরিত্রে ছিলেন সালমান খান ও আমির খান। সঙ্গে ছিলেন নব্বইর দশকের দুই সুপারস্টার অভিনেত্রী রাভিনা টেন্ডন ও কারিশমা কাপুর।

অমর ও প্রেম ছোট এক শহরের দুই বাউন্ডুলে। যাদের কাজ বাবার কষ্টের টাকা বসে বসে ওড়ানো। অমরের ইচ্ছা কম কষ্টে বড়লোক হওয়া, আর প্রেমের স্বপ্ন অভিনেতা হবার। এমন সময়ে আগমণ ঘটে বিলেতফেরত কোটিপতি বাবার মেয়ে রাভিনা ও তার সেক্রেটারি কারিশমার। রাভিনা বিয়ের জন্য বিজ্ঞপ্তি দিয়েছে যে সে এক ভারতীয় ছেলেকে বিয়ে করবে। রাভিনাকে বিয়ে করতে নিজেদের বাবার সব সম্পত্তি বিক্রি করে বের হয়ে যায় অমর আর প্রেম। অপরদিকে রাভিনার চাচা গ্যাংস্টার তেজা পরিকল্পনা করে রাভিনা ও তার বাবার সম্পত্তি দখলের। শেষে রাভিনাকে কে বিয়ে করতে পারে জানতে চাইলে দেখুন ‘আন্দাজ আপনা আপনা’।

ডোলেমাইট ইজ মাই নেইম

৭০ দশকের হতাশায় ভরা সময়কাল থেকে এ সিনেমার গল্প শুরু। মধ্যবয়সী রুডি মুর তখন লস এঞ্জেলসের একটি রেকর্ড স্টোরের ম্যানেজার। নিজের হতাশার কারণে গানের ক্যারিয়ার পুরোপুরি বিপর্যস্ত। এমন সময় রুডির সঙ্গে এক সম্বলহীন মানুষের দেখা হয়। সেই মানুষটা তাকে দালাল ‘ডোলেমাইট’-এর গল্প শোনায়। সেই গল্পটাই নিজের মধ্যে ধারণ করে রুডি। ভাঁজ করা গোলাপি শার্টের বোতাম এঁটে, উইগ পরে, সাদা স্যুট গায়ে চাপিয়ে নিজের মনে পুষে রাখা ডোলেমাইটকে গুছিয়ে আনে সে। তারপর শুরু হয় তার অন্য জীবন।

হেইল, সিজার!

জোয়েল কোয়েন ও ইথান কোয়েন পরিচালিত কমেডি ফিল্ম ‘হেইল, সিজার!’ ১৯৫০ সালের হলিউডের চিত্র তুলে আনা হয়েছে এতে। এডি ম্যানিক্স ক্যাপিটল পিকচার্স প্রডাকশনের প্রধান। তার প্রধান কাজ হলো স্টুডিওর সুনাম বজায় রাখা এবং বড় তারকাদের বিতর্কের হাত থেকে বাঁচানো। সেই সময়কার ‘হেইল সিজার, আ টেল অব ক্রাইস্টস লাইফ’ চলচ্চিত্রের কেন্দ্রীয় অভিনেতা হুইটলক। ম্যানিক্সকে জানানো হয়, তাদের ফিল্মের নায়ক কাউকে না বলে গায়েব হয়ে গেছে। তার মতে, হুইটলক কোথাও মাতাল হয়ে পড়ে আছে। কিন্তু সে জানতে পারে কমিউনিস্টরা তাকে অপহরণ করেছে, মুক্তিপণ হিসেবে চেয়েছে এক লাখ ডলার।

আরেকদিকে উঠতি তারকা ডিঅ্যান মোরান অন্তঃসত্ত্বা। এদিকে গসিপ কলামিস্টদের কলমও চালু হয়ে গেছে। আরও নানান ঝামেলা সামাল দিতে কোমর বেঁধে নামতে হয় এডিকে।

লেডি বার্ড

নিজের অবস্থার প্রতি একদমই কৃতজ্ঞ নয় ক্রিস্টিন ম্যাকফারসন। তাই নিজের নাম বদলে রাখে লেডি বার্ড। পরিবার আর্থিক সংকটে পড়া সত্ত্বেও শহরের একটি নামকরা কলেজে পড়তে চায় সে। লেডি বার্ড ও তার ঘনিষ্ট বন্ধু জুলি স্কুলের অনুষ্ঠানে যোগ দেয়। যেখানে লেডি বার্ড তার সহপাঠী ড্যানির প্রতি আকৃষ্ট হয়। এরপরেই ঘটতে থাকে মজার সব ঘটনা।

