X
শনিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০ আশ্বিন ১৪২৮

সেকশনস

৮ সরকারি হাসপাতালে ফাঁকা নেই আইসিইউ

আপডেট : ০১ আগস্ট ২০২১, ২২:২৬

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন আরও ২৩১ জন। শনিবার (৩১ জুলাই) ছিল এ সংখ্যা ২১৮ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ১৪ হাজার ৮৪৪ জন। গতকাল শনাক্ত হয়েছিলেন ৯ হাজার ৩৬৯ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় মারা যাওয়া ২৩১ জনকে নিয়ে দেশে সরকারি হিসাবে এ পর্যন্ত মোট মারা গেছেন ২০ হাজার ৯১৬ জন। আর নতুন করে শনাক্ত হওয়া ১৪ হাজার ৮৪৪ জনকে নিয়ে এ পর্যন্ত মোট শনাক্ত হয়েছেন ১২ লাখ ৬৪ হাজার ৩২৮ জন।

আর এ অবস্থায় স্বাস্থ্য অধিদফতর জানাচ্ছে, রাজধানী ঢাকার করোনা ডেডিকেটেড অন্যতম বড় ৮ হাসপাতালেই আইসিইউ (নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্র) বেড ফাঁকা নেই।

স্বাস্থ্য অধিদফতর জানাচ্ছে, বর্তমানে ঢাকার সরকারি ১৭ হাসপাতালে করোনা রোগীদের চিকিৎসা দেওয়া হয়। এরমধ্যে তিনটি হাসপাতালে সাধারণ শয্যা থাকলেও আইসিইউ বেড নেই। এগুলো হলো, সংক্রামক ব্যাধি হাসপাতাল, ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব নিউরো সায়েন্সেস ও হাসপাতাল এবং ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব কিডনি ডিজিজেস অ্যান্ড ইউরোলজি হাসপাতাল।

বাকি হাসপাতালগুলোর মধ্যে কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালের ১০ বেড, সরকারি কর্মচারী হাসপাতালের ছয় বেড, ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ২০ বেড, মুগদা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ২৪ বেড, শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ১০ বেড, রাজারবাগ পুলিশ হাসপাতালের ১৫ বেড, জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউট ও হাসপাতালের আট বেড ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০ বেডের সবগুলোতে রোগী ভর্তি।

অন্য হাসপাতালগুলোর মধ্যে কুয়েত বাংলাদেশ মৈত্রী সরকারি হাসপাতালের ২৬ বেডের মধ্যে একটি, শেখ রাসেল গ্যাস্ট্রোলিভার হাসপাতালের ১৬ বেডের মধ্যে একটি, টিবি হাসপাতালের চার বেডের মধ্যে একটি, জাতীয় বক্ষব্যাধি ইনস্টিটিউট ও হাসপাতালের ১০ বেডের মধ্যে দুটি, ডিএনসিসি করোনা হাসপাতালের ২১২ বেডের আটটি আর পঙ্গু হাসপাতালের তিন বেডের মধ্যে তিনটি ফাঁকা রয়েছে।

অর্থাৎ, রাজধানী ঢাকায় করোনা রোগীদের সেবা দেওয়া ১৭টি ডেডিকেটেড সরকারি হাসপাতালের মোট ৩৮৪টি আইসিইউ বেডের মধ্যে ফাঁকা রয়েছে মাত্র ১৬টি।

/জেএ/এমআর/এমওএফ/

সম্পর্কিত

একদিনে ২২১ ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে

একদিনে ২২১ ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে

চিকিৎসকসহ সাড়ে ৯ হাজার স্বাস্থ্যকর্মী করোনায় আক্রান্ত

চিকিৎসকসহ সাড়ে ৯ হাজার স্বাস্থ্যকর্মী করোনায় আক্রান্ত

‘স্বস্তির ঢিলেমি’ আবারও বিপর্যয় আনতে পারে

‘স্বস্তির ঢিলেমি’ আবারও বিপর্যয় আনতে পারে

টানা দুই দিন করোনায় মৃত্যুহীন বরিশাল 

টানা দুই দিন করোনায় মৃত্যুহীন বরিশাল 

কর্মবিরতির হুঁশিয়ারি ট্রাক কাভার্ডভ্যান মালিক শ্রমিকদের

আপডেট : ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৭:৩৫

উত্থাপিত ১০ দফা দাবি আদায় না হলে ৪৮ ঘণ্টা কর্মবিরতিতে যাওয়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছেন বাংলাদেশ ট্রাক কাভার্ডভ্যান, ট্যাংক-লরী, প্রাইম মুভার মালিক-শ্রমিক সমন্বয় পরিষদ।

শনিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে আয়োজিত এক জনসমাবেশে এ হুঁশিয়ারি দেন পরিষদের আহ্বায়ক রুস্তম আলী খান।

পরিষদের দাবিগুলো হলো— ট্রাক চালক লিটন হত্যার সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে দোষীদের আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা করতে হবে; ড্রাইভিং লাইসেন্সের জটিলতা নিরসন করে লাইসেন্স প্রদান করতে হবে; পণ্য পরিবহনের সময় মালামাল চুরি, ডাকাতি ও ছিনতাই রোধে জরুরি কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে ও এর সঙ্গে যেই জড়িত থাকুক না কেন তাকে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা করতে হবে; বর্ধিত আয়কর প্রত্যাহার করে করোনাকালে পূর্বের ন্যায় জরিমানা ব্যতীত গাড়ির কাগজপত্র হালনাগাদ করার সুযোগ দিতে হবে; সড়ক-মহাসড়কে কাগজপত্র চেকিং এর নামে পুলিশি হয়রানি, চাঁদাবাজি, মান্থলি বা মাসিক মাসোহারা বন্ধ করতে হবে এবং মালিক ও শ্রমিক সমন্বয় পরিষদের নির্দেশিকা অনুযায়ী পরিচালন ব্যয় আদায় করার সুযোগ দিতে হবে।

দাবিগুলোর মধ্যে আরও রয়েছে, বিতর্কিত ব্যক্তিদের নিয়ে কমিটি করার উদ্যোগ বাতিল করতে হবে; সড়ক-মহাসড়কের পাশে এবং প্রত্যেক জেলায় আধুনিক সুযোগ সম্বলিত ট্রাক টার্মিনাল নির্মাণ করতে হবে; টার্মিনাল ব্যতিরেকে ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনসহ সারাদেশের সিটি কর্পোরেশন ও পৌরসভার সড়ক এবং মহাসড়কে অবৈধ চাঁদা বন্ধ করতে হবে ও দেশে সড়ক মহাসড়কগুলো শুধুমাত্র হাইওয়ে পুলিশের অধীনে তদারকির ব্যবস্থা করতে হবে। নির্দিষ্ট স্থানে কাগজপত্র চেকিংয়ের ব্যবস্থা করতে হবে।

তবে উপরোক্ত ১০ দফা দাবি আদায় না হলে আগামী ২৭ ও ২৮ সেপ্টেম্বর পণ্য পরিবহনে কর্মবিরতি পালন করা হবে বলেও হুঁশিয়ারি দিয়েছেন পরিষদের নেতৃবৃন্দরা।

এ সময় সমাবেশে আরও উপস্থিত ছিলেন পরিষদের সদস্য সচিব তাজুল ইসলাম, ঢাকা জেলা ট্রাক ট্যাংক-লরী কাভার্ডভ্যান শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি হাজী জয়নাল আবদীন, সাধারণ সম্পাদক মো. আব্দুল জাব্বার প্রমুখ। 

