X
রবিবার, ১৬ জুন ২০২৪
২ আষাঢ় ১৪৩১
পল্টনে পুলিশের ওপর হামলা

প্রত্যন্ত গ্রামে শ্বশুরবাড়িতে আত্মগোপনে ছিলেন যুবদল নেতা আপন

পটুয়াখালী প্রতিনিধি
০৩ নভেম্বর ২০২৩, ২১:১২আপডেট : ০৩ নভেম্বর ২০২৩, ২১:৩৮

রাজধানীর পল্টনে পুলিশের ওপর হামলার ঘটনায় দায়ের করা মামলার আসামি যুবদল নেতা আপন আহমেদ গ্রেফতার হওয়ার আগের তিন দিন পটুয়াখালীতে শ্বশুরবাড়িতে ছিলেন। ওই বাড়িটি গলাচিপা উপজেলার বকুলবাড়িয়া ইউনিয়নের প্রত্যন্ত গ্রাম গুয়াবাড়িয়ার বিলের মধ্যে। নিরাপদ ভেবে সেখানে আত্মগোপনে ছিলেন আপন।

বৃহস্পতিবার (২ নভেম্বর) ভোরে ঢাকা থেকে আসা পুলিশের একটি দল ওই বাড়ি থেকে তাকে গ্রেফতার করে নিয়ে যায়। এ সময় তাকে গ্রেফতারের কারণ জানতেন না ওই এলাকার কেউ।

শুক্রবার সেই বাড়িটিতে গিয়ে আপনের শ্বশুর ফোরকান মুন্সিকে পাওয়া যায়নি। বাড়িতে রয়েছেন তার শাশুড়ি মর্জিনা বেগম। তিনি জানান, মঙ্গলবার ভোরে তার মেয়ে মৌসুমি এবং জামাই আপন আহমেদ ওই বাড়িতে বেড়াতে আসেন। বৃহস্পতিবার সকালে আপনকে পুলিশ ধরে নিয়ে গেছে। পুলিশের ওপরে হামলায় জড়িত থাকা এবং মামলার বিষয়ে তারা কিছু জানেন না। 

তিনি আরও জানান, মৌসুমি ঢাকার একটি ক্লিনিকে চাকরি করতেন। প্রায় দুই বছর আগে প্রেমের সম্পর্ক থেকে আপনের সঙ্গে তার বিয়ে হয়।

পটুুয়াখালীর গ্রামে আপনের শ্বশুরবাড়ি কলাগাছিয়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শেখ আমিনুল ইসলাম বলেন, ‘পল্টনে পুলিশের ওপর হামলায় সরাসরি জড়িত আপন আহমেদ তার শ্বশুরবাড়ি গুয়াবাড়িয়ায় অবস্থান নিয়েছিলেন। কেরানীগঞ্জ থানা পুলিশ এবং আমরা অভিযান চালিয়ে ওই বাড়ি থেকে তাকে গ্রেফতার করেছি। পরে কেরানীগঞ্জ থানা পুলিশ আপনকে ঢাকায় নিয়ে গেছে।’ 

আপন আহমেদ ঢাকার কেরানীগঞ্জ থানার কালিন্দী ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা দীন ইসলামের ছেলে। তিনি কালন্দি ইউনিয়ন যুবদলের যুগ্ম আহ্বায়ক।

কেরানীগঞ্জ থানা পুলিশ জানায়, ২৮ অক্টোবর ঢাকার পল্টনে পুলিশের ওপরে সরাসরি হামলা করেছেন আপন। এ ছাড়াও নাশকতা এবং সহিংসতায় জড়িত তিনি। এ ঘটনায় পল্টন থানায় তার বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। গ্রেফতার এড়াতে তিনি চুল ও দাড়ি কেটে ফেলেন। পরে ঢাকা থেকে পালিয়ে পটুয়াখালীতে আত্মগোপনে ছিলেন। 

/এমএএ/
সম্পর্কিত
সর্বশেষ খবর
দেশের বড় জামাতের জন্য প্রস্তুত গোর-এ-শহীদ, মুসল্লি আসবে ট্রেনে
দেশের বড় জামাতের জন্য প্রস্তুত গোর-এ-শহীদ, মুসল্লি আসবে ট্রেনে
গাজায় হামাসের অতর্কিত হামলা, ৮ ইসরায়েলি সেনা নিহত
গাজায় হামাসের অতর্কিত হামলা, ৮ ইসরায়েলি সেনা নিহত
হাসিলের টাকা কম দেওয়ায় লঙ্কাকাণ্ড, হামলা হলো পুলিশের ওপরও
হাসিলের টাকা কম দেওয়ায় লঙ্কাকাণ্ড, হামলা হলো পুলিশের ওপরও
ঈদে পর্যটক বরণে প্রস্তুত কক্সবাজার, হোটেল-মোটেলে ৪০% ছাড়
ঈদে পর্যটক বরণে প্রস্তুত কক্সবাজার, হোটেল-মোটেলে ৪০% ছাড়
সর্বাধিক পঠিত
রেমিট্যান্সের পালে স্বস্তির হাওয়া, রিজার্ভেও উন্নতি
রেমিট্যান্সের পালে স্বস্তির হাওয়া, রিজার্ভেও উন্নতি
আমরা আক্রান্ত হলে ছেড়ে দেবো না: সেন্টমার্টিন নিয়ে ওবায়দুল কাদের
আমরা আক্রান্ত হলে ছেড়ে দেবো না: সেন্টমার্টিন নিয়ে ওবায়দুল কাদের
কেমন থাকবে ঈদের দিনের আবহাওয়া?
কেমন থাকবে ঈদের দিনের আবহাওয়া?
বেনাপোলে যাত্রীদের উপচে পড়া ভিড়, পেট্রাপোল ইমিগ্রেশনে ভোগান্তি
বেনাপোলে যাত্রীদের উপচে পড়া ভিড়, পেট্রাপোল ইমিগ্রেশনে ভোগান্তি
‘মাস্তান’ গরুটির জন্য কাঁদছে দর্শক
‘মাস্তান’ গরুটির জন্য কাঁদছে দর্শক