ইউরোভিশন সং কনটেস্ট: দ্য স্টোরি অব ফায়ার সাগা

এই সিনেমাটাকে উইল ফেরেলের বোকা ধাঁচের সাদামাটা কমেডি ছবি বলেই মনে করেছিলেন দর্শকরা। কিন্তু এটি যে আশাবাদ, ভালোবাসা এবং গৌরবগাথার এক অনবদ্য আবেগঘন সিনেমা তা খুব দ্রুতই জানাজানি হয়। কমেডিও আছে এর পরতে পরতে।

সূত্র: নেটফ্লিক্স

/এফএ/এমএম/

সম্পর্কিত

গেয়েও মুগ্ধ করলেন জয়া আহসান (ভিডিও)

গেয়েও মুগ্ধ করলেন জয়া আহসান (ভিডিও)

‘প্রীতিলতা’র ফাঁকে ‘পদ্মাপুরান’! (ভিডিও)

‘প্রীতিলতা’র ফাঁকে ‘পদ্মাপুরান’! (ভিডিও)

ভাইরাল হওয়া ছবিটি আসলেই শখের?

ভাইরাল হওয়া ছবিটি আসলেই শখের?

অর্ণবকে নিয়ে চলচ্চিত্র, অভিনয়ে আছেন তারাও

অর্ণবকে নিয়ে চলচ্চিত্র, অভিনয়ে আছেন তারাও

৫০-এ সালমান শাহ

তিনি ইতিহাসের অন্যতম শ্রেষ্ঠ নায়ক: শাকিব খান

আপডেট : ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০০:৫৪

সালমান ও শাকিব এমন রীতি ঢালিউডে খুব একটা মেলে না, সাম্প্রতিক সময়ে যেমনটা দেখাচ্ছেন শাকিব খান। সতীর্থদের জন্ম ও মৃত্যুদিনে- নিয়মিত নিজের সোশ্যাল হ্যান্ডেলে স্মরণ করছেন এই শীর্ষ নায়ক।

যেমন ঢালিউডের ক্ষণজন্মা বরপুত্র সালমান শাহকে উদ্দেশ করে শাকিব খান দাবি করেন, ইতিহাসের অন্যতম শ্রেষ্ঠ নায়ক সালমান শাহ। শনিবার দিবাগত মধ্যরাতে (১৯ সেপ্টেম্বর রাত ১২টা ১ মিনিট) সালমান শাহ পা রাখলেন ৫০তম জন্মবার্ষিকীতে। ঠিক সেই ক্ষণে শাকিব খান তার ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে লেখেন দীর্ঘ শুভেচ্ছা পত্র।  

যাতে তিনি উল্লেখ করেন এভাবে, দ্যুতিময় এক শিল্পীর নাম সালমান শাহ। বেঁচে থাকলে তিনি আজ (১৯ সেপ্টেম্বর) ৫০ বছরে পা রাখতেন। হয়তো বয়সের ছাপ ফুটে উঠতো তাঁর হাসিতে। গলায় ভর করতো গাম্ভীর্য। দুয়েকটা সাদা চুল দেখা গেলেও তাঁর নায়কসুলভ ব্যক্তিত্বের সামনে হয়তো কেউ পাত্তাই পেত না! তাকে নিয়েই ৫০তম জন্মদিনের সুর্বণজয়ন্তী পালন করতাম আমরা।
 
সালমান শাহকে অল্প সময়ে হারানোর ক্ষত নিয়ে শাকিব খান বলেন, ‘বাংলা চলচ্চিত্রের ইতিহাসে ক্ষণজন্মা এ মানুষটি ২৫ বছর আগে চলে গেলেও আজও আমার মনে সেই ২৫ বছরের তরুণ নায়ক হয়ে দাগ কেটে আছেন। যে দাগটা তাঁর প্রস্থানের এতো বছর পরেও জ্বলজ্বলে।’

সালমান শাহের জনপ্রিয়তা টেনে বলেন, ‘অভিনয় জীবনে অল্প সময়ে এতো মানুষের ভালোবাসা পাওয়া যে সত্যি দুর্লভ ভাগ্যের ব্যাপার, সেটা সালমান শাহকে দেখলে বোঝা যায়। আজও বাংলার মানুষ তাকে আবেগ ও শ্রদ্ধায় স্মরণ করছে, ভবিষ্যতেও করে যাবে।
একজন মানুষ অমরত্ব পায় তার কর্মের মাধ্যমে। সালমান শাহ নামক মহান শিল্পী অকালে চলে গিয়েও আমাদের কাছে অমর হয়ে আছেন। তিনি বেঁচে থাকবেন তার ভক্ত অনুরাগীদের হৃদয়ে, প্রজন্ম থেকে প্রজন্মে।’ 

আজ (১৯ সেপ্টেম্বর) ঢালিউডের ক্ষণজন্মা নক্ষত্র সালমান শাহের ৫০তম জন্মদিন। ১৯৭১ সালের এই দিনে নানার বাড়ি সিলেটের জকিগঞ্জে তার জন্ম। মৃত্যু ১৯৯৬ সালের ৬ সেপ্টেম্বর। মাত্র ২৫ বছরের জীবন।

সালমান শাহ-পরবর্তী সময়ে যারা চলচ্চিত্রে নায়ক হওয়ার জন্য এসেছেন তারা প্রত্যেকেই বলেছেন, বলছেন এখনও- সালমান শাহ-ই ছিলেন তাদের অনুপ্রেরণার প্রধান উৎস। মাত্র চার বছরে ২৭টি ছবিতে অভিনয় করেছেন। সব শ্রেণির দর্শক-সমালোচকদের মন জয় করে তারকা হওয়ার জন্য সময়টা যথেষ্ট নয়। এরমধ্যে প্রায় দশটি অসমাপ্ত ছবি। প্রথম ছবি ‘কেয়ামত থেকে কেয়ামত’ থেকেই দর্শকদের মনে জায়গা করে নিয়েছিলেন।

হয়তো অল্প সময়ের জন্য এসেছিলেন বলেই এত দ্যুতি ছড়াতে পেরেছিলেন, কেটে গেছেন দাগ। যে দাগটা তার প্রস্থানের টানা এতো বছর পরেও জ্বলজ্বলে। তার অনুপস্থিতি আর অকাল প্রস্থান আজও পোড়াচ্ছে অগুনতি মানুষের মন।

১৯৮৫/৮৬ সালের দিকে হানিফ সংকেতের গ্রন্থনায় ‘কথার কথা’ নামে একটি ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান প্রচার হতো। এর কোনও একটি পর্বে ‘নামটি ছিল তার অপূর্ব’ নামের একটি গানের মিউজিক ভিডিও পরিবেশিত হয়। হানিফ সংকেতের কণ্ঠে গাওয়া এই মিউজিক ভিডিওতে মডেল হওয়ার মাধ্যমেই সালমান শাহ মিডিয়ায় প্রথম সবার নজর কাড়েন। তখন অবশ্য তিনি ইমন নামেই পরিচিত ছিলেন।

আরও কয়েক বছর পর প্রয়াত নাট্যজন আব্দুল্লাহ আল মামুনের প্রযোজনায় ‘পাথর সময়’ ধারাবাহিক নাটকে একটি ছোট চরিত্র এবং কয়েকটি বিজ্ঞাপনচিত্রেও কাজ করেছিলেন। তবে রুপালি পর্দায় সালমান সাম্রাজ্যের সূচনা হয় ৯০ দশকের শুরুর দিকে সোহানুর রহমান সোহানের ‘কেয়ামত থেকে কেয়ামত’ ছবির মধ্য দিয়ে। বাকিটা ইতিহাস। সালমান শাহ

গায়ক হিসেবেও সালমানের পরিচিতি ছিল। ছোটবেলা থেকেই শিল্প-সংস্কৃতির প্রতি দারুণ আগ্রহ ছিল তার। বন্ধুমহলে সবাই তাকে কণ্ঠশিল্পী হিসেবে চিনতেন। ১৯৮৬ সালে ছায়ানট থেকে পল্লীগীতিতে উত্তীর্ণ হয়েছিলেন তিনি।

/এমএম/

সম্পর্কিত

নায়ককে নিয়ে শাবনূরের আবেগঘন স্মরণ

নায়ককে নিয়ে শাবনূরের আবেগঘন স্মরণ

সভাপতি প্রার্থী শাকিব খান, সম্পাদক পদে জায়েদ, পরীমণি অনিশ্চিত!

সভাপতি প্রার্থী শাকিব খান, সম্পাদক পদে জায়েদ, পরীমণি অনিশ্চিত!

ছোট পর্দার জন্য জুটি বাঁধলেন শাকিব-ফারিয়া

ছোট পর্দার জন্য জুটি বাঁধলেন শাকিব-ফারিয়া

‘এলেন, দেখলেন, জয় করলেন আবার চলেও গেলেন’

‘এলেন, দেখলেন, জয় করলেন আবার চলেও গেলেন’

গেয়েও মুগ্ধ করলেন জয়া আহসান (ভিডিও)

আপডেট : ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৩:৪৪

জয়া আহসান, থেমে থেমে প্রতিভার বিস্ফোরণ ঘটানোই যেন তার কাজ! ঢালিউড, টলিউড হয়ে বলিউডে পৌঁছানোর গল্প তো সবারই জানা। দুই বাংলার সেরা পুরস্কারগুলোতেও রয়েছে তার নিয়মিত অংশগ্রহণ। 

মাঝে অভিনয়ের বাইরে দাঁড়িয়ে একটি সিনেমায় গাইবার কথা, সেটির খবরও মিলেছে ২০১৯-এর দিকে। এবার পাওয়া গেলো তার ফল। উন্মুক্ত হলো জয়ার গাওয়া প্রথম গান ‌‘সুখের মাঝে’। রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের কথা-সুরের গানটি যে শুধু গাইবার জন্য গাওয়া, তা কিন্তু নয়। এই গাওয়াটিও অভিনয়ের স্বার্থেই। গানটি ব্যবহার হলো সদ্য মুক্তি পাওয়া অতনু ঘোষের ‘বিনিসুতোয়’ চলচ্চিত্রে। যা কলকাতায় মুক্তি পেয়েছিল ২০ আগস্ট। ছবিতে গানটির সঙ্গে জয়া আহসান ঠোঁটও মেলালেন। তার সঙ্গে ছিলেন নায়ক ঋত্বিক চক্রবর্তী।
 
ছবি মুক্তির পর গানটি সম্প্রতি প্রকাশ হয়েছে ইকো বেঙ্গলি মিউজিকের ইউটিউব চ্যানেলে। প্রশংসা মিলছে তুমুল। যেমন, ‘কি সুন্দর মোহের আবেশ তৈরি করলো জয়ার কণ্ঠে রবীন্দ্রসংগীতটি। মোহাচ্ছন্ন হয়ে শুনলাম গানটি। আহা! কি কণ্ঠস্বর।’ আরেকজন লিখলেন, ‘এতো ভালো রবীন্দ্রসংগীত অনেক প্রথিতযশা শিল্পীও গাইতে পারে না আজকাল। জয়া যা গাইলো, যেভাবে যে যে জায়গায় দম নিলো, যেভাবে ‘পেয়েছি’র ‘পে’ থেকে ‘য়ে’-টা আলাদা করে বললো, অনেক ভালোলাগা বেড়ে গেলো ওর প্রতি।’ জয়া আহসান

জয়ার কণ্ঠটিকে ঘিরে এমন অসংখ্য মন্তব্য ছড়িয়ে পড়েছে ইউটিউব হয়ে সোশ্যাল হ্যান্ডেলে। বিপরীতে জয়ার কণ্ঠে বিনয়ের সুর, ‘নিজের মতো করে চেষ্টা করেছি গাইবার। আশা করছি, আপনাদের ভালো লাগবে।’

প্রশ্ন ছিল, এবারই কি প্রথম গাইলেন? জয়া বাংলা ট্রিবিউনকে বললেন, ‘‘এবারই প্রথম। তবে ‘ডুব সাঁতার’-এ গুন গুন করে ‘তোমার খোলা হাওয়ায়’ গানটি একটু গেয়েছিলাম। ওটাকে ঠিক গাওয়া বলা যাবে না। এবার তো রীতিমতো প্রফেশনালি গাইলাম। যদিও কতোটা ভালো হয়েছে সেটা শ্রোতা-সমালোচকরাই ভালো বলতে পারবেন।’’