/বিআই/এনএইচ/

সম্পর্কিত

৮০ বছর বয়সেও বৃদ্ধ আমিনের জীবনচাকা রিকশার প্যাডেলে

৮০ বছর বয়সেও বৃদ্ধ আমিনের জীবনচাকা রিকশার প্যাডেলে

তিস্তাসহ সব নদীর ভাঙন রোধে ৬ দফা দাবি 

তিস্তাসহ সব নদীর ভাঙন রোধে ৬ দফা দাবি 

মাদকবিরোধী রাজধানীতে গ্রেফতার ৫৯ জন

মাদকবিরোধী রাজধানীতে গ্রেফতার ৫৯ জন

‘অভিজাত এলাকায় গাড়ি চললে দিতে হবে এক্সট্রা চার্জ’

‘অভিজাত এলাকায় গাড়ি চললে দিতে হবে এক্সট্রা চার্জ’

একদিনে ২২১ ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে

আপডেট : ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৭:১৬

গত ২৪ ঘণ্টায় (২৪-২৫ সেপ্টেম্বর) ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ২২১ জন। তাদের নিয়ে চলতি মাসে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে মোট ছয় হাজার ৭৫৯ জন হাসপাতালে ভর্তি হলেন।

শনিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) স্বাস্থ্য অধিদফতরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার ও কন্ট্রোল রুম এ তথ্য জানিয়েছে।

কন্ট্রোল রুমের তথ্যানুযায়ী, একদিনে হাসপাতালে ভর্তি হওয়া ২২১ জনের মধ্যে ঢাকার হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ১৬৪ জন আর ঢাকার বাইরের হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ৫৭ জন।

দেশের বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে বর্তমানে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে এক হাজার ৯৯ জন ভর্তি আছেন। তাদের মধ্যে ঢাকা বিভাগের হাসপাতালে ভর্তি আছেন ৮৮০ জন আর অন্যান্য বিভাগের হাসপাতালে ভর্তি আছেন ২১৯ জন।

চলতি বছরে এখন পর্যন্ত ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে মোট ১৭ হাজার ১১৫ জন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। তাদের মধ্যে ১৫ হাজার ৯৫৭ জন চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফিরেছেন। আর চলতি বছরে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে ৫৯ জনের মৃত্যু হয়েছে বলে জানিয়েছে কন্ট্রোল রুম।

কন্ট্রোল রুম জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় ২২১ জনের মধ্যে সবচেয়ে বেশি রোগী ভর্তি হয়েছেন ২১ থেকে ৩০ বছর বয়সীরা। এই বয়সের রোগী ভর্তি হয়েছেন ২৪ দশমিক আট শতাংশ। এরপর রয়েছে ১১ থেকে ২০ বছর বয়সীরা; ২৪ দশমিক এক শতাংশ, শূন্য থেকে ১০ বছর বয়সীরা রয়েছে ২২ দশমিক ছয় শতাংশ, ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে রয়েছে ১২ দশমিক আট শতাংশ, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে রয়েছেন পাঁচ দশমিক তিন শতাংশ, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে রয়েছেন চার দশমিক পাঁচ শতাংশ, ষাটোর্ধ রয়েছেন তিন দশমিক আট শতাংশ আর শূন্য থেকে এক বছর বয়সীদের হাসপাতালে ভর্তির হার দুই দশমিক তিন শতাংশ।

/জেএ/এনএইচ/

সম্পর্কিত

চিকিৎসকসহ সাড়ে ৯ হাজার স্বাস্থ্যকর্মী করোনায় আক্রান্ত

চিকিৎসকসহ সাড়ে ৯ হাজার স্বাস্থ্যকর্মী করোনায় আক্রান্ত

‘স্বস্তির ঢিলেমি’ আবারও বিপর্যয় আনতে পারে

‘স্বস্তির ঢিলেমি’ আবারও বিপর্যয় আনতে পারে

টানা দুই দিন করোনায় মৃত্যুহীন বরিশাল 

টানা দুই দিন করোনায় মৃত্যুহীন বরিশাল 

মাস বাকি আরও ৭ দিন, ডেঙ্গু রোগী ছাড়ালো সাড়ে ছয় হাজার 

মাস বাকি আরও ৭ দিন, ডেঙ্গু রোগী ছাড়ালো সাড়ে ছয় হাজার 

‘কক্সবাজারে নতুন রেললাইন চালু হবে আগামী বছর’

