X
সকল বিভাগ
সেকশনস
সকল বিভাগ

ঘোড়ার পিঠে গেলেন বর, কনে এলেন পালকিতে

আপডেট : ১৭ নভেম্বর ২০২১, ২৩:০৬

নিজের বিয়েকে স্মরণীয় করে রাখার শখ ছিল ভোলা শহরের গাজীপুর রোডের বাসিন্দা মো. আনোয়ারুল আজিজের। তাই ঘোড়ার পিঠে চড়ে যান বিয়ে করতে। আর নববধূকে নিয়ে আসেন পালকিতে।

বুধবার (১৭ নভেম্বর) বিকালে ভোলা সদর উপজেলার ধনিয়া ইউনিয়নের ছোট আলগী গ্রামের লোকমান হোসেনের মেয়ে সুমাইয়া আক্তারকে বিয়ে করেন আজিজ। তিনি গাজীপুর রোডের আকবর হোসেনের ছেলে। চাকরি করেন ঢাকায়, পাসপোর্ট অফিসে কম্পিউটার অপারেটর পদে।

আনোয়ারুল আজিজ জানান, আগে গ্রাম বাংলার ঐতিহ্য ছিল, পালকিতে কনে শ্বশুরবাড়ি আসবে। বর ঘোড়ার পিঠে বিয়েতে যেতো। কিন্তু কালের বিবর্তনে তা বিলীন হয়ে গেছে। আমার বিয়েকে স্মরণীয় করে রাখতে নিজে ঘোড়ার পিঠে চড়ে কনের বাড়ি যাই। আর কনেকে পালকিতে করে নিয়ে বাড়ি ফিরি।

আনোয়ারুল আজিজ ও সুমাইয়া আক্তার

ভোলা পৌর ২ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা ও বরের বন্ধু ইভান তালুকদার জানান,‌ ‌‘আমার বন্ধু আজিক বিয়েতে প্রাচীন ঐতিহ্য তুলে ধরতে চেয়েছিল। তাই এই আয়োজন করে। বর্তমান প্রজন্ম বিষয়টি দেখে অনুপ্রাণিত হবে।’

স্থানীয় বাসিন্দা ও বিয়েতে আসা কবির হোসেন জানান, তিনি আগে তার দাদা-দাদির মুখে বর ঘোড়ার পিঠে চড়ে গিয়ে কনেকে পালকিতে করে নিয়ে আসার এমন গল্প শুনেছেন। কিন্তু আজ তিনি নিজের চোখে তা দেখেছেন। 

পালকির মালিক মো. শরীফ জানান, তিনি গত কয়েক দিন আগে প্রায় ৩০ হাজার টাকা খরচ করে পালকি তৈরি করেছেন। এই প্রথম তার পালকিতে কোনও নববধূ শ্বশুর বাড়ি আসলো। এরকম আয়োজন যদি হয়, তাহলে তাদের জীবিকা আরও ভালোভাবে চলবে।

/এসএইচ/
বাংলা ট্রিবিউনের সর্বশেষ
‘বিসিএস বিশ্ববিদ্যালয় খুলেন, প্রিলিমিনারি-ভাইভা বিভাগ চালু করেন’
‘বিসিএস বিশ্ববিদ্যালয় খুলেন, প্রিলিমিনারি-ভাইভা বিভাগ চালু করেন’
রাতে নামবে বৃষ্টি,  কমতে পারে তাপমাত্রা
রাতে নামবে বৃষ্টি,  কমতে পারে তাপমাত্রা
সুনামগঞ্জে স্রোতে ভেসে যাচ্ছে ঘরবাড়ি ও সড়ক
সুনামগঞ্জে স্রোতে ভেসে যাচ্ছে ঘরবাড়ি ও সড়ক
দেশে সব ধর্মের মানুষ ধর্মীয় অধিকার ভোগ করছে: আইনমন্ত্রী
দেশে সব ধর্মের মানুষ ধর্মীয় অধিকার ভোগ করছে: আইনমন্ত্রী
এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত