X
রবিবার, ২৫ জুলাই ২০২১, ১০ শ্রাবণ ১৪২৮

সেকশনস

পদোন্নতিতে পিছিয়ে পড়বেন তদবিরে বদলি প্রাথমিক শিক্ষকরা

আপডেট : ১৭ জুলাই ২০২১, ১২:০০

‘তদবির’ করে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের যেসব শিক্ষক বদলি হয়েছেন, তারা পদোন্নতিতে পিছিয়ে পড়বেন। ২০১৯ সালের নিয়োগ বিধিমালা অনুযায়ী উপজেলা বা থানার মেধাতালিকা অনুসারে জ্যেষ্ঠতা নির্ধারণ করে পদোন্নতি দেওয়া হবে। এক্ষেত্রে বদলি হওয়া শিক্ষকদের যোগদানের তারিখ থেকে জ্যেষ্ঠতা নির্ধারণ করা হবে, চাকরির শুরু থেকে নয়।

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর সূত্রে জানা গেছে, উপজেলা বা থানার শূন্যপদের ২০ শতাংশ বদলির কথা থাকলেও তদবিরের মাধ্যমে নিয়ম না মেনে ইচ্ছামতো বদলি করা হয়েছে শিক্ষকদের। শতভাগই বদলি হয়েছেন কোনও না কোনও জেলা সদরে।

শুধু তাই নয়, বদলির পর ওই শিক্ষকদের পদোন্নতিও দেওয়া হয়েছে অনিয়মের মাধ্যমে। এতে স্থানীয় কোটায় নিয়োগ পাওয়া শিক্ষকদের মধ্যে অসন্তোষ দেখা দেয়।

শিক্ষকরা তদবির করে জেলা শহরে বদলি হওয়ায় গ্রামের স্কুলগুলোয় শিক্ষক সংকট লেগেই থাকে। এই পরিস্থিতি সামাল দিতে পদোন্নতির জন্য এবার ২০১৯ সালের নিয়োগ বিধিমালা অনুযায়ী জ্যেষ্ঠতার তালিকা করা হচ্ছে। বিধিমালার ৩(৩) ধারায় বলা হয়েছে, নিয়োগ কার্যক্রম শূন্যপদের ভিত্তিতে উপজেলা বা থানাভিত্তিক হবে।

২০২০ সালের ১৫ নভেম্বর জারি করা আদেশে জ্যেষ্ঠতা নির্ধারণে বলা হয়েছে, ২০১৯ সালের নিয়োগ বিধিমালাসহ সংশ্লিষ্ট অন্যান্য বিধিমালা অনুসরণ করতে হবে।

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর সূত্রে জানা গেছে, বিভিন্ন সময় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের উপজেলা বা থানার কোটায় মেধাতালিকা অনুযায়ী নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। উপজেলা পরিষদও নিয়োগ দিয়েছে। এ ক্ষেত্রে জাতীয় মেধাতালিকা নেই প্রাথমিক শিক্ষকদের। নন-ক্যাডার থেকে প্রধান শিক্ষক পদেও নিয়োগ দেওয়া হয়েছে আলাদা মেধাক্রমের ভিত্তিতে। এসব কারণে উপজেলা বা থানাভিত্তিক জ্যেষ্ঠতা নির্ধারণ করে পদোন্নতি দেওয়ার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। এতে বদলি হওয়া শিক্ষকরা মেধাক্রমে পিছিয়ে পড়ছেন। তবে যে উপজেলা বা থানার কোটায় নিয়োগ সেই জায়গায় ফেরত গেলে তারা পিছিয়ে পড়বেন না।

বিষয়টি নিয়ে রাজধানীসহ বিভিন্ন এলাকায় কর্মরত শিক্ষকদের মধ্যে মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা গেছে।

রাজধানীর লালবাগের হাজী ইব্রাহিম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মিজানুর রহমান বলেন, ‘৩২ থেকে ৩৫ বছর রাজধানীতে চাকরি করেও পদোন্নতি পাচ্ছেন না স্থানীয় কোটায় নিয়োগ পাওয়া শিক্ষকরা। পদোন্নতি ছাড়াই সহকারী শিক্ষক হিসেবে অবসরে গেছেন অনেকে। এ পরিস্থিতি ঠেকাতে মামলা করারও প্রস্তুতি নিয়েছিলাম। কিন্তু জটিলতা হতে পারে ভেবে মামলা করিনি।’

মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখান উপজেলার কাঁঠালতলী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মো. তাসরিফ আহমেদ বলেন, ‘২০ বছর চাকরি করে পদোন্নতি বঞ্চিত হচ্ছেন শিক্ষকরা। বদলি শিক্ষকরা পদোন্নতি পেয়েছেন। শূন্যপদের ২০ শতাংশ বদলি করার কথা থাকলেও সব পদ পূরণ করে বদলি করা হয়। এতে স্থানীয় কোটায় নিয়োগ পাওয়া শিক্ষকরা বঞ্চিত হন। নিয়োগ বিধিমালা মেনে পদোন্নতি হলে এ সমস্যা থাকবে না।’

অন্যদিকে, বদলি হয়ে আসা শিক্ষকরা বলছেন, চাকরির শুরু থেকে জ্যেষ্ঠতা গণনা না করলে তারা পদোন্নতি বঞ্চিত হবেন। কেরানীগঞ্জের জিঞ্জিরা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক নিগার সুলতানা বলেন, ‘এই সিদ্ধান্ত অমানবিক। ২০১১ সালের পদোন্নতি বিধিমালায় বলা ছিল না যে, বদলি হয়ে আসলে পদোন্নতি দেওয়া হবে না। এমন হবে জানলে সিরাজদিখান থেকে এখানে বদলি হয়ে আসতাম না।’

এ বিষয়ে আলমগীর মুহম্মদ মনসুরুল আলম বলেন,‘নিয়োগবিধি অনুযায়ী পদোন্নতি দেওয়া হচ্ছে। বদলি নীতিমালা অনুযায়ী নয়। এতে বদলি শিক্ষকরা বঞ্চিত হবেন সত্য, কিন্তু বদলির কারণে উপজেলা ও থানার কোটায় নিয়োগ পাওয়া রাজধানী ও জেলা সদরের শিক্ষকরাও বঞ্চিত হবেন। এই জটিলতার কারণে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ে মতামত চাওয়া হয়েছে। মন্ত্রণালয় একটি বৈঠকও করেছে। মতামত পাওয়া গেলে সেই অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

তিনি আরও বলেন,‘প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে তদবির করে বদলি হয়ে জেলা শহরে এসেছেন অনেক শিক্ষক। এ কারণে প্রতিবারই ওই সব এলাকায় বেশি শিক্ষক নিয়োগ দিতে হচ্ছে। এতে অনেক সময় কম যোগ্য শিক্ষকও নিতে হচ্ছে। অথচ জেলা শহরে যোগ্য প্রার্থীকেও নেওয়া সম্ভব হচ্ছে না।’

/এফএ/

সম্পর্কিত

অধ্যক্ষের চেয়ে বেশি বেতন পান তৃতীয় শ্রেণির কর্মচারী

অধ্যক্ষের চেয়ে বেশি বেতন পান তৃতীয় শ্রেণির কর্মচারী

শিক্ষক প্রশিক্ষণে প্রাক-প্রাথমিকের মডিউল যুক্ত হচ্ছে

শিক্ষক প্রশিক্ষণে প্রাক-প্রাথমিকের মডিউল যুক্ত হচ্ছে

সেপ্টেম্বরে খুলবে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান

সেপ্টেম্বরে খুলবে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান

২৬ কোটি টাকা আত্মসাৎ: সাধারণ বীমা কর্মকর্তা রিমান্ডে

২৬ কোটি টাকা আত্মসাৎ: সাধারণ বীমা কর্মকর্তা রিমান্ডে

জাতীয় বায়োটেকনোলজি কুইজ প্রতিযোগিতার উদ্বোধন

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২১, ১৪:৪৫

দেশে প্রথমবারের মতো আয়োজিত হচ্ছে বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের জন্য বেসরকারি উদ্যোগে ‘জাতীয় বায়োটেকনোলজি কুইজ চ্যালেঞ্জ ২০২১’। শিক্ষার্থীদের মাঝে জীবপ্রযুক্তি বিষয়ে দক্ষতা ও জনপ্রিয় করার লক্ষ্যে এই আয়োজন করেছে জীবপ্রযুক্তিবিদদের সংগঠন গ্লোবাল নেটওয়ার্ক অব বাংলাদেশি বায়টেকনোলজিস্টস (জিএনওবিবি)।

রবিবার (২৫ জুলাই) সংগঠনের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য জানানো হয়।

আয়োজকরা জানান, দেশের ৪১টি বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৭২টি দল অংশ নিচ্ছে এই প্রতিযোগিতায়। প্রতিযোগিতার প্রাথমিক বাছাই পর্ব উদ্বোধন করেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক ও আইসিডিডিআর-বি’র বিজ্ঞানী ড. আসাদুল গনি।

উদ্বোধনী বক্তব্যে তিনি বলেন, ‘দেশের উন্নয়ন ও অগ্রগতির পথে জীবপ্রযুক্তি অত্যন্ত গুরত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে পারে। তরুণদের জ্ঞান যাচাই ও বিষয়ভিত্তিক দক্ষতা অর্জনের লক্ষ্যেই এই প্রতিযোগিতার আয়োজন।’

এতে আরও বক্তব্য রাখেন— প্রতিযোগিতার আহ্বায়ক ও বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. মো. শহিদুল ইসলাম। প্রতিযোগিতার বিভিন্ন দিক তুলে ধরেন— ইন্ডিপেনডেন্ট বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ড. সাবরিনা মরিয়ম ইলিয়াস ও শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক নূরনবী আজাদ জুয়েল। উদ্বোধনী পর্ব পরিচালনায় ছিলেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ড. আদনান মান্নান।

প্রথম ধাপে ঢাকা মহানগর, ঢাকা ও ময়মনসিংহ, চট্টগ্রাম, খুলনা, বরিশাল, সিলেট ও নোয়াখালী, রাজশাহী ও উত্তরবঙ্গ— এই ছয়টি অঞ্চলে বিভক্ত হয়ে আঞ্চলিক পর্ব অনুষ্ঠিত হয়। আঞ্চলিক পর্বে বিজয়ী হয় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়, শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, ইস্ট ওয়েস্ট বিশ্ববিদ্যালয়, ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়, মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়। প্রতিযোগিতার সার্বিক সহযোগিতায় রয়েছে নেটওয়ার্ক অব ইয়ং বায়টেকনোলজিস্টস অব বাংলাদেশ। প্রতিযোগিতার কোয়ার্টার ফাইনাল অনুষ্ঠিত হবে ২৬ ও ২৭শে জুলাই এবং প্রতিযোগিতা চলবে আগামী ১ আগস্ট পর্যন্ত। প্রতিটি পর্ব ফেসবুক লাইভে সরাসরি সম্প্রচারিত হবে গ্লোবাল নেটওয়ার্ক অব বাংলাদেশি বায়টেকনোলজিস্টস-এর ফেসবুক পেজ থেকে।

প্রতিযোগিতায় কমিউনিটি পার্টনার হিসেবে আছে ঢাকা ইউনিভার্সিটি সায়েন্স সোসাইটি, চিটাগাং ইউনিভার্সিটি রিসার্চ অ্যান্ড হায়ার স্টাডিস সোসাইটি, আইইউবি লাইফ সায়েন্স ক্লাব, খুলনা ইউনিভার্সিটি হেলিক্স, মাওলানা ভাসানি বিশ্ববিদ্যালয় বিজ্ঞান ক্লাব, ইউএসটিসি বিবিটেক সায়েন্স ক্লাব, নোবিপ্রবি সায়েন্স ক্লাব, বমেশুপ্রবি সায়েন্স ক্লাব।

 

/এসও/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

বাসাবাড়িতে চুরি করতে গৃহকর্মী নিয়োগ!

বাসাবাড়িতে চুরি করতে গৃহকর্মী নিয়োগ!

রামপুরায় যুবকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

রামপুরায় যুবকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

মতিঝিলে গাড়ির গ্যারেজে আগুন

মতিঝিলে গাড়ির গ্যারেজে আগুন

সোশ্যাল মিডিয়া এখন আয়েরও মাধ্যম

সোশ্যাল মিডিয়া এখন আয়েরও মাধ্যম

বাসাবাড়িতে চুরি করতে গৃহকর্মী নিয়োগ!