জয়ার গলার প্রশংসা করছেন পরিচালক অতনু ঘোষও। তিনি কলকাতার সংবাদমাধ্যমকে বলেন, জয়ার অভিনয়ের সঙ্গে দর্শকের জন্য বাড়তি পাওয়া হিসেবে এসেছে তার কণ্ঠের গান। এ গানটির কথা আলাদা করে বলছেন দর্শক।

অতনু বলেন, ‘গান গাওয়ার আগে জয়া নিজের গলা যথেষ্ট ঘষামাজা করেছেন। সেটা তার গায়কীই বলে দিচ্ছে। তার কথা বলার নিজস্বতা রয়েছে। সেখানে অন্য কোনও কণ্ঠ গানটি গাইলে মানাত না। জয়া অনেক শ্রম দিয়েছেন এ গানে।’

গত ২০ আগস্ট কলকাতার মাত্র একটি প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেয়েছে ‘বিনিসুতোয়’। ভারতের জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারজয়ী নির্মাতা অতনু ঘোষ পরিচালিত এই সিনেমায় জয়া আহসানের বিপরীতে অভিনয় করেছেন ঋত্বিক চক্রবর্তী। তৃতীয় সপ্তাহে এসে নন্দন ১-এর পাশাপাশি চলছে নজরুল তীর্থতেও। ক্রমশ বাড়ছে দর্শক চাপ।

ছবিতে কাজল ও শ্রাবণীর ভূমিকায় অভিনয় করেছেন ঋত্বিক ও জয়া। মধ্য তিরিশের এই দুই মানুষের একে অপরের সঙ্গে পরিচয় হয় একটি রিয়েলিটি শোয়ের অডিশনে। দু’জনের জীবনের গল্পে বেশ কিছুটা মিল থাকায় খুব তাড়াতাড়িই পরস্পরের সঙ্গে মিশে যান তারা। কিন্তু এরই মাঝে এক দুর্ঘটনায় আহত হন শ্রাবণী। দ্রুত তাকে ডাক্তারের কাছে নিয়ে যান কাজল। যাওয়ার পথে তারা একে অপরের সঙ্গে শেয়ার করেন জীবনের ঘাত-প্রতিঘাতের গল্প। এ নিয়েই ‘বিনিসুতোয়’।

জয়া-ঋত্বিক ছাড়াও ছবিতে অভিনয় করেছেন চান্দ্রেয়ী ঘোষ, কৌশিক সেন, রেশমি সেন, খেয়া চট্টোপাধ্যায় প্রমুখ। জয়া আহসান

/এমএম/

সম্পর্কিত

নেটফ্লিক্সে দেখুন ক্লাসিক পাঁচ কমেডি

নেটফ্লিক্সে দেখুন ক্লাসিক পাঁচ কমেডি

‘প্রীতিলতা’র ফাঁকে ‘পদ্মাপুরান’! (ভিডিও)

‘প্রীতিলতা’র ফাঁকে ‘পদ্মাপুরান’! (ভিডিও)

ভাইরাল হওয়া ছবিটি আসলেই শখের?

ভাইরাল হওয়া ছবিটি আসলেই শখের?

অর্ণবকে নিয়ে চলচ্চিত্র, অভিনয়ে আছেন তারাও

অর্ণবকে নিয়ে চলচ্চিত্র, অভিনয়ে আছেন তারাও

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

২৮ জুলাই মুক্তি পাচ্ছে তাদের সিনেমা ‘‌সাহসিকা’

২৮ জুলাই মুক্তি পাচ্ছে তাদের সিনেমা ‘‌সাহসিকা’

সর্বশেষ

‘শান্তি ও নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণে তরুণদের দক্ষতাবৃদ্ধি জরুরি’

‘শান্তি ও নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণে তরুণদের দক্ষতাবৃদ্ধি জরুরি’

খালেদা জিয়ার মুক্তির মেয়াদ আরও ৬ মাস বাড়লো

খালেদা জিয়ার মুক্তির মেয়াদ আরও ৬ মাস বাড়লো

মামলা করতে আদালতে জেমস

মামলা করতে আদালতে জেমস

নকল ওষুধসহ গ্রেফতার ৩

নকল ওষুধসহ গ্রেফতার ৩

ঢাবি সাংবাদিক সমিতির ৩৬তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন

ঢাবি সাংবাদিক সমিতির ৩৬তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন

© 2021 Bangla Tribune