আপডেট : ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৭:১৯

আগামী বছরের ডিসেম্বরে কক্সবাজারে নতুন রেললাইন চালু হবে বলে জানিয়েছেন রেলপথমন্ত্রী নূরুল ইসলাম সুজন। শনিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) কুমিল্লা রেলওয়ে স্টেশনে লাকসাম- কুমিল্লা সেকশনে ২৪ কিলোমিটার ডুয়েলগেজ ডাবল লাইনে ট্রেন চলাচলের উদ্বোধনকালে এসব কথা বলেন মন্ত্রী। এদিন বিকালে রেল মন্ত্রণালয় থেকে পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়েছে।

নূরুল ইসলাম সুজন আরও জানিয়েছেন,  যমুনা নদীর ওপর রেল সেতু নির্মাণ করা হচ্ছে যেটি ২০২৪ সালে চালু হবে।  পদ্মা সেতু রেল সংযোগ ঢাকা থেকে যশোর পর্যন্ত করা হচ্ছে।  খুলনা থেকে মংলা পর্যন্ত নতুন রেললাইন নির্মাণ করা হচ্ছে। এভাবে অনেক প্রকল্প নেওয়া হয়েছে রেলের উন্নয়নে ।

মন্ত্রী জানান, আখাউড়া থেকে টঙ্গী পর্যন্ত পরবর্তীতে ব্রডগেজ  করা হবে।  ভবিষ্যতে ঢাকা-চট্টগ্রাম পুরাটাই ডুয়েলগেজ ডাবল লাইনে উন্নীত করা হবে।

এ সময় তিনি নিরাপদ যাত্রার ক্ষেত্রে ট্রেনে ঢিল ছোড়ার বিরুদ্ধে জনসচেতনতা গড়ার আহ্বান জানান।  

উল্লেখ্য আখাউড়া-লাকসাম সেকশনে নতুন ৭২ কিলোমিটার ডুয়েলগেজ দ্বিতীয় রেললাইন নির্মাণ এবং বিদ্যমান ৭২  কিলোমিটার মিটার গেজ রেললাইনকে ডুয়েলগেজে রূপান্তর করা হচ্ছে। আজ লাকসাম কুমিল্লা সেকশনে ২৪ কিলোমিটার ট্রেন চলাচলের উদ্বোধন করেন রেলপথমন্ত্রী ।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কুমিল্লা-৫ আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট আবুল হাশেম খান,  সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ রেলওয়ের মহাপরিচালক ধীরেন্দ্র নাথ মজুমদার। বাংলাদেশ রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলের মহাব্যবস্থাপক জাহাঙ্গীর হোসেনসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

/এসটিএস/এমআর/

সম্পর্কিত

ট্রেনে কাটা পড়ে, ধাক্কা খেয়ে দুজনের মৃত্যু

ট্রেনে কাটা পড়ে, ধাক্কা খেয়ে দুজনের মৃত্যু

টিকিট শেষ, তবুও অপেক্ষা (ফটোস্টোরি)

টিকিট শেষ, তবুও অপেক্ষা (ফটোস্টোরি)

অনলাইনে টিকিট যুদ্ধের পর ট্রেনে ঈদযাত্রা

অনলাইনে টিকিট যুদ্ধের পর ট্রেনে ঈদযাত্রা

লোকাল ট্রেনে স্বাস্থ্যবিধি মানানো কঠিন: রেলমন্ত্রী

লোকাল ট্রেনে স্বাস্থ্যবিধি মানানো কঠিন: রেলমন্ত্রী

‘বাল্যবিয়ে প্রতিরোধে সংসদ সদস্যদের ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ’ 