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২১, ১৪:৩১

রাজধানীর বিভিন্ন বাসাবাড়িতে চুরির জন্য টার্গেট করে গৃহকর্মী সরবরাহ করে থাকে একটি চক্র। চক্রটির সরবরাহকৃত গৃহকর্মী নিয়োগের কয়েকদিনের মাথায় পরিকল্পনা অনুযায়ী, তারা ওইসব বাসায় চুরি করে এবং পালিয়ে যায়।

এমনই একটি  চক্রের সদস্যদের গ্রেফতারের পর রবিবার (২৫ জুলাই) দুপুরে ডিএমপির মিডিয়া সেন্টারে যুগ্ম কমিশনার (ডিবি) মাহবুবুল আলম সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।

গত শুক্রবার (২৩ জুলাই) রামপুরার হাইস্কুল গলির একটি বাসা থেকে সোনার চেইন, চুড়ি, আংটিসহ নগদ কিছু টাকা চুরি হয়। এই ঘটনার পরদিন গৃহকর্তা রামপুরা থানায় একটি মামলা করেন।মামলাটির ছায়া তদন্ত শুরু করে গোয়েন্দা রমনা বিভাগ। বিভিন্ন তথ্য-উপাত্ত বিশ্লেষণ করে স্বল্প সময়ের মধ্যে ডিবি রমনা বিভাগের ‘অবৈধ অস্ত্র উদ্ধার ও মাদক নিয়ন্ত্রণ টিম’ কুমিল্লার লাকসাম থেকে গৃহকর্মী নুপুর আক্তারকে গ্রেফতার করে। এসময় তার কাছ থেকে  চুরি হওয়া ১টি সোনার চুড়ি, একটি সোনার আংটি ও নগদ ৫ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়।

উদ্ধার করা টাকা ও স্বর্ণালংকার মাহবুবুল আলম বলেন, ‘একটি অসাধু চক্র ঢাকা শহরের বিভিন্ন বাসাবাড়িতে গৃহকর্মীর ছদ্মবেশে তাদের লোকদের নিয়োগ করে। পরে সুযোগ বুঝে তাদের পাঠানো গৃহকর্মী ওই বাসার স্বর্ণালংকারসহ মূল্যবান জিনিসপত্র নিয়ে পালিয়ে যায়। এ চক্রের অপর সদস্যদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত আছে।’

যুগ্ম কমিশনার  মাহবুব আলম  আরও  বলেন, গৃহকর্মীদের কাজে নিয়োগের আগে তার জাতীয় পরিচয়পত্র সংগ্রহ,বাড়ির ঠিকানা নিশ্চিত হতে হবে।’

প্রয়োজনে থানা পুলিশের সহায়তা নেওয়া এবং তার তথ্য পুলিশের সিআইএমএস-এ অন্তর্ভুক্তির জন্য সম্মানিত মহানগরবাসীকে অনুরোধ করেন গোয়েন্দা পুলিশের এই কর্মকর্তা।

/এআরআর/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

রামপুরায় যুবকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

রামপুরায় যুবকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

মতিঝিলে গাড়ির গ্যারেজে আগুন

মতিঝিলে গাড়ির গ্যারেজে আগুন

সোশ্যাল মিডিয়া এখন আয়েরও মাধ্যম

সোশ্যাল মিডিয়া এখন আয়েরও মাধ্যম

দেশে নতুন মাদকের বাজার সৃষ্টির চেষ্টা চলছেই

দেশে নতুন মাদকের বাজার সৃষ্টির চেষ্টা চলছেই

সাগরে লঘুচাপ, কোথাও কোথাও ভারী বৃষ্টির শঙ্কা

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২১, ১২:৪২

মৌসুমি বায়ুর পাশাপাশি সাগরে সুস্পষ্ট লঘুচাপ থাকায় এর প্রভাবে আগামী কয়েকদিন ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে বিশেষ করে দেশের  দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলে বৃষ্টির পরিমাণ বেশি হতে পারে। কোথাও কোথাও ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টি হতে পারে বলে শঙ্কা প্রকাশ করেছে আবহাওয়া অধিদফতর। এজন্য নদী বন্দরগুলোতে ১ নম্বর সতর্ক সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।

রবিবার (২৫ জুলাই) আবহাওয়াবিদ আবুল কালাম মল্লিক বলেন,  সাগরে  থাকা সুস্পষ্ট লঘুচাপের  প্রভাবে দেশের অনেক এলাকায় বিশেষ করে দক্ষিণ-পশ্চিম দিকে ভারী বৃষ্টির শঙ্কা রয়েছে। এজন্য নদীতে সতর্ক সংকেত রাখা হয়েছে। তবে লঘুচাপটি পশ্চিমবঙ্গ উপকূলে অবস্থান করায় আপাতত সমুদ্র বন্দরে দেওয়া সতর্ক সংকেত নামিয়ে ফেলতে বলা হয়েছে।

