X
সকল বিভাগ
সেকশনস
সকল বিভাগ

ব্যাংকারদের বেতন কাঠামো পুনর্বিবেচনার দাবি

আপডেট : ২৬ জানুয়ারি ২০২২, ১৭:১৪

শিক্ষানবিশকাল শেষ হওয়ার পর বেসরকারি ব্যাংকের কর্মকর্তাদের সর্বনিম্ন বেতন ৩৯ হাজার টাকা বেঁধে দিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। কিন্তু বেসরকারি ব্যাংক কর্মকর্তাদের বেতন-ভাতা সংক্রান্ত সম্প্রতি ইস্যু করা বাংলাদেশ ব্যাংকের ওই গাইডলাইন নির্ধারিত সময়ের মধ্যে বাস্তবায়ন করা সম্ভব নয় বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব ব্যাংকসের (বিএবি) চেয়ারম্যান নজরুল ইসলাম মজুমদার।

বুধবার (২৬ জানুয়ারি) বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব ব্যাংকস (বিএবি), অ্যাসোসিয়েশন অব ব্যাংকারস, বাংলাদেশ (এবিবি) এবং বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ফজলে কবিরের মধ্যকার এক বৈঠকের পর এমন মন্তব্য করেন নজরুল ইসলাম মজুমদার।

তিনি বলেন, মার্চের মধ্যে এন্ট্রি লেভেল ব্যাংক কর্মকর্তাদের গাইডলাইন মেনে বেতন-ভাতা দেওয়া কঠিন হবে। আমরা গভর্নরকে সময় বাড়ানোর এবং পুরো বিষয়টি আরেকবার বিবেচনা করার অনুরোধ করেছি। আমাদেরকে আশ্বস্ত করা হয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক বিষয়টি খতিয়ে দেখবে।

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের মুখপাত্র ও নির্বাহী পরিচালক মো. সিরাজুল ইসলাম সাংবাদিকদের জানান, নির্দেশনা কার্যকরে বাড়তি সময়ের দাবি ভেবে দেখা হবে। তবে সার্কুলারের বিষয়ে যেসব অস্পষ্টতা ছিল উভয়পক্ষের আলোচনায় তা পরিষ্কার হয়েছে।

এর আগে, গত ২০ জানুয়ারি শিক্ষানবিশকাল শেষ হওয়ার পর বেসরকারি ব্যাংকের কর্মকর্তাদের সর্বনিম্ন বেতন ৩৯ হাজার টাকা বেঁধে দেয় বাংলাদেশ ব্যাংক।  আগামী মার্চ থেকে এ নির্দেশনা কার্যকর করতে হবে বলে জানানো হয়েছে নির্দেশনায়।  নির্দেশনায় বলা হয়েছে, ব্যাংকের বেঁধে দেওয়া লক্ষ্যমাত্রা অর্জন করতে না পারলে অথবা অদক্ষতার অজুহাতে কোনও ব্যাংকারকে চাকরিচ্যুত করা যাবে না। এতে আরও বলা হয়েছে, শিক্ষানবিশকালে ট্রেইনি অ্যাসিস্ট্যান্ট অফিসারদের (জেনারেল ও ক্যাশ) সর্বনিম্ন বেতন হবে ২৮ হাজার টাকা।

এ নির্দেশনা কার্যকর করতে গিয়ে ব্যাংকগুলো চাপে পড়বে বলে ব্যাংক মালিকরা মনে করেন। তাদের এই উদ্বেগের বিষয়টি তুলে ধরতে বুধবার গভর্নর ফজলে কবিরসহ কেন্দ্রীয় ব্যাংকের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক হয়। বৈঠকে বিভিন্ন ব্যাংকের চেয়ারম্যান ছাড়াও কয়েকজন এমডি উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠকে আরও জানানো হয়, করোনার কারণে ঋণ পরিশোধে ছাড় উঠে যাওয়ার পর ব্যাংকে খেলাপি ঋণ বেড়ে যাবে। এ নিয়ে তারা যখন দুশ্চিন্তায়, তখন বাংলাদেশ ব্যাংক নানাভাবে আন্তর্জাতিক চর্চাবহির্ভূত সিদ্ধান্ত চাপিয়ে দিচ্ছে। এসব বিষয়ে তারা উদ্বেগও প্রকাশ করেন।

/জিএম/এমআর/
বাংলা ট্রিবিউনের সর্বশেষ
অভিবাসী কর্মীদের নিরাপদ সঞ্চয়ের পথ তৈরি করতে হবে: প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রী
অভিবাসী কর্মীদের নিরাপদ সঞ্চয়ের পথ তৈরি করতে হবে: প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রী
ইসলামিক ফাউ‌ন্ডেশ‌নের উপপরিচালকের বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা
ইসলামিক ফাউ‌ন্ডেশ‌নের উপপরিচালকের বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা
বিশেষজ্ঞদের মতে ইভিএম চমৎকার, অপেক্ষার কথা বললেন সিইসি
বিশেষজ্ঞদের মতে ইভিএম চমৎকার, অপেক্ষার কথা বললেন সিইসি
এক সংকল্প আর আত্মমর্যাদার নাম পদ্মা সেতু
এক সংকল্প আর আত্মমর্যাদার নাম পদ্মা সেতু
এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত
শুল্ক বৃদ্ধিতে যেসব পণ্যের দাম বাড়বে
শুল্ক বৃদ্ধিতে যেসব পণ্যের দাম বাড়বে
স্মারক স্বর্ণমুদ্রার দাম বাড়লো
স্মারক স্বর্ণমুদ্রার দাম বাড়লো
অনিয়মের ঋণ অবলোপন হলে সুদ মওকুফ নয়
অনিয়মের ঋণ অবলোপন হলে সুদ মওকুফ নয়