আপডেট : ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৬:৫০

জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী এমপি বলেছেন, বাল্যবিয়ে প্রতিরোধে নারীশিক্ষাকে উৎসাহিত করার ক্ষেত্রে সংসদ সদস্যদের ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ। সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে সাধারণ মানুষের দোরগোড়ায় পৌঁছাতে বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অফ পার্লামেন্টারিয়ান্স অন পপুলেশন অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট (বিএপিপিডি)-এর সকল কর্মকাণ্ড তৃণমূল পর্যায়ে বাস্তবায়ন ও পর্যবেক্ষণে সকলের সম্মিলিত প্রয়াস জরুরি।

শনিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) গাজীপুরের কালীগঞ্জ উপজেলায় বাংলাদেশ জাতীয় সংসদ সচিবালয় কর্তৃক বাস্তবায়নাধীন এসপিসিপিডি প্রকল্পের আওতায় গঠিত ‘বিএপিপিডি কর্তৃক বাল্যবিবাহ ও জেন্ডারভিত্তিক সহিংসতা প্রতিরোধ এবং প্রজনন স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিতকরণ’ শীর্ষক পরামর্শ কর্মশালায় প্রধান অতিথি হিসেবে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে স্পিকার এসব কথা বলেন। এসময় তিনি পরামর্শ কর্মশালার উদ্বোধন করেন।

স্পিকার বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আমরা প্রতিটি ক্ষেত্রে ব্যাপক অগ্রগতি অর্জন করেছি। সম্প্রতি জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে তাকে ‘এসডিজি প্রগেস এওয়ার্ড’-এ ভূষিত করা হয়েছে। কমিউনিটি ক্লিনিকের জনবান্ধব ধারণাটি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার একান্ত ব্যক্তিগত চিন্তার ফসল।

ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেন, কোভিডকালীন সময়ে সমগ্র বিশ্বে নারীর প্রতি সহিংসতা বৃদ্ধি পেয়েছে। নারী সহিংসতা, বাল্যবিবাহের মতো উদ্ভূত চ্যালেঞ্জগুলো মোকাবিলা করে উত্তরণ ঘটাতে হবে। অসচ্ছল বাবা-মায়েদের আস্থাহীনতার কারণে করোনাকালীন সময়ে বাল্যবিবাহ বৃদ্ধি পেয়েছে। প্রকৃতপক্ষে কন্যাসন্তান তাদের জন্য বোঝা নয়। 

মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি এবং ‘বাল্যবিবাহ ও জেন্ডার ভিত্তিক সহিংসতা প্রতিরোধ বিষয়ক উপ-কমিটি’র আহ্বায়ক বেগম মেহের আফরোজ এমপি-র সভাপতিত্বে এবং বাংলাদেশ জাতীয় সংসদ সচিবালয়ের সচিব কে. এম. আব্দুস সালামের সঞ্চালনায় কর্মশালায় বিশেষ অতিথি হিসেবে নজরুল ইসলাম বাবু এমপি, আরমা দত্ত এমপি, শিউলি আজাদ এমপি, শবনম জাহান এমপি, ফখরুল ইমাম এমপি বক্তব্য রাখেন।

/ইএইচএস/এমআর/

সম্পর্কিত

কর্মবিরতির হুঁশিয়ারি ট্রাক কাভার্ডভ্যান মালিক শ্রমিকদের

কর্মবিরতির হুঁশিয়ারি ট্রাক কাভার্ডভ্যান মালিক শ্রমিকদের

একদিনে ২২১ ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে

একদিনে ২২১ ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে

‘কক্সবাজারে নতুন রেললাইন চালু হবে আগামী বছর’

‘কক্সবাজারে নতুন রেললাইন চালু হবে আগামী বছর’