আবহাওয়া অধিদফতর জানায়, উত্তর-পশ্চিম  বঙ্গোপসাগর এবং উত্তর উড়িষ্যা ও পশ্চিমবঙ্গ উপকূলে অবস্থানরত সুস্পষ্ট লঘুচাপটি ঝাড়খণ্ড, উত্তর ছত্রিশগড় এবং উড়িষ্যা উপকূলে অবস্থান করছে। এর একটি বর্ধিতাংশ উত্তর বঙ্গোপসাগর পর্যন্ত বিস্তৃত।

মৌসুমি বায়ুর অক্ষের বর্ধিতাংশ রাজস্থান, হরিয়ানা,  উত্তর প্রদেশ, সুস্পষ্ট লঘুচাপের কেন্দ্রস্থল, গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশের দক্ষিণাঞ্চল হয়ে আসাম পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে। মৌসুমি বায়ু বাংলাদেশের দক্ষিণাঞ্চলে সক্রিয় এবং অন্য এলাকার উপর মোটামুটি সক্রিয় এবং উত্তর বঙ্গোপসাগরে প্রবল অবস্থায় বিরাজ করছে।

মৌসুমি বায়ুর প্রভাবে আগামী ২৪ ঘণ্টায় খুলনা, বরিশাল ও চট্টগ্রাম বিভাগের অধিকাংশ জায়গায়,  ঢাকা ও রাজশাহী বিভাগের অনেক জায়গায় এবং সিলেট, রংপুর ও ময়মনসিংহ বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় অস্থায়ী দমকা হাওয়াসহ বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেইসাথে দেশের দক্ষিণাঞ্চলে  ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টি হতে পারে।

আবহাওয়া অধিদফতর জানায়, বাংলাদেশের উপকূলীয় এলাকা, উত্তর বঙ্গোপসাগর এবং সমুদ্র বন্দরে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যাওয়ার কোনও সম্ভাবনা নেই। তাই চট্টগ্রাম,  কক্সবাজার,  মোংলা ও পায়রা সমুদ্র বন্দরে ৩ নম্বর সতর্ক সংকেত নামিয়ে ফেলতে বলা হয়েছে।

এদিকে, নদী বন্দরগুলোর জন্য এক সতর্কবার্তায় বলা হয়,  ঢাকা, ফরিদপুর, মাদারীপুর,  খুলনা,  বরিশাল, পটুয়াখালী,  নোয়াখালী, কুমিল্লা, চট্টগ্রাম, ময়মনসিংহ,  সিলেট  ও  কক্সবাজার অঞ্চলগুলোর উপর দিকে দক্ষিণ-দক্ষিণ পূর্ব দিক থেকে ঘণ্টায় ৪৫ থেকে ৬০ কিলোমিটার বেগে অস্থায়ী দমকা বা ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। এজন্য এসব এলাকার বন্দরগুলোকে ১ নম্বর সতর্ক সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।

/এসএনএস/এমএস/

সম্পর্কিত

সাগরে লঘুচাপ, ঢাকাসহ দক্ষিণে বৃষ্টি বাড়বে

সাগরে লঘুচাপ, ঢাকাসহ দক্ষিণে বৃষ্টি বাড়বে

ঢাকাসহ সারাদেশে মাঝারি থেকে ভারী বৃষ্টি হতে পারে

ঢাকাসহ সারাদেশে মাঝারি থেকে ভারী বৃষ্টি হতে পারে

বৃষ্টিপাত কমেছে, তবে নদী বন্দরে থাকছে ১ নম্বর সংকেত

বৃষ্টিপাত কমেছে, তবে নদী বন্দরে থাকছে ১ নম্বর সংকেত

রামপুরায় যুবকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২১, ১২:২৬

রাজধানীর রামপুরার একটি বাসার দরজা ভেঙে আল মামুন (২৭) নামে এক যুবকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তিনি একটি কনসালটেন্টি ফার্মে চাকরি করতেন।

রবিবার (২৫ জুলাই) সকালে রামপুরা থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) কামরুল হক জিহান তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, পূর্ব রামপুরার ২৬৯/১ নম্বর বাসা থেকে ওই যুবকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। বাসার সিলিং ফ্যানের সঙ্গে গামছা দিয়ে গলায় ফাঁস দেওয়া ঝুলন্ত অবস্থায় ছিল।

শনিবার (২৪ জুলাই) রাতের কোনও একসময় তিনি গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন বলে ধারণা করছে পুলিশ। 

বাসার মালিকের বরাত দিয়ে এসআই কামরুল হক জিহান বলেন, মামুন তার কয়েকজন বন্ধুসহ ওই বাসায় ভাড়া থাকতেন। ঈদের ছুটিতে সবাই বাড়িতে চলে গেলে তিনি একাই বাসায় থেকে যান। রাতে একাধিকবার ডাকাডাকি করেও কোনও সাড়া শব্দ না পেয়ে আশপাশের লোকজন ডেকে পুলিশে খবর দেন বাড়ির মালিক। পরে পুলিশ গিয়ে তার মৃতদেহ উদ্ধার করে।

পরে রাত পৌনে ১টায় ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে তাকে মৃত ঘোষণা করেন। মৃতদেহটি ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে।

ময়নাতদন্ত রিপোর্ট পেলে এবং তদন্ত সাপেক্ষে মৃত্যুর সঠিক কারণ জানা যাবে বলেও জানান এই পুলিশ কর্মকর্তা। তিনি আরও জানান, নিহত মামুন সাতক্ষীরা কলারোয়া থানার গোয়ালপাড়া গ্রামের আব্দুল হাকিমের ছেলে।

/এআরআর/ ইউএস/

সম্পর্কিত

বাসাবাড়িতে চুরি করতে গৃহকর্মী নিয়োগ!

বাসাবাড়িতে চুরি করতে গৃহকর্মী নিয়োগ!

মতিঝিলে গাড়ির গ্যারেজে আগুন

মতিঝিলে গাড়ির গ্যারেজে আগুন

সোশ্যাল মিডিয়া এখন আয়েরও মাধ্যম

সোশ্যাল মিডিয়া এখন আয়েরও মাধ্যম

দেশে নতুন মাদকের বাজার সৃষ্টির চেষ্টা চলছেই

দেশে নতুন মাদকের বাজার সৃষ্টির চেষ্টা চলছেই

শিক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট বিতরণ কার্যক্রম স্থগিত

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২১, ১২:০৩

কঠোর বিধিনিষেধের কারণে ষষ্ঠ থেকে নবম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট এবং ২০২২ সালের এসএসসি পরীক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট বিতরণ কার্যক্রম স্থগিত করা হয়েছে।

মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতর স্বাক্ষরিত এ সংক্রান্ত অফিস আদেশ আজ রবিবার (২৫ জুলাই) প্রকাশ করা হয়।

আদেশে জানানো হয়, মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের গত ১৩ জুলাই জারি করা বিধিনিষেধ সংক্রান্ত পরিপত্রের  নির্দেশনার প্রেক্ষিতে মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতরের ষষ্ঠ থেকে নবম শ্রেণি ও ২০২২ সালের এসএসসি পরীক্ষার্থীদের জন্য সপ্তাহভিত্তিক চলমান অ্যাসাইনমেন্ট বিতরণ কার্যক্রম পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত স্থগিত করা হলো।

এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে উপপরিচালক, জেলা শিক্ষা অফিসার, উপজেলা ও থানা শিক্ষা অফিসার এবং অধ্যক্ষ ও প্রধান শিক্ষকদের অফিস আদেশে নির্দেশনা দেওয়া হয়।

/এসএমএ/এমএস/

সম্পর্কিত

যেভাবে এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা ও বিকল্প মূল্যায়ন

যেভাবে এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা ও বিকল্প মূল্যায়ন

নভেম্বরে এসএসসি ও ডিসেম্বরে এইচএসসি পরীক্ষা

নভেম্বরে এসএসসি ও ডিসেম্বরে এইচএসসি পরীক্ষা

কাল এসএসসি-এইচএসসি’র সিদ্ধান্ত জানাবেন শিক্ষামন্ত্রী

কাল এসএসসি-এইচএসসি’র সিদ্ধান্ত জানাবেন শিক্ষামন্ত্রী

বিকল্প মূল্যায়নে এসএসসি-এইচএসসির ফল

বিকল্প মূল্যায়নে এসএসসি-এইচএসসির ফল

সর্বশেষ

লকডাউনেও নৌ পথে ডিজে পার্টি

লকডাউনেও নৌ পথে ডিজে পার্টি

জাতীয় বায়োটেকনোলজি কুইজ প্রতিযোগিতার উদ্বোধন

জাতীয় বায়োটেকনোলজি কুইজ প্রতিযোগিতার উদ্বোধন

দাঁড়াতে পারছেন না শুভ, বিছানায় এক সপ্তাহ

দাঁড়াতে পারছেন না শুভ, বিছানায় এক সপ্তাহ

বাসাবাড়িতে চুরি করতে গৃহকর্মী নিয়োগ!