৮০ বছর বয়সেও বৃদ্ধ আমিনের জীবনচাকা রিকশার প্যাডেলে

৮০ বছর বয়সেও বৃদ্ধ আমিনের জীবনচাকা রিকশার প্যাডেলে

৮০ বছর বয়সেও বৃদ্ধ আমিনের জীবনচাকা রিকশার প্যাডেলে

আপডেট : ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৬:৫২

বয়স ৮০ পেরিয়েছে, তবুও তিন চাকার বাহন রিকশা নিয়ে তার অবিরাম ছুটে চলা। বলছি, মো. আমিন মিয়ার কথা। স্থায়ী বাসস্থান নেই বলে পরিবার নিয়ে থাকেন বুড়িগঙ্গা নদীর ওপারে দক্ষিণ কেরানীগঞ্জে। কিন্তু তার আর ওপারে যাওয়া হয় না। কখনও রাস্তার পাশে, পার্কের বেঞ্চিতে কিংবা মসজিদের বারান্দায় রাত কাটে। লাঠি ভর করে হাঁটতে কষ্ট হলেও রিকশা নিয়ে জীবন-জীবিকার তাগিদে ঠিকই অবিরাম ছুটে চলছেন আমিন মিয়া।

রাজধানীর পুরান ঢাকার অলিগলি, গুলিস্তান, পল্টন কিংবা বেইলি রোডে আমিন মিয়ার দেখা মেলে। বয়সের ভারে পথচলা কঠিন হলেও পৃথিবীতে টিকে থাকার লড়াইয়ে থেমে নেই এই বৃদ্ধ। যে বয়সে একজন মানুষের অবসর সময় কাটানোর কথা, সেখানে উত্তপ্ত রোদ অথবা বৃষ্টির মাঝেই রিকশা নিয়ে ছুটে চলেন পথে প্রান্তরে। সাধারণ মানুষেরাও তার এই পথচলাকে সহানুভূতি ও ইতিবাচক দৃষ্টিতে দেখছেন।

রকিবুল ইসলাম নামের একজন ব্যাংক কর্মকর্তা বলেন, এই বৃদ্ধ চাচাকে প্রায় সময় রিকশা নিয়ে ঘুরতে দেখি। তবে উনার রিকশায় কোনও যাত্রী উঠতে দেখি না। একদিন কিছু টাকা দিতে চাইলেও নিতে চাননি। পরে এমনিতেই রিকশায় উঠে ভাড়া দিয়েছি। এই চাচাকে প্রতিদিনই কেউ না কেউ সহযোগিতা করেন। 

আমিন মিয়া পঞ্চাশের পর থেকেই বার্ধক্যজনিত রোগে ভুগছেন। বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, রিকশা নিয়ে চলাফেরা করতে তার বেশ কষ্ট হয়। মাঝেমধ্যে শরীরে খিঁচুনি দিলে দাঁড়িয়ে থাকতেও পারে না। তবুও সংসার চালাতে এই বয়সে প্রতিদিন বের হওয়া লাগে। 

তার পরিবারে দুই ছেলে থাকার কথা স্বীকার করলেও তাদের সম্পর্কে বেশি কিছু বলতে চাননি আমিন মিয়া। চাপা কণ্ঠে তাদের কথা এড়িয়ে যান। বলেন, যার কেউ নেই তার আল্লাহ আছে, আমার থেকেও কেউ নেই। তবে আল্লাহর রহমতে ভালই কাটছে সময়। রিকশা চালিয়ে প্রতিদিন দুই থেকে তিন শ’ টাকা আয় হয়। তাতেই দিন চলে। 

তিনি আরও বলেন, মানুষ আমাকে যথেষ্ট সাহায্য সহযোগিতা করে। আমার রিকশায় তেমন কেউ উঠে না। অনেকে রিকশায় না উঠেও ভাড়া দিয়ে দেয়। আবার কেউ কেউ খারাপ ব্যবহারও করে। ভিক্ষা চাইতে লজ্জা লাগে তাই রিকশা চালাই। তাছাড়া আমাদের নবী ভিক্ষা করতে নিষেধ করেছেন।

/এনএইচ/ 

সম্পর্কিত

কর্মবিরতির হুঁশিয়ারি ট্রাক কাভার্ডভ্যান মালিক শ্রমিকদের

কর্মবিরতির হুঁশিয়ারি ট্রাক কাভার্ডভ্যান মালিক শ্রমিকদের

তিস্তাসহ সব নদীর ভাঙন রোধে ৬ দফা দাবি 

তিস্তাসহ সব নদীর ভাঙন রোধে ৬ দফা দাবি 

মাদকবিরোধী রাজধানীতে গ্রেফতার ৫৯ জন

মাদকবিরোধী রাজধানীতে গ্রেফতার ৫৯ জন

‘অভিজাত এলাকায় গাড়ি চললে দিতে হবে এক্সট্রা চার্জ’

‘অভিজাত এলাকায় গাড়ি চললে দিতে হবে এক্সট্রা চার্জ’

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

একদিনে ২২১ ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে

একদিনে ২২১ ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে

চিকিৎসকসহ সাড়ে ৯ হাজার স্বাস্থ্যকর্মী করোনায় আক্রান্ত

চিকিৎসকসহ সাড়ে ৯ হাজার স্বাস্থ্যকর্মী করোনায় আক্রান্ত

‘স্বস্তির ঢিলেমি’ আবারও বিপর্যয় আনতে পারে

‘স্বস্তির ঢিলেমি’ আবারও বিপর্যয় আনতে পারে

টানা দুই দিন করোনায় মৃত্যুহীন বরিশাল 

টানা দুই দিন করোনায় মৃত্যুহীন বরিশাল 

মাস বাকি আরও ৭ দিন, ডেঙ্গু রোগী ছাড়ালো সাড়ে ছয় হাজার 

মাস বাকি আরও ৭ দিন, ডেঙ্গু রোগী ছাড়ালো সাড়ে ছয় হাজার 

‘করোনা নিয়ে আরও কাজ হলে গবেষণার ক্ষেত্রটা বাড়বে’

সাক্ষাৎকারে ড. ফেরদৌসী কাদরী ‘করোনা নিয়ে আরও কাজ হলে গবেষণার ক্ষেত্রটা বাড়বে’

দ্বিতীয় ডোজের আওতায় ১ কোটি ৫৭ লাখ মানুষ 

দ্বিতীয় ডোজের আওতায় ১ কোটি ৫৭ লাখ মানুষ 

৫ দিনের মধ্যে বড় পরিসরে টিকাদান কর্মসূচি

৫ দিনের মধ্যে বড় পরিসরে টিকাদান কর্মসূচি

অনূর্ধ ১০ বছর বয়সী ডেঙ্গু রোগীই প্রায় ২৫ শতাংশ

অনূর্ধ ১০ বছর বয়সী ডেঙ্গু রোগীই প্রায় ২৫ শতাংশ

করোনায় মৃত ২৪ জনের ১৪ জন নারী

করোনায় মৃত ২৪ জনের ১৪ জন নারী

সর্বশেষ

মিয়ানমারে দ্রুত গণতন্ত্র ফেরাতে মোদি-বাইডেনের বিবৃতি

মিয়ানমারে দ্রুত গণতন্ত্র ফেরাতে মোদি-বাইডেনের বিবৃতি

কর্মবিরতির হুঁশিয়ারি ট্রাক কাভার্ডভ্যান মালিক শ্রমিকদের

কর্মবিরতির হুঁশিয়ারি ট্রাক কাভার্ডভ্যান মালিক শ্রমিকদের

বিসিবি নির্বাচন: মনোনয়নপত্র কিনলেন পাপন

বিসিবি নির্বাচন: মনোনয়নপত্র কিনলেন পাপন

৭০ বছর পর মায়ের সন্ধান পেলেন কুদ্দুস

৭০ বছর পর মায়ের সন্ধান পেলেন কুদ্দুস

বিসিবি নির্বাচন: সুজনের প্রতিদ্বন্দ্বী সাকিব-মুশফিকের কোচ

বিসিবি নির্বাচন: সুজনের প্রতিদ্বন্দ্বী সাকিব-মুশফিকের কোচ

© 2021 Bangla Tribune