বাসাবাড়িতে চুরি করতে গৃহকর্মী নিয়োগ!

হেলেনা জাহাঙ্গীরকে আমি নেতা বানাইনি: চুমকি

হেলেনা জাহাঙ্গীরকে আমি নেতা বানাইনি: চুমকি

খুলনা বিভাগে বেড়েছে শনাক্ত ও মৃত্যু

খুলনা বিভাগে বেড়েছে শনাক্ত ও মৃত্যু

বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিম স্টেশনে ভারত থেকে আসা অক্সিজেন

বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিম স্টেশনে ভারত থেকে আসা অক্সিজেন

এক সেকেন্ডেই ৫০ হাজার মুভি ডাউনলোড

এক সেকেন্ডেই ৫০ হাজার মুভি ডাউনলোড

অভিযুক্ত প্রধান শিক্ষককেই বিয়ে করলেন সহকারী শিক্ষিকা

অভিযুক্ত প্রধান শিক্ষককেই বিয়ে করলেন সহকারী শিক্ষিকা

লীগ শব্দ জুড়ে দিয়েই আ.লীগের রাজনীতিতে সম্পৃক্তের সুযোগ নেই: ওবায়দুল কাদের

লীগ শব্দ জুড়ে দিয়েই আ.লীগের রাজনীতিতে সম্পৃক্তের সুযোগ নেই: ওবায়দুল কাদের

পর্নো ছবির প্রস্তাব পেয়েছিলেন এই তারকারাও!

পর্নো ছবির প্রস্তাব পেয়েছিলেন এই তারকারাও!

বাংলাদেশ-জিম্বাবুয়ে ‘ফাইনাল’

বাংলাদেশ-জিম্বাবুয়ে ‘ফাইনাল’

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

অধ্যক্ষের চেয়ে বেশি বেতন পান তৃতীয় শ্রেণির কর্মচারী

ভিকারুননিসা নূন স্কুল অ্যান্ড কলেজঅধ্যক্ষের চেয়ে বেশি বেতন পান তৃতীয় শ্রেণির কর্মচারী

শিক্ষক প্রশিক্ষণে প্রাক-প্রাথমিকের মডিউল যুক্ত হচ্ছে

শিক্ষক প্রশিক্ষণে প্রাক-প্রাথমিকের মডিউল যুক্ত হচ্ছে

সেপ্টেম্বরে খুলবে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান

সেপ্টেম্বরে খুলবে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান

২৬ কোটি টাকা আত্মসাৎ: সাধারণ বীমা কর্মকর্তা রিমান্ডে

২৬ কোটি টাকা আত্মসাৎ: সাধারণ বীমা কর্মকর্তা রিমান্ডে

প্রাথমিক বিদ্যালয় মেরামত কাজের তথ্য চেয়েছে সরকার

প্রাথমিক বিদ্যালয় মেরামত কাজের তথ্য চেয়েছে সরকার

১২টি গাড়িতেই দেড় কোটি টাকা গায়েব!

বিএডিসিতে অনিয়ম পর্ব-১৩১২টি গাড়িতেই দেড় কোটি টাকা গায়েব!

খরচের চেয়ে বিল বেশি!

বিএডিসিতে অনিয়ম পর্ব- ৮খরচের চেয়ে বিল বেশি!

পাসপোর্টের উপ-সহকারী পরিচালক ও তার স্ত্রীর বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

পাসপোর্টের উপ-সহকারী পরিচালক ও তার স্ত্রীর বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

প্রাথমিকের এপিএ চুক্তির তথ্য চায় সরকার

প্রাথমিকের এপিএ চুক্তির তথ্য চায় সরকার

প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষার প্রস্তুতির নির্দেশ

প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষার প্রস্তুতির নির্দেশ

© 2021 Bangla